Karnataka: ইয়েদুরিয়াপ্পাকে অপসারিত করলে রাজ্যে সমস্যায় পড়বে BJP - হুঁশিয়ারি ধর্মীয় নেতার

বীরাশৈব-লিঙ্গায়েত গোষ্ঠীর ধর্মগুরু রামভাপুরি স্বামীজী সোমবার বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পার অপসারণের সম্ভাবনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। যে ঘটনায় কর্ণাটকের রাজনৈতিক অঙ্ক জটিল হতে পারে বলে আশংকা রাজনৈতিক মহলের।
Karnataka: ইয়েদুরিয়াপ্পাকে অপসারিত করলে রাজ্যে সমস্যায় পড়বে BJP - হুঁশিয়ারি ধর্মীয় নেতার
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পাছবি বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পার ট্যুইটার হ্যান্ডেলের সৌজন্যে

কর্ণাটকে মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পার অপসারণ ঘিরে জল্পনার মাঝেই জাতপাতের সমীকরণে রাজনৈতিক উত্তাপ বাড়ছে। উল্লেখযোগ্য ভাবে চূড়ান্ত রাজনৈতিক এক বিষয়ে অনুপ্রবেশ ঘটেছে ধর্মেরও। রাজ্যে প্রবল প্রভাবশালী বীরাশৈব-লিঙ্গায়েত গোষ্ঠীর ধর্মগুরু রামভাপুরি স্বামীজী সোমবার বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পার অপসারণের সম্ভাবনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। যে ঘটনায় বিজেপি শাসিত কর্ণাটকের রাজনৈতিক অঙ্ক জটিল হয়ে উঠতে পারে বলে আশংকা রাজনৈতিক মহলের।

সোমবার রামভাপুরি স্বামীজী জানান, যদি বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পাকে তাঁর পদ থেকে সরিয়ে দেবার সিদ্ধান্ত নেয় সেক্ষেত্রে আগামীদিনে রাজ্যে বিজেপি বড়ো সমস্যার মুখোমুখি হবে।

রামভাপুরি স্বামীজী আরও জানিয়েছেন, তিনি একজন ধর্মীয় গুরু। তাই তিনি রাজনৈতিক কোনো বিষয়ে কথা বলতে চান না। যদিও তাঁর ব্যক্তিগত মতানুসারে ইয়েদুরিয়াপ্পা দলের কঠিন সময়ে বিজেপিকে নেতৃত্ব দিয়েছেন এবং ইয়েদুরিয়াপ্পাই একমাত্র নেতা যিনি একের পর এক নির্বাচনে বিজেপিকে জয় এনে দিয়েছেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পা
Karnataka: রাজ্যে মুখ্যমন্ত্রী বদল এখন সময়ের অপেক্ষা - দাবি রাজনৈতিক মহলের

স্বামীজী আরও জানান, এক্ষেত্রে আগামী দু'বছর মুখ্যমন্ত্রী রেখে দিয়ে ইয়েদুরিয়াপ্পাকে তাঁর পদের মেয়াদ পূর্ণ করতে দেওয়া উচিৎ।

প্রসঙ্গত কর্ণাটকের রাজনীতিতে বীরাশৈব-লিঙ্গায়েত গোষ্ঠীর ধর্মীয় গুরুরা যথেষ্ট প্রভাবশালী। এর আগেও বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পার নেতৃত্ব যখনই প্রশ্নের মুখে পড়েছে তখনই এই গোষ্ঠী খোলাখুলি তাঁর সমর্থনে গলা চড়িয়েছে। গত ২০১১ সালে যখন ইয়েদুরিয়াপ্পাকে পদত্যাগ করতে বলা হয়েছিলো তখনও বীরাশৈব-লিঙ্গায়েত গোষ্ঠীর বহু ধর্মগুরু রাস্তায় নেমে প্রকাশ্যে তাঁকে সমর্থন জানিয়েছিলেন।

উল্লেখ্য, গত শনিবার সকালে দিল্লি থেকে ফিরে কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পা দাবি করেন – সব ঠিক আছে, আপাতত তাঁর পদত্যাগের কোনো সম্ভাবনা নেই। যদিও রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে বি এস ইয়েদুরিয়াপ্পার বিদায় এখন সময়ের অপেক্ষা। সূত্র অনুসারে, বিজেপি হাইকম্যান্ড মুখ্যমন্ত্রী ইয়েদুরিয়াপ্পাকে এই বিষয়ে কৌশলী কিন্তু স্পষ্ট বার্তা দিয়ে দিয়েছেন। আগামী ২৬ জুলাইয়ের পরেই তিনি পদত্যাগ করবেন।

- with inputs from IANS

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in