Magh Mela: মাঘমেলা শুরুর আগেই ৩৯ পজিটিভের খোঁজ, কোভিড বিধি মেনে চলার আবেদন যোগী আদিত্যনাথের

মেলা এলাকায় ১২ জানুয়ারী রাতের মধ্যে ৩৯ টি পজিটিভ কেস রিপোর্ট করা হয়েছে যার মধ্যে ৩৭ জন পুলিশ এবং নিরাপত্তা কর্মী রয়েছে।
Magh Mela: মাঘমেলা শুরুর আগেই ৩৯ পজিটিভের খোঁজ, কোভিড বিধি মেনে চলার আবেদন যোগী আদিত্যনাথের
মাঘমেলার প্রস্তুতি চলছেছবি ট্যুইটার থেকে সংগৃহীত

উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ ৪৭ দিনব্যাপী মাঘ মেলার জন্য প্রয়াগরাজে আগত ভক্তদের কোভিড-১৯ বিধিনিষেধ কঠোরভাবে অনুসরণ করার জন্য আবেদন জানিয়েছেন। রাজ্য সরকার মেলায় ভক্তদের সংখ্যা নিয়ন্ত্রণ না করলেও ৪৮ ঘন্টার বেশি আগের নয়, এরকম একটি RT-PCR রিপোর্ট আনা বাধ্যতামূলক করেছে।

মেলা এলাকায় ১২ জানুয়ারী রাতের মধ্যে ৩৯ টি পজিটিভ কেস রিপোর্ট করা হয়েছে যার মধ্যে ৩৭ জন পুলিশ এবং নিরাপত্তা কর্মী রয়েছে। যারা সঙ্গমের তীরে মকর সংক্রান্তির (১৪ জানুয়ারি) প্রথম আনুষ্ঠানিক স্নানের দিনে এখানে আসছেন কর্মকর্তারা সেই ভক্তদের জন্য স্বাস্থ্য বিষয়ক একাধিক ব্যবস্থা নিয়েছেন।

চিফ মেডিক্যাল অফিসার (সিএমও), প্রয়াগরাজ, ডাঃ নানক শরণ বলেছেন: "সর্বশেষ RT-PCR পরীক্ষাগুলি একজন ব্যক্তিকে কোভিড-১৯ ভাইরাস থেকে মুক্ত বলে ঘোষণা করে। এই রিপোর্ট তীর্থযাত্রী, সাধু এবং সেইসাথে দর্শনার্থী সহ সকলের জন্য আবশ্যক। আমরা ইতিমধ্যেই মেলা এলাকা থেকে ৫১ জন ব্যক্তিকে আরটি-পিসিআর রিপোর্ট না থাকার কারণে বের করে দিয়েছি।"

মাঘ মেলার আধিকারিক শীষ মণি পান্ডে বলেছেন: "মহামারী এবং এর জন্য প্রয়োজনীয় সতর্কতার পরিপ্রেক্ষিতে, আমরা মেলার জন্য পর্যাপ্ত সংখ্যক নমুনা কেন্দ্র এবং অ্যাম্বুলেন্সের যথাযথ ব্যবস্থা করেছি। মেলায় সরকারী কর্মচারীদের যথাযথ স্ক্রীনিং এর পরেই নিয়োগ করা হয়েছে।"

তিনি আরও জানান, "ভক্তদের জন্য, আমরা সঙ্গমের কাছে নাগভাসুকি থেকে কুইলা ঘাট পর্যন্ত প্রসারিত ১০টি বড় ঘাটও তৈরি করেছি, যাতে ভক্তদের এক জায়গায় ভিড় এড়ানো যায়।"

মাঘ মেলার ব্যবস্থার দায়িত্বে থাকা স্বাস্থ্য আধিকারিক জয় কিষাণ বলেছেন: "আমরা মাস্কের মতো সতর্কতার বিষয় তুলে ধরে অনেক জায়গায় হোর্ডিং লাগিয়েছি। আমাদের স্ক্রিনিং টিম রয়েছে। মেলায় যারা আসছেন তাদের সবাইকে টিকা শংসাপত্র বা আরটি-পিসিআর রিপোর্ট থাকতে হবে। এছাড়া ভেন্যুতেও পরীক্ষার ব্যবস্থা আছে।"

এদিকে, বৃহস্পতিবার মেলা শহরে ভক্তরা আসতে শুরু করলে, খুব কম লোককেই মাস্ক পরতে দেখা গেছে। তাদের অধিকাংশই পুলিশ সদস্যদের দেখাদেখি 'গামছা' দিয়ে মুখ ঢেকে পরে তা সরিয়ে ফেলে।

উত্তরপ্রদেশে ১ জানুয়ারী থেকে নতুন সংক্রমণ ব্যাপক হারে বেড়েছে। কোভিডের তৃতীয় তরঙ্গের মধ্যে মাঘ মেলা একটি সুপার-স্প্রেডার হতে পারে, কারণ সারা দেশ থেকে ভক্তরা এখানে আসেন।

- With IANS Inputs

মাঘমেলার প্রস্তুতি চলছে
Uttar Pradesh: মাঘ মেলায় ‘কলঙ্কিত ও জেলবন্দী’ সাধু এবং তাঁদের সংস্থাকে জায়গা দেওয়া নিয়ে বিতর্ক

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in