T-20 World Cup 22: অনবদ্য বাবর-রিজওয়ান, কিউইদের ফের একবার ফাইনালের দরজা বন্ধ করলো পাকিস্তান

কিউইদের ৭ উইকেটে হারিয়ে চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে পা রাখলো পাকিস্তান। বিশ্বকাপের আসরে পুরো টুর্নামেন্ট ভালো খেলা সত্বেও ফের একবার চোখে জল নিয়েই মাঠ ছাড়তে হলো নিউজিল্যান্ডকে।
 কিউইদের ৭ উইকেটে হারিয়ে ফাইনালে পাকিস্তান
কিউইদের ৭ উইকেটে হারিয়ে ফাইনালে পাকিস্তানছবি সৌজন্যে আইসিসি টুইটার হ্যান্ডেল

পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে ব্যর্থতার পর সঠিক সময়ে জ্বলে উঠলেন বাবর-রিজওয়ান জুটি। কিউইদের ৭ উইকেটে হারিয়ে চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে পা রাখলো পাকিস্তান। বিশ্বকাপের আসরে পুরো টুর্নামেন্ট ভালো খেলা সত্বেও ফের একবার চোখে জল নিয়েই মাঠ ছাড়তে হলো নিউজিল্যান্ডকে।

আজকের এই জয়ের সাথে সাথেই টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে কোনো এক দলের বিরুদ্ধে সবচেয়ে বেশি জয়ের রেকর্ড গড়লো পাকিস্তান। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে মোট ১৮ বার জয় তুলে নিল তারা। পাশাপাশি বিশ্বকাপের আসরে এই নিয়ে চার'বার নিউজিল্যান্ডের ফাইনালের দরজা বন্ধ করলো পাকিস্তান। ১৯৯২ ও ১৯৯৯ সালের ওডিআই বিশ্বকাপ এবং ২০০৭ ও ২০২২ সালের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে ফাইনালে পা রাখে পাকিস্তান।

১৫২ রানের পুঁজি নিয়ে লড়াইয়ে নামা নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ছড়ি ঘোরালেন বাবর-রিজওয়ান। ১২.৪ ওভারে পাক ওপেনাররা ১০৫ রান যোগ করেন। পাক অধিনায়ক বাবর আজম ৪২ বলে ৫৩ রানের এক দুর্দান্ত ইনিংস খেলে বোল্টের শিকার হন। দলগত স্কোর ১৩২ রানের মাথায় দ্বিতীয় উইকেট হারায় পাকিস্তান। দলকে জয়ের দোরগোড়ায় এনে দিয়ে ফিরে যান মহম্মদ রিজওয়ান। পাঁচটি বাউন্ডারির মাধ্যমে ৪৩ বলে ৫৭ রান করেন রিজওয়ান।

পাকিস্তানকে এদিন কোনোরকম চাপের মুখেই পড়তে হয়নি। বাবর-রিজওয়ানের পাশাপাশি ৩০ রানের মূল্যবান ইনিংস খেলেন হ্যারিস রউফ। পাঁচ বল হাতে থাকতেই জয় এসে যায় পাক শিবিরে।

সিডনিতে মেগা সেমিফাইনালে টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় নিউজিল্যান্ড। অধিনায়ক উইলিয়ামসন এবং ডেরিল মিচেলের হাত ধরে ৪ উইকেট হারিয়ে প্রথম দফায় ১৫২ রান সংগ্রহ করেছিল নিউজিল্যান্ড। ৪২ বলে ৪৬ রান করেন উইলিয়ামসন। মিচেল অপরাজিত ছিলেন ৩৫ বলে ৫৩* রান করে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in