TMC: ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় CBI দপ্তরে হাজিরা দিলেন অনুব্রত ঘনিষ্ঠ দুই তৃণমূল বিধায়ক
অনুব্রত মণ্ডলগ্রাফিক্স - সুমিত্রা নন্দন

TMC: ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় CBI দপ্তরে হাজিরা দিলেন অনুব্রত ঘনিষ্ঠ দুই তৃণমূল বিধায়ক

তৃণমূল বিধায়কদের দাবি, ঠিক কী বিষয়ে তদন্ত করতে CBI তাঁদের ডেকেছে সেটা তাঁরা জানেন না।

ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় বারবার উঠে আসছে শাসক দলের একাধিক হেভিওয়েট নেতার নাম। অনুব্রত মণ্ডলের পর এবার CBI দপ্তরে হাজিরা দিলেন অনুব্রত ঘনিষ্ঠ দুই তৃণমূল বিধায়ক। ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় লাভপুরের তৃণমূল বিধায়ক অভিজিৎ সিংহ ওরফে রানা এবং কেতুগ্রামের তৃণমূল বিধায়ক শেখ শাহনওয়াজকে তলব করেছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা (CBI)।

আজ শনিবার CBI দপ্তরে হাজিরা দিলেন ওই দুই তৃণমূল বিধায়ক। দুর্গাপুর এনআইটি-তে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার অস্থায়ী দপ্তরে দুই তৃণমূল বিধায়ককে তলব করা হয়েছিল। শনিবার সকালে সেখানে তাঁরা উপস্থিত হন। সেখানেই দেড় ঘণ্টা ধরে ওই দুই তৃণমূল বিধায়ককে জেরা করা হয় বলে জানা গেছে।

সিবিআই সূত্রের খবর, মূলত বিজেপি কর্মী গৌরব সরকারের খুনের মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তৃণমূল বিধায়কদের হাজিরা দিতে বলা হয়েছে। যদিও হাজিরা দেওয়ার আগে সাংবাদিকদের সামনে তৃণমূল বিধায়করা জানিয়েছেন, কী বিষয়ে তদন্ত করতে CBI তাঁদের ডেকেছে সেটা তাঁরা জানেন না।

এই প্রসঙ্গে লাভপুরের তৃণমূল বিধায়ক অভিজিৎ সিংহ জানান, "সিবিআই আমাকে ডেকেছে। এক জন কর্তব্যনিষ্ঠ নাগরিক হিসাবে যাচ্ছি।" এছাড়াও তদন্ত সংক্রান্ত যেকোনো ব্যাপারে সিবিআই-কে সবরকমের সহায়তা করবেন বলে জানিয়েছেন বিধায়ক।

প্রসঙ্গত, ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় ইতিমধ্যেই সিবিআই দপ্তরে হাজিরা দিয়েছেন বীরভূ্মের তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। টানা প্রায় সাড়ে পাঁচ ঘণ্টা তাঁকে জেরা করা হয়। শুধু তাই নয়, পূর্বে ভোট পরবর্তী হিংসা মামলায় দুর্গাপুরে সিবিআই-এর অস্থায়ী দপ্তরে হাজিরা দিতে দেখা গিয়েছিল অনুব্রতর ঘনিষ্ঠ অরূপ মিদ্যা সহ একাধিক তৃণমূল নেতাকে।

আরও জানা গেছে, অরূপ মিদ্যা ছাড়াও বীরভূমের মহম্মদ বাজারের তৃণমূল সভাপতি তাপস সিনহাকেও হাজিরা দিতে বলেছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। এর পাশাপাশি ব্লক স্তরের বেশকিছু তৃণমূল নেতাকেও ডাকা হয়েছিল।

অনুব্রত মণ্ডল
WB BJP: অনুশাসনের অভাবেই বিজেপিতে ঢুকছে তৃণমূলের চর! সাংবাদিক বৈঠকে দাবি জগন্নাথ সরকারের

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in