IPL 2022: হাসারাঙ্গার ৫ উইকেট! আরসিবির ১৯২ রানের জবাবে ১২৫ রানেই অল আউট সানরাইজার্স হায়দরাবাদ

ব্যাট হাতে ডু প্লেসি, রজত, ম্যাক্সওয়েল, কার্তিকদের পর বল হাতে ওয়াংখেড়েতে আগুন ঝরালেন ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা। হায়দরাবাদকে কোণঠাসা করে চলতি আইপিএলের সপ্তম জয় তুলে নিলো আরসিবি।
IPL 2022: হাসারাঙ্গার ৫ উইকেট! আরসিবির ১৯২ রানের জবাবে ১২৫ রানেই অল আউট সানরাইজার্স হায়দরাবাদ
হাসারাঙ্গাছবি সৌজন্যে IPL-এর অফিসিয়াল ট্যুইটার হ্যান্ডেল

ব্যাট হাতে ডু প্লেসি, রজত, ম্যাক্সওয়েল, কার্তিকদের পর বল হাতে ওয়াংখেড়েতে আগুন ঝরালেন ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা। ব্যাটে-বলে দাপট দেখিয়ে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে কোণঠাসা করে চলতি আইপিএলের সপ্তম জয় তুলে নিলো আরসিবি। সেই সঙ্গে প্লে অফের দৌড়েও এগিয়ে থাকলো তারা। আরসিবির বেঁধে দেওয়া ১৯২ রানের জবাবে ১২৫ রানেই অল আউট হয়ে যায় উইলিয়ামসন ব্রিগেড। ৪ ওভারে মাত্র ১৮ রান দিয়ে আরসিবির হয়ে পাঁচটি উইকেট তুলে নেন লঙ্কান বোলার ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা।

রবিবাসরীয় ডবল হেডারের প্রথম ম্যাচে টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় রয়েল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর। ওয়াংখেড়েতে ওপেন করতে নামেন আরসিবি অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসি এবং বিরাট কোহলি। ম্যাচের প্রথম বলেই কেন উইলিয়ামসনের হাতে ক্যাচ দিয়ে জগদীশা সুচিথের শিকার হয়ে ফিরে যান বিরাট। চলতি আইপিএলে এই নিয়ে তিন বার 'গোল্ডেন ডাক' হলেন আরসিবির প্রাক্তন অধিনায়ক। বিরাট ব্যর্থতার পর নেট দুনিয়াতে রীতিমত হাসির রোল ফুটে উঠেছে তাঁকে নিয়ে।

বিরাট ফিরে গেলেও ডু প্লেসি, রজত পাতিদার, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, দিনেশ কার্তিকরা অনবদ্য ইনিংস খেলে আরসিবিকে রানের পাহাড়ে নিয়ে যান। অধিনায়ক ডু প্লেসি ৫০ বলে ৭৩* রানে অপরাজিত থাকেন শেষ পর্যন্ত। তাঁর ব্যাট থেকে এসেছে ৮ টি বাউন্ডারি এবং ২ টি ওভার বাউন্ডারি। এছাড়া রজত পাতিদার তিন নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ৩৮ বলে ৪৮ রান করেন। ম্যাক্সওয়েল খেলেন ২৪ বলে ৩৩ রানের ইনিংস। আর শেষে আরও একবার ডিনামাইটের মতো ফেটে পড়েন দিনেশ কার্তিক। মাত্র ৮ বলে ৩০* রান যোগ করেন স্কোর বোর্ডে। সার্বিকভাবে ৩ উইকেটের বিনিময়ে ১৯২ রান দাঁড় করান ডু-প্লেসিরা।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই জোড়া ধাক্কা লাগে সানরাইজার্স শিবিরে। অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন(০) এবং অভিষেক শর্মা(০) রানের খাতা না খুলেই সাজঘরে ফেরেন। উইলিয়ামসন রান আউট হন এবং অভিষেককে ক্লিন বোল্ড করে দেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল।

প্রাথমিক ধাক্কা কাটিয়ে দলকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা চালিয়েছিলেন এইডেন মার্করাম এবং রাহুল ত্রিপাঠী। তবে মার্করাম ২১ রান করে ফিরে যাওয়ার পর ত্রিপাঠীকে যোগ্য সঙ্গ দিতে ব্যর্থ হন নিকোলাস পুরান, জগদীশ সুচিথরা। ত্রিপাঠী ৫৮ রান করে ফিরে যাওয়ার পর হায়দরাবাদের এগিয়ে যাওয়ার শক্তিটুকুও শেষ হয়ে যায়। ১২৫ রানেই অল আউট হয়ে যায় পুরো দল।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.