নতুন ডিজিটাল মিডিয়া আইনকে চ্যালেঞ্জ, কেন্দ্রকে নোটিস হাইকোর্টের

গত ২৫ ফেব্রুয়ারি অনলাইন মিডিয়া পোর্টালগুলোকে নিয়ন্ত্রণ করতে বেশ কিছু নির্দেশিকা জারি করেছে কেন্দ্র
নতুন ডিজিটাল মিডিয়া আইনকে চ্যালেঞ্জ, কেন্দ্রকে নোটিস হাইকোর্টের
প্রতীকী ছবি সংগৃহীত

নয়াদিল্লি, ১০ মার্চ: কেন্দ্রের নতুন তথ্য-প্রযুক্তি আইন, ২০২১-কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে এবার দিল্লি হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছে দ্য ওয়্যার নিউজ পোর্টাল ও 'দ্য নিউজ মিনিট'-এর সহ প্রতিষ্ঠাতা ধনিয়া রাজেন্দ্রণ। আর এর ভিত্তিতেই মঙ্গলবার কেন্দ্রকে নোটিস পাঠিয়েছে আদালত। ডিজিটাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মকে কেন্দ্রের নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টাকেই চ্যালেঞ্জ জানিয়েই আদালতে গিয়েছেন রাজেন্দ্রণ।

আবেদনকারীর পক্ষের আইনজীবী নিত্যা রামকৃষ্ণন জানিয়েছেন, "আমরা একবারও বলছি না যে- মিডিয়া নিয়মের বাইরে নয়। কিন্তু নির্দিষ্ট কিছু নিয়ম ব্যতিরেকে নিউজ মিডিয়া কখনই চলে না। নতুন মিডিয়া আইনে বলা হয়েছে, ডিজিটাল মিডিয়া সবকিছু নিয়ম লঙ্ঘন করে চলছে। যা গণতন্ত্র বিরোধী।' তথ্য-প্রযুক্তি আইন, ২০২০ অনুসারে, ডিজিটাল মিডিয়াকে নিয়ন্ত্রণ করার কোনও নিয়ম নেই। কিন্তু ২০২১ -এর আইন ২০২০-এর আইনকে পুরোপুরি বিরোধিতা করেছে।এই বিষয়েই বিচারপতি ডিএন প্যাটেল ও জসমিত সিংয়ের ডিভিশন বেঞ্চ কেন্দ্রের কাছে জানতে চেয়ে নোটিস পাঠিয়েছে। অবিলম্বে এই বিষয়ে হলফনামা জমা করার কথাও বলা হয়েছে।

প্রতীকী ছবি
মিডিয়া নিয়ন্ত্রণে কেন্দ্রের নয়া নীতি, তীব্র অসন্তোষ প্রকাশ এডিটর্স গিল্ডের

উল্লেখ্য, গত ২৫ ফেব্রুয়ারি অনলাইন মিডিয়া পোর্টালগুলোকে নিয়ন্ত্রণ করতে বেশ কিছু নির্দেশিকা জারি করেছে কেন্দ্র। এই নিয়মের অধীনে সমস্ত নিউজ পোর্টাল ও ওটিটি প্ল্যাটফর্মকে নিজেদের অনুষ্ঠানের বিস্তারিত জানাতে হবে কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের কাছে। ৩০ দিনের মধ্যে এই বিষয়ে কি নির্দেশিকা রয়েছে, তাও জানিয়ে দেবে সংশ্লিষ্ট কমিটি। কেন্দ্রের এই নতুন নিয়মের বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছে, বহু প্রথম শ্রেণির ডিজিটাল মিডিয়া ও সমাজকর্মীরা। এর মধ্যে রয়েছে, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস, দ্য টেলিগ্রাফ, দ্য হিন্দু, মিডিয়ানামার প্রতিষ্ঠাতা নিখিল পাহওয়া এবং ইন্টারনেট ফ্রিডম ফাউন্ডেশন।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in