IPL: কেকেআর-এর নিয়ন্ত্রিত বোলিং - ১২৩ রানে ইনিংস শেষ পাঞ্জাবের

আমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়ামে এই ম্যাচে টসে জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেয় কলকাতা নাইট রাইডার্স। ব্যাট হাতে শুরুটা ভালো করলেও প্রথম উইকেট হারানোর পর ব্যাটিং বিপর্যয়ের মুখে পড়ে পাঞ্জাব।
IPL: কেকেআর-এর নিয়ন্ত্রিত বোলিং - ১২৩ রানে ইনিংস শেষ পাঞ্জাবের
কেকেআর ট্যুইটার হ্যান্ডেলের সৌজন্যে

নাইট বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বলের সামনে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১২৩ রানই সংগ্রহ করতে পেরেছে পাঞ্জাব কিংসরা। সুনীল নারিন, প্যাট কামিন্স, শিবম মাভী, প্রসিদ্ধ কৃষ্ণাদের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি পাঞ্জাবের মিডিল অর্ডার। একমাত্র ক্রিস জর্ডনের ১৮ বলে ৩০ রানের দৌলতে সম্মানজনক জায়গায় পৌঁছায় রাহুলরা। কলকাতার সামনে জয়ের জন্য লক্ষ্য মাত্রা ১২৪ রানের।

আমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়ামে এই ম্যাচে টসে জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেয় কলকাতা নাইট রাইডার্স। ব্যাট হাতে শুরুটা ভালো করলেও প্রথম উইকেট হারানোর পর ব্যাটিং বিপর্যয়ের মুখে পড়ে পাঞ্জাব। লোকেশ রাহুলকে ১৯ রানে ফেরত পাঠান কামিন্স। এরপরেই রানের খাতা না খুলেই প্যাভিলিয়নের রাস্তা দেখেন ক্রিস গেইল। গেইলকে ফেরান শিবম মাভী।

গেইল শূন্য রানে ফিরে যাওয়ার পরেই ১ রান করে ফিরে যান দীপক হুডা। মায়াঙ্ক আগরওয়াল এরপরেই ৩১ রান করে সুনীল নারিনের উইকেটে পরিণত হয়। নিকোলাস পুরান (১৯), ময়েসেস হেনরিকেস (২), শাহরুখ খানের (১৩) কেউই বড় রানের ইনিংস খেলতে পারেনি। শেষ মুহূর্তে ক্রিস জর্ডনের ১৮ বলে ৩০ রানের সৌজন্যেই সম্মান বাঁচায় কিংসরা।

কেকেআরের হয়ে এই ম্যাচে প্রত্যেক বোলারই নজরকাড়া প্রদর্শন করেন। শিবম মাভী তার নির্ধারিত ৪ ওভারে মাত্র ১৩ রান দিয়ে তুলে নিলেন একটি উইকেট। প্রসিদ্ধ কৃষ্ণা ৪ ওভারে ৩০ রান দিয়ে তিনটি উইকেট নিলেন। সুনীল নারিন তার ৪ ওভারে ২২ রান দিয়ে তুলে নিলেন জোড়া উইকেট। ৩ ওভারে ৩১ রান দিয়ে জোড়া উইকেট নেয় প্যাট কামিন্সও। একটি উইকেট আসে বরুণ চক্রবর্তীর খাতাতেও।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in