Lay Off: 'ভুয়ো সার্টিফিকেটের জের', এবার Cognizant India থেকে ছাঁটাই ৬% কর্মচারী!

মহামারী করোনার সময় প্রচুর কর্মী নিয়োগ করেছিল বিভিন্ন আইটি ফার্ম। এবার সেই কর্মীদের অভিজ্ঞতা সংক্রান্ত নথিগুলি খতিয়ে দেখা শুরু করেছেন হিউম্যান রিসোর্স ম্য়ানেজাররা। তারপরেই- এই তথ্য সামনে এসেছে।
প্রতীকী ছবি
প্রতীকী ছবি

ভুয়ো নথি এবং ভুয়ো অভিজ্ঞতা সংক্রান্ত সার্টিফিকেট (fake Experience certificate) প্রদানের জেরে গত শনিবার, হাজারের অধিক কর্মচারী কর্মচারী ছাঁটাই করছিল - অ্যাকসেঞ্চার ইন্ডিয়া (Accenture India)। একই কারণে এবার ৬ শতাংশ কর্মচারী ছাঁটাই করছে- কগনিজেন্ট ইন্ডিয়া (Cognizant India)।

এক প্রতিবেদনে ইকোনমিক টাইমস নাও (ETNow) জানিয়েছে, এর ফলাফল সামনে আসার পর অনেকেই চাকরী হারাতে পারেন। এ প্রসঙ্গে, কগনিজেন্ট ইন্ডিয়ার প্রধান রাজেশ নাম্বিয়ার (Rajesh Nambiar) বলেন, নবনিযুক্ত কর্মচারীদের ব্যাকগ্রাউন্ড নিখুঁত ভাবে যাচাই (Checks) না হওয়ার কারণে- এই ধরণের ঘটনা ঘটেছে।

এমনিতেই, মুনলাইটিং (Moonlighting) এর জেরে গত কয়েকমাসে কর্মী ছাঁটাই বেড়েছে। তার মাঝে শুরু হয়েছে কর্মচারীদের নিখুঁত ভাবে ব্যাকগ্রাউন্ড যাচাই। ফলে, আগামীতে আরও কত কর্মচারী বিভিন্ন কোম্পানি থেকে চাকরি হারাতে পারেন, তা নিয়ে আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

Cognizant-এর 'নথি দুর্নীতির' বিষয় সামনে আসার আগেই, একই ইস্যুতে হাজারের অধিক কর্মচারী ছাঁটাই করেছিল Accenture India। বিশ্বমানের এই আইটি (IT) ফার্ম দাবি করেছে,'ক্লায়েন্টদের (clients) পরিষেবা দেওয়ার জন্য যে সক্ষমতা প্রয়োজন তা যাতে প্রভাবিত না হয়, তা নিশ্চিত করার জন্য আমরা এই পদক্ষেপ নিয়েছি।'

জানা যাচ্ছে, মহামারী করোনার সময় প্রচুর কর্মী নিয়োগ করেছিল বিভিন্ন আইটি ফার্ম। এবার সেই কর্মীদের অভিজ্ঞতা সংক্রান্ত নথিগুলি খতিয়ে দেখা শুরু করেছেন হিউম্যান রিসোর্স ম্য়ানেজাররা। তারপরেই- আইটি সেক্টরে 'নথি দুর্নীতি' তথ্য সামনে এসেছে।

কিন্তু কেন এমন পরিস্থিতি তৈরি হল? বিশেষজ্ঞ মহলের ধারণা, আসলে মহামারীকালে কিছুক্ষেত্রে যথাযথভাবে নথি যাচাই করা যায়নি। সেই সুযোগেই জাল নথি জমা দেওয়া হয়েছিল বলে অভিযোগ উঠেছে।

তবে, ভুয়ো নথি এবং ভুয়ো অভিজ্ঞতা সংক্রান্ত সার্টিফিকেট নয়। এর বাইরেও, কোম্পানিগুলি প্রাথমিকভাবে খরচ কমানোর জন্য কর্মী ছাঁটাইয়ের ঘটনা ঘটেছে টুইটার, মেটা-র মতো একাধিক সংস্থায়।

গত বুধবারই, এক ধাক্কায় ১১ হাজারের বেশি কর্মী ছাঁটাইয়ের কথা ঘোষণা করন মেটা সিইও মার্ক জুকেরবার্গ (CEO Mark Zuckerberg)

এছাড়া, গত সপ্তাহের শেষে প্রায় ৫০ শতাংশ (সাড়ে ৩ হাজার) কর্মী ছাঁটাই করেছে ট্যুইটার (Twitter)। যুক্তি হিসাবে এলন মাস্ক বলেন, প্রতিদিন প্রায় ৪০ লক্ষ মার্কিন ডলার ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে টুইটার। 

প্রতীকী ছবি
Lay Off: এক ধাক্কায় ১১ হাজারের বেশি কর্মী ছাঁটাই Facebook-এ, ঘোষণা জুকারবার্গের

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in