FIFA World Cup 22: পর্তুগাল-উরুগুয়ে ম্যাচে 'রামধনু' পতাকা নিয়ে মাঠেই প্রতিবাদ এক ব্যক্তির

ওই ব্যক্তির টি-শার্টের পেছনে লেখা ছিল ‘ইরানের মহিলাদের জন্য সম্মান’ এবং সামনে লেখা ছিল ‘ইউক্রেনকে বাঁচাও’।
FIFA World Cup 22: পর্তুগাল-উরুগুয়ে ম্যাচে 'রামধনু' পতাকা নিয়ে মাঠেই প্রতিবাদ এক ব্যক্তির
ছবি - ট্যুইটার

পর্তুগাল-উরুগুয়ে ম্যাচ চলাকালীন হঠাৎ মাঠের মধ্যে রামধনু রঙের পতাকা নিয়ে এক ব্যক্তি ঢুকে পড়ন। একসাথে তিনি ৩টি বিষয়কে তুলে ধরেন তিনি। ইতিমধ্যেই সেই ভিডিও নেটদুনিয়ায় ভাইরাল হয়েছে।

এ যেন এক অন্যরকম বিশ্বকাপ। বিভিন্ন বিষয়ে প্রতিবাদ, সমর্থন বার বার ধরা পড়ছে মিডিয়াতে। রোনাল্ডো-সুয়ারেজদের ম্যাচও তার সাক্ষী থাকল। ম্যাচের ৫০ মিনিটে একজন ব্যক্তি হাতে ওয়ান লাভের প্রতীক রামধনু পতাকা নিয়ে মাঠে দৌড়াতে থাকেন। তাঁর টি-শার্টের পেছনে লেখা ছিল ‘ইরানের মহিলাদের জন্য সম্মান’ এবং সামনে লেখা ছিল ‘ইউক্রেনকে বাঁচাও’। সাথে সাথে তাঁকে নিরাপত্তারক্ষীরা মাঠ থেকে সরিয়ে নিয়ে যান। ইতালির সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, ওই ব্যক্তির নাম মারিও ফেরি।

পর্তুগাল খেলোয়াড় রুবেন নেভেস বলেন, আমরা সকলেই জানি বিশ্বকাপে কী হচ্ছে। এটা সাধারণ বিষয়। অবশ্যই আমরা তাদের সাথেই আছি। ইরানের পাশাপাশি ইরানের মহিলাদের পাশেও আমরা আছি। আমরা আশা করছি ওই ব্যক্তির কিছু হবে না। আমাদের সাথে গোটা বিশ্বও তাঁর বার্তা বুঝতে পেরেছে।

উল্লেখ্য, কাতারে সমকামী ভালোবাসা বা ওয়ান লাভ আর্ম ব্যান্ড, পতাকা সবই  নিষিদ্ধ। বিশ্বকাপ শুরুর আগেই কাতার নির্দেশিকা জারি করেছিল এবিষয়ে। কিন্তু সেই নির্দেশিকা উপেক্ষা করেই জার্মান মন্ত্রী ন্যান্সি ফিজার ওয়ান লাভ আর্ম ব্যান্ড পরে ফিফা প্রেসিডেন্টের পাশেই বসেছিলেন। তাছাড়া ইংল্যান্ড অধিনায়ক হ্যারি কেন যদি ওই ব্যান্ড পরে নামতেন তাহলে তাঁকেও গ্রেপ্তার হতে হবে বলে জানানো হয়েছিল। যদিও কেন সেই নির্দেশিকা মেনেছিলেন।

FIFA World Cup 22: পর্তুগাল-উরুগুয়ে ম্যাচে 'রামধনু' পতাকা নিয়ে মাঠেই প্রতিবাদ এক ব্যক্তির
FIFA World Cup 22: জাতীয় পতাকা বিকৃত করার অভিযোগ, আমেরিকাকে ১০ ম্যাচ নির্বাসনের দাবি ইরানের

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
logo
People's Reporter
www.peoplesreporter.in