RS Poll: কর্ণাটকে রাজ্যসভা নির্বাচনে ক্রস ভোটিং আতঙ্কে বিজেপি, কংগ্রেস, জেডি(এস)

কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন, কংগ্রেসের জয়রাম রমেশের মতো রাজনৈতিক হেভিওয়েটরা এই লড়াইতে আছেন। বিজেপি ৩ জন, কংগ্রেস ২জন প্রার্থী দিয়েছে। একজন প্রার্থীর জয়ের জন্য ৪৫ জন বিধায়ক প্রয়োজন।
RS Poll: কর্ণাটকে রাজ্যসভা নির্বাচনে ক্রস ভোটিং আতঙ্কে বিজেপি, কংগ্রেস, জেডি(এস)
এইচ ডি কুমারস্বামী, বাসবরাজ বোম্মাই, মল্লিকার্জুন খাড়গেফাইল ছবি, গ্রাফিক্স নিজস্ব

কর্ণাটকের রাজ্যসভা নির্বাচনের কাউন্টডাউন শুরু হওয়ার সাথে সাথে, ক্ষমতাসীন বিজেপি সহ রাজ্যের সমস্ত বড় দল ক্রস ভোটিংয়ের আতঙ্কে ভুগছে৷ কর্ণাটকে বিরোধী কংগ্রেস, স্থানীয় দল জেডি(এস) এবং বিজেপি চতুর্থ আসনের দিকে নজর রেখেছে। রাজ্যের ৪ রাজ্যসভা আসনের জন্য ৬ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। যদিও মূল লড়াই চতুর্থ আসনের জন্য।

আগামী ১০ জুন রাজ্যসভা নির্বাচন। তিন দলই ভোটের ঘাটতি সত্ত্বেও ৪র্থ আসনে জয়ী হওয়ার জন্য তাদের সর্বশক্তি প্রয়োগ করছে। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন, কংগ্রেসের জয়রাম রমেশের মতো রাজনৈতিক হেভিওয়েটরা এই লড়াইতে মাঠে রয়েছেন। এই নির্বাচনে বিজেপি ৩ জন, কংগ্রেস ২জন প্রার্থী দিয়েছে। একজন প্রার্থীর জয়ের জন্য ৪৫ জন বিধায়ক প্রয়োজন।

ক্ষমতাসীন বিজেপির সঙ্গে ১জন বিএসপি এবং ১ নির্দল সহ ১২২ জন বিধায়কের সমর্থন আছে। যার ফলে বিজেপি সহজেই দুটি আসন জিততে পারে। বিরোধী কংগ্রেস অবশ্য ৭০ জন বিধায়কের সমর্থন থাকলেও মাত্র একটি আসনে জিততে পারবে। ৩২ জন বিধায়ক সহ JD(S) এর রাজ্যসভার প্রার্থী কুপেন্দ্র রেড্ডির জয় নিশ্চিত করার জন্য জাতীয় দলগুলির সমর্থন প্রয়োজন হবে, যিনি এই নির্বাচনে সবচেয়ে ধনী প্রার্থী।

পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতে, বিজেপির তৃতীয় প্রার্থী, কংগ্রেসের দ্বিতীয় প্রার্থী এবং জেডি(এস)-এর একমাত্র প্রার্থীর জয় নিশ্চিত করতে ক্রস ভোটিং অনিবার্য হয়ে উঠেছে। জেডি(এস)-এর বিধায়কদের ক্রস ভোটিং থেকে ঠেকানো সবথেকে বড়ো চ্যালেঞ্জ।

প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী এইচডি কুমারস্বামী এর আগে ৪ জন জেডি(এস) বিধায়কের বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন। এই বিধায়করা দলের নেতৃত্ব নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। যদিও কুমারস্বামী জানিয়েছেন, তিনি আত্মবিশ্বাসী যে সমস্ত জেডি(এস) বিধায়ক দলীয় প্রার্থীকে সমর্থন করবেন। ৩২ জন বিধায়ক নিয়ে JD(S) ৪র্থ আসনের জন্য বিজেপির নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী হিসাবে লড়াই করছে।

জেডি(এস) রাজ্যসভার প্রার্থী কুপেন্দ্র রেড্ডি ইতিমধ্যে দলীয় বিধায়কদের সঙ্গে ব্যক্তিগতভাবে দেখা শুরু করেছেন। কুমারস্বামী তার বিদেশ সফর কাটছাঁট করে ফিরে এসেছেন এবং বিজেপি তার তৃতীয় প্রার্থী এবং কংগ্রেস তার দ্বিতীয় প্রার্থী দেওয়ার পরে রাজ্যে ফিরেছেন।

কংগ্রেসের ২৫টি উদ্বৃত্ত ভোট থাকলেও দলীয় দ্বিতীয় প্রার্থী মনসুর আলি খানের রাজ্যসভার আসনে জয়ের জন্য ২০ ভোট কম। দলের সূত্রগুলি জানাচ্ছে তারা দ্বিতীয় পছন্দের ভোট এবং বিধায়কদের ক্রস ভোটিংয়ের মাধ্যমে তাদের দ্বিতীয় প্রার্থীর জয়ের বিষয়ে আশাবাদী।

অন্যদিকে দুই প্রার্থীর জয় নিশ্চিত করার পর বিজেপির ৩২টি উদ্বৃত্ত ভোট থাকবে। বিজেপির তৃতীয় প্রার্থী লেহের সিং সিরোয়া। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিএস ইয়েদিউরপ্পা বলেছেন যে তৃতীয় বিজেপি প্রার্থীকে রাজ্যসভায় নির্বাচিত করতে তিনি যথাসাধ্য চেষ্টা করবেন।

বিজেপি কেন্দ্রীয় পর্যটন মন্ত্রী জি. কিষাণ রেড্ডিকে ভোটের তদারকির দায়িত্ব দিয়েছে। সমস্ত ভোট যাতে বৈধ হয় তা নিশ্চিত করতে বিজেপি বিধায়কদের প্রশিক্ষণের আয়োজন করছে।

এইচ ডি কুমারস্বামী, বাসবরাজ বোম্মাই, মল্লিকার্জুন খাড়গে
RS Polls: রাজস্থানে বিধায়কদের পাঁচতারা হোটেলে রেখেও ঘোড়া কেনাবেচার আতঙ্কে ACB-র দ্বারস্থ কংগ্রেস

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in