সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায় ও সুমন চক্রবর্তী
সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায় ও সুমন চক্রবর্তী ছবি - সংগৃহীত

WB Scientists: এশিয়ার একশো জন সেরা বিজ্ঞানীদের তালিকায় বাংলার দুই

People's Reporter: খড়গপুর আইআইটির অধ্যাপক ও গবেষক সুমন চক্রবর্তী এবং কলকাতা ইন্ডিয়ান স্ট্যাটিস্টিকাল ইনস্টিটিউটের ডিরেক্টর সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায় এই তালিকায় জায়গা পেয়েছেন।

এশিয়ার একশো জন সেরা বিজ্ঞানীদের তালিকায় জায়গা পেলেন রাজ্যের দুই বিজ্ঞানীও। সম্প্রতি এশিয়ান সায়েন্টিস্ট ম্যাগাজিনের অষ্টম সংস্করণ প্রকাশিত হয়েছে। ওই তালিকায় বাংলার দুজন সহ ভারতের মোট ১৭ জন বিজ্ঞানীর নাম রয়েছে।

২০১৬ সাল থেকে পথচলা শুরু করেছে এশিয়ান সায়েন্টিস্ট ম্যাগাজিন। প্রতি বছর এই পত্রিকায় তুলে ধরা হয় বিজ্ঞানে অসামান্য গবেষণার সাথে যুক্ত এশিয়ার একশো জন সেরা বিজ্ঞানীদের কথা। সেই তালিকায় এবার রাজ্যের দুই বিজ্ঞানী - খড়গপুর আইআইটির অধ্যাপক ও গবেষক সুমন চক্রবর্তী এবং কলকাতা ইন্ডিয়ান স্ট্যাটিস্টিকাল ইনস্টিটিউটের ডিরেক্টর সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায়।

সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায় ১৯৯৯ সালে কলকাতা ইন্ডিয়ান স্ট্যাটিস্টিকাল ইনস্টিটিউটে মেশিন ইনটেলিজেন্স বিভাগে অধ্যাপিকা হিসেবে যোগ দেন। ২০১৫ সালে তিনি ওই ইনস্টিটিউটের ডিরেক্টর হন। বর্তমানে ডিরেক্টর পদেই আছেন তিনি। ২০২২ সালে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে পদ্মশ্রী পেয়েছেন সঙ্ঘমিত্রা। এছাড়া তাঁর ঝুলিতে আছে ভাটনগর পুরস্কার, ইনফোসিস পুরস্কার, টোয়াস প্রাইজ।

বর্তমানে সঙ্ঘমিত্রা আর্টিফিশিয়াল ইনটেলিজেন্স, মেশিন লার্নিং, সফ্‌ট অ্যান্ড ইভোলিউশনারি কম্পিউটেশন, ডেটা মাইনিং-এর মতো বিজ্ঞান-প্রযুক্তি ক্ষেত্রের বিভিন্ন বিষয়ে গবেষণা করছেন।

অন্যদিকে, যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা করেছেন সুমন চক্রবর্তী। ২০০২ সালে খড়্গপুর আইআইটিতে অধ্যাপক হন তিনি। মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক সুমনের মূল বিষয় ‘ফ্লুইড মেকানিকস অ্যান্ড থার্মাল সায়েন্স’। ডায়াগনস্টিক, সেন্সিং ও থেরাপিউটিকসের জগতে বহু চিকিৎসা পরিষেবার যন্ত্র আবিষ্কার করেছেন তিনি।

এছাড়া করোনার সময়ে ভাইরোলজিস্ট অরিন্দম মণ্ডলকে সঙ্গে নিয়ে একসাথে আবিষ্কার করেছিলেন স্বল্পমূল্যে করোনা পরীক্ষার যন্ত্র ‘কোভির‌্যাপ’। রক্তাল্পতা নির্ণয়ে তৈরি করেছেন ‘হিমো অ্যাপ’। মহিলারা যাতে গোপনীয়তা বজায় রেখে যোনিপথের সংক্রমণের পরীক্ষা বাড়িতেই স্বল্প খরচে করতে পারেন, সেই গবেষণাতেও সাফল্য পেয়েছেন সুমন।

২০২৩ সালে রাষ্ট্রপতির হাত থেকে উচ্চশিক্ষায় প্রথম ‘জাতীয় শিক্ষক’ সম্মান পান সুমন। এছাড়াও তাঁর ঝুলিতে আছে ‘ফ্লুইড মেকানিকস অ্যান্ড থার্মাল সায়েন্স’ নিয়ে গবেষণার জন্য দেশে বিজ্ঞানের সর্বোচ্চ ‘শান্তিস্বরূপ ভাটনগর সম্মান’ও। পেয়েছেন ‘ইনফোসিস পুরস্কার-২০২২’।

সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায় ও সুমন চক্রবর্তী
iPhone Hacked: হ্যাক হতে পারে আইফোন-সহ অ্যাপেল-এর একাধিক ডিভাইস, সতর্ক করল কেন্দ্র
সঙ্ঘমিত্রা বন্দ্যোপাধ্যায় ও সুমন চক্রবর্তী
Weather Update: এপ্রিলের শুরুতেই ভয়ঙ্কর গরমে পুড়ছে দেশবাসী, তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি আবহাওয়া দপ্তরের

GOOGLE NEWS-এ Telegram-এ আমাদের ফলো করুন। YouTube -এ আমাদের চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন।

Related Stories

No stories found.
logo
People's Reporter
www.peoplesreporter.in