Maldah: একশো দিনের কাজে ১০ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ TMC পরিচালিত গ্রাম পঞ্চায়েতের বিরুদ্ধে

পঞ্চায়েতে একশো দিনের কাজে রাস্তায় মাটি ভরাট থেকে শুরু করে পুকুর কাটা, উদ্যান, কবরস্থানের প্রাচীর তৈরি, ঢালাই রাস্তা তৈরিতে দুর্নীতি করেছেন পঞ্চায়েত প্রধান, উপ-প্রধান সহ একাধিক সদস্যেরা।
ছবি - প্রতীকী
ছবি - প্রতীকীছবি সৌজন্যে - নিউজক্লিক

১০০ দিনের কাজ আর্থিক তছরুপের অভিযোগ জানিয়ে জনস্বার্থ মামলা দায়ের হল হাইকোর্টে। গ্রামবাসীদের অভিযোগ মালদহের তৃণমূল পরিচালিত কুশিদা গ্রামপঞ্চায়েতের বিরুদ্ধে। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান প্রায় ১০ কোটি টাকার দুর্নীতি হয়েছে।

রাজ্যে ১০০ দিনের কাজে আর্থিক তছরুপের ঘটনা নতুন নয়। এর আগেও পঞ্চায়েতে দুর্নীতি নিয়ে বিভিন্ন জায়গা থেকে তৃণমূলের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছিল। এবার নাম জড়ালো মালদহের হরিশ্চন্দ্রপুর ব্লকের ১ নম্বর কুশিদা গ্রাম পঞ্চায়েতের।

বাসিন্দাদের অভিযোগ, পঞ্চায়েতে একশো দিনের কাজে রাস্তায় মাটি ভরাট থেকে শুরু করে পুকুর কাটা, উদ্যান, কবরস্থানের প্রাচীর তৈরি, ঢালাই রাস্তা তৈরিতে দুর্নীতি করেছেন পঞ্চায়েত প্রধান, উপ-প্রধান সহ একাধিক সদস্যেরা। হিসাব করলে দেখা যাবে প্রায় ১০ কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছেন তাঁরা।

মামলাকারী জানান, কুশিদা গ্রাম-পঞ্চায়েতের বুথ পিছু লাখ লাখ টাকার দুর্নীতি করেছে তৃণমূলের নেতারা। দেখা যাচ্ছে কাজের খাতায় সবকিছু উল্লেখ আছে। কিন্তু আসলে কোনও কাজই হয়নি। তাঁরা এও বলেছেন, বিচারব্যবস্থার ওপর সম্পূর্ণ আস্থা আছে। দোষীরা অবশ্যই শাস্তি পাবেন।

অন্যদিকে, সমস্ত অভিযোগ ভুয়ো বলে দাবি করেছেন পঞ্চায়েত প্রধানের স্বামী। তিনি বলেন, অভিযোগকারীরা নিজেরদের দরকারে টাকা চেয়েছিলেন। সেই টাকা না দেওয়ায় মিথ্যা মামলা করেছেন।

ছবি - প্রতীকী
Deucha Panchami: কয়লা খনির বিরোধিতায় আরও তীব্র আন্দোলনের পথে আদিবাসীদের ধরনা মঞ্চ

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in