ইউজিনে জোড়া পদক! দেশবাসীকে ইতিবাচক আবেগ এনে দেওয়ার সর্বোচ্চ চেষ্টা ইউক্রেনীয় অ্যাথলিটদের

ইউক্রেনকে রূপো এনে দিয়েছেন ইয়ারোস্লাভা মাহুচিখ। ইউক্রেনের অ্যাথলিটরা বিশ্ব অ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশীপের মঞ্চ থেকে দেশবাসীর জন্য ইতিবাচক আবেগ এনে দেওয়ার সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।
ইয়ারোস্লাভ মাহুচিখ
ইয়ারোস্লাভ মাহুচিখছবি - সংগৃহীত

চলতি বিশ্ব অ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশীপে ক্রীড়াবিদদের সবচেয়ে ছোটো প্রতিনিধি দলকে পাঠিয়েছে ইউক্রেন। তবে ২২ সদস্যের শক্তিশালী দল ইউজিনে উপস্থিত থেকে সাম্প্রতিক ভয়াবহ পরিস্থিতির মাঝে স্বদেশীদের আশার আলো দেখিয়ে যাচ্ছেন। পুরুষদের উচ্চলম্ফনে ব্রোঞ্জ জিতেছেন আন্দ্রি প্রোটসেনকো। আর মহিলাদের উচ্চলম্ফনে ইউক্রেনকে রূপো এনে দিয়েছেন ইয়ারোস্লাভা মাহুচিখ। ইউক্রেনের অ্যাথলিটরা বিশ্ব অ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশীপের মঞ্চ থেকে দেশবাসীর জন্য ইতিবাচক আবেগ এনে দেওয়ার সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

শেষ চার মাস ফ্রন্টলাইনে কাটানো ফেডারেশনের বর্তমান ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ইয়েভেন প্রোনিন বলেন, "আমাদের দেশ, আমাদের দল এখনও একটি কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে। অন্যান্য দল বাড়িতে থাকতে পারে, বাড়িতে প্রশিক্ষণ নিতে পারে, তাদের বাবা-মা, তাদের সন্তানদের দেখতে পারে। আমাদের তা নয়। যখন ইউক্রেনে যুদ্ধ শুরু হয় আমরা সবাই বলেছিলাম যে আমাদের অন্য দেশে একসাথে থাকতে হবে।"

প্রোনিন আরও বলেন," আমরা এখানে (ইউজিনে) অনেক সমর্থন পেয়েছি। প্রথম দিন আমরা ইউজিনে একটি স্টুডেন্ট ডাইনিং রুমে এসেছিলাম। পাঁচ বা ছয় জন জিজ্ঞাসা করেছিলো, আমরা কি আপনাদের দুপুরের খাবারের জন্য অর্থ দিতে পারি?"

পাশাপাশি প্রোনিন আরও বলেন যে, তাঁরা কথায় নয়, কাজে করে দেখাবেন। "রাশিয়া যুদ্ধ শুরু করেছে কিন্তু আমাদের এই যুদ্ধ শেষ করতে হবে।"

১৫ ই মার্চ ইউক্রেন ছেড়েছিলেন হাই জাম্পার ইরিনা গেরাসচেঙ্কো। তবে ১০ ই সেপ্টেম্বর মরশুম শেষেই তিনি কিয়েভে ফিরে যাবেন। দেশের সমস্ত সৈন্যিকদের তিনি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন। ইউক্রেনের সমস্ত অ্যাথলিটরা এক হয়ে উঠেছেন। এক বড় ক্রীড়া পরিবারের মতো তাঁরা একে অপরকে সমর্থন করে চলেছেন।

ইয়ারোস্লাভ মাহুচিখ
শেষ প্রচেষ্টাতেই বাজিমাৎ - টানা ২য় বার বিশ্ব অ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশীপের ফাইনালে অন্নু রানী

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in