ভারতীয় রাজাদের কথা নেই - ইতিহাস বইয়ের সিলেবাস নিয়ে মুখ খুলে ব্যাপক ট্রোলড অক্ষয় কুমার

অক্ষয়কে কটাক্ষ করে একজন জানতে চান, অভিনেতা ইতিহাস ক্লাসে কী করছিলেন? মৌর্য সাম্রাজ্য, গুপ্ত সাম্রাজ্য, চোল এবং চালুক্য বংশ - এই ক্লাসগুলি যখন হচ্ছিল তখন অভিনেতা কোথায় ছিলেন? ক্লাস বাঙ্ক করেছিলেন?
ভারতীয় রাজাদের কথা নেই - ইতিহাস বইয়ের সিলেবাস নিয়ে মুখ খুলে ব্যাপক ট্রোলড অক্ষয় কুমার
পৃথ্বীরাজ ছবির দৃশ্যছবি সংগৃহীত

ইতিহাস বইতে সম্রাট পৃথ্বীরাজ চৌহানের ব্যাপ্তি নিয়ে মুখ খুলেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোল হলেন বলিউড অভিনেতা অক্ষয় কুমার। একটি সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছিলেন, ‘ভারতের ইতিহাস বইগুলিতে মোগলদের সম্পর্কে যতটা লেখা আছে পৃথ্বীরাজ চৌহান সম্পর্কে তেমন কিছু লেখা নেই’।

আগামীকাল অর্থাৎ শুক্রবার অক্ষয় অভিনীত ‘সম্রাট পৃথ্বীরাজ’ সিনেমা হলে মুক্তি পাবে। তার আগে এক সংবাদমাধ্যমের সাক্ষাৎকারে বেঁফাস মন্তব্য করে বসেন বলিউডের ‘খিলাড়ী’। অক্ষয় বলেন, “কেউ নেই যাঁরা পৃথ্বীরাজ সম্পর্কে আমাদের ইতিহাস বইতে লিখবেন। আমি আমাদের শিক্ষামন্ত্রীর কাছে হাতজোড় করে অনুরোধ জানাবো এই বিষয়টি নিয়ে ভাবার। কীভাবে ভারসাম্য বজায় রেখে এর পরিবর্তন করা যায় তা দেখুন। আমি এটা বলছিনা যে মোগলদের নিয়ে জানা উচিত নয়। আমি ইতিহাস বইতে পৃথ্বীরাজ সম্পর্কে পড়িনি। বইয়ে ভারসাম্য রাখতে হবে। আমাদের রাজাদের সম্পর্কেও জানা উচিত। তাঁরাও মহান। সকলের সামনে এগুলো আনা উচিত। আমাদের বাচ্চাদের জানা দরকার”।

অভিনেতার এহেন মন্তব্যে বেজায় চটেছেন সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা। কেউ কেউ অক্ষয়কে কটাক্ষ করে জানতে চান, অভিনেতা ইতিহাস ক্লাসে কী করছিলেন? মৌর্য সাম্রাজ্য, গুপ্ত সাম্রাজ্য, চোল এবং চালুক্য বংশ - এই ক্লাসগুলি যখন হচ্ছিল তখন অভিনেতা কোথায় ছিলেন? ক্লাস বাঙ্ক করেছিলেন? অন্য একজন লেখেন, অক্ষয় কুমার যদি স্কুলের ক্লাসে উপস্থিত থাকতেন, যদি তিনি মার্শাল আর্টের পরিবর্তে নিজের পড়াশোনাতে মনোযোগ দিতেন, তাহলে প্রাক প্রস্তর যুগ থেকে হরপ্পা পর্যন্ত, প্রাচীন-মধ্যযুগ থেকে আধুনিক ভারতীয় ইতিহাসের প্রতিটি স্তর সম্পর্কে জানতে পারতেন। তিনি কখনই ক্লাসে উপস্থিত ছিলেন না।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, দ্বাদশ শতকের চৌহান বংশের রাজা পৃথ্বীরাজ চৌহানের শাসনকাল ও তাঁর জীবন নিয়ে তৈরি হয়েছে এই বলিউড ছবি। দ্বাদশ শতেকর শেষে উত্তর ভারতের আজমের ও দিল্লির শাসনকর্তা ছিলেন পৃথ্বীরাজ। ছবিটির ট্রেলার ইতিমধ্যে প্রকাশ্যে এসেছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in