এবছর মোহনবাগান রত্ন সম্মানে সম্মানিত প্রয়াত শিবাজী ব্যানার্জি

এবছর মোহনবাগান রত্ন তুলে দেওয়া হবে প্রয়াত গোলরক্ষক শিবাজী বন্দোপাধ্যায়কে। বর্ষসেরা ফুটবলারের সম্মান পাচ্ছেন ফিজিয়ান তারকা রয় কৃষ্ণা। বর্ষসেরা ক্রিকেটারের পুরস্কার দেওয়া হবে অভিমন্যূ ঈশ্বরণকে।
এবছর মোহনবাগান রত্ন সম্মানে সম্মানিত প্রয়াত শিবাজী ব্যানার্জি
শিবাজী ব্যানার্জিফাইল ছবি দ্য ক্যুইন্টের সৌজন্যে

২৯ শে জুলাই মোহনবাগান দিবস। আজ সন্ধ্যায় ক্লাবের কর্মসমিতির এক ভার্চুয়াল বৈঠকের মাধ্যমে স্থির করা হয় এবারের পুরস্কার প্রাপকদের নাম। ক্লাবের তরফ থেকে জানানো হয়েছে এবারের মোহনবাগান রত্ন, বর্ষসেরা ফুটবলার, বর্ষসেরা ক্রিকেটার ঐ বর্ষসেরা অ্যাথেলিটের পুরস্কার কাদের দেওয়া হবে।

এবছর মোহনবাগান রত্ন তুলে দেওয়া হবে প্রয়াত গোলরক্ষক শিবাজী বন্দোপাধ্যায়কে। বর্ষসেরা ফুটবলারের সম্মান পাচ্ছেন ফিজিয়ান তারকা রয় কৃষ্ণা। বর্ষসেরা ক্রিকেটারের পুরস্কার দেওয়া হবে অভিমন্যূ ঈশ্বরণকে। এছাড়া বর্ষসেরা অ্যাথেলিটের সম্মান দেওয়া হবে বিদিশা কুন্ডুকে।

মোহনবাগানের ইতিহাসে অন্যতম সেরা গোলরক্ষক শিবাজী বন্দোপাধ্যায়। শুরুটা ইস্টবেঙ্গলের হাত ধরে হলেও ১৯৭৭ সালে যোগ দেন সবুজ-মেরুনদের ক্লাবে। মোহনবাগানের হয়ে ৮ বছর খেলেছেন 'টাইব্রেকার সম্রাট'। ইডেনে মোহনবাগান ও কসমস ম্যাচে ব্রাজিল কিংবদন্তী পেলের ফ্রি কিক আটকেছিলেন তিনি। ভূয়সী প্রশংসা করেছিলেন স্বয়ং ফুটবল সম্রাট। ক্লাবের ইতিহাসের এই সফল তারকাকে মরণোত্তর মোহনবাগান রত্নে ভূষিত করা হচ্ছে। এর আগে শিবদাস ভাদুড়ি, গোষ্ঠ পাল ও ধীরেন দে' র মতো কিংবদন্তীদের মরণোত্তর মোহনবাগান রত্ন প্রদান করা হয়েছে। তবে প্রয়াণের চার বছরের মধ্যেই শিবাজী এই সম্মান পাচ্ছেন। করোনা আবহে অনাড়ম্বর ভাবেই শিবাজীর পরিবারকে এই সম্মান তুলে দেওয়া হবে।

অন্যদিকে ক্লাবের বর্ষসেরা ফুটবলারের সম্মান পাচ্ছেন ফিজিয়ান তারকা রয় কৃষ্ণা। ক্লাবের হয়ে ৪৪ টি ম্যাচ খেলে গোল করেছেন ২৯ টি এবং অ্যাসিস্ট করেছেন ১৪ টি। গত মরশুমে আইএসএলে নিজের সর্বোচ্চটা দিয়েছেন তিনি। রয় কৃষ্ণা আপাতত নিজের দেশেই রয়েছেন। অন্যদিকে অভিমন্যূ ঈশ্বরণকে দেওয়া হচ্ছে বর্ষসেরা ক্রিকেটারের পুরস্কার। অভিমন্যূ এখন ইংল্যান্ডে ভারতীয় টেস্ট দলের সঙ্গে স্ট্যান্ডবাই ক্রিকেটার হিসেবে রয়েছেন। এছাড়াও ১০০ মিটার হার্ডেল ও হাই জাম্পে জাতীয় চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় সেরা অ্যাথলিটের সম্মান পাচ্ছেন বিদিশা কুণ্ডু।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in