EPL: লিভারপুলকে এক পয়েন্ট পেছনে রেখেই ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগের খেতাব ঘরে তুললো ম্যান সিটি

শেষদিনের নাটকীয়তায় দুই গোল পিছিয়ে পড়েও রদ্রি আর গুন্ডোগানের জোড়া গোলে অ্যাস্টন ভিলাকে হারিয়ে প্রিমিয়ার লীগ শিরোপা ঘরে তুলল গার্দিওলার ম্যান সিটি।
EPL: লিভারপুলকে এক পয়েন্ট পেছনে রেখেই ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগের খেতাব ঘরে তুললো ম্যান সিটি
জয়ের পর উচ্ছ্বাসছবি সৌজন্যে ম্যান সিটি টুইটার হ্যান্ডেল

শেষদিনের নাটকীয়তায় দুই গোল পিছিয়ে পড়েও রদ্রি আর গুন্ডোগানের জোড়া গোলে অ্যাস্টন ভিলাকে হারিয়ে প্রিমিয়ার লীগ শিরোপা ঘরে তুলল গার্দিওলার ম্যান সিটি। অন্যদিকে মানে-সালাহ আর রবার্টসনের গোলে শেষ ম্যাচে জয় পেয়েও সিটির সাথে এক পয়েন্ট ব্যবধানে দ্বিতীয় স্থানে থেকে মরশুম শেষ করলো লিভারপুল।

অন্য দুই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে আর্সেনাল এবং টটেনহ্যাম বড় জয় পেলেও শেষ চারে থেকে চ্যাম্পিয়নস লীগে জায়গা করে নিয়েছে কন্তের টটেনহ্যাম। আর্সেনালকে ইউরোপা লীগের যোগ্যতা অর্জন করেই সন্তুষ্ট থাকতে হলো।

প্রিমিয়ার লীগে রবিবার ছিলো জাজমেন্ট ডে। খেতাব দখলের জন্য সিটি নেমেছিলো অ্যাস্টন ভিলার বিপক্ষে এবং লিভারপুল উলভসের বিপক্ষে। ম্যাচে বল গড়ানোর আগে সিটির সাথে লিভারপুলের পয়েন্ট পার্থক্য ছিলো এক। গার্দিওলা এবং ক্লপ দুজনের যে কেউই জিততে পারতো শিরোপা। তবে নাটকীয়তায় ভরপুর ম্যাচের শেষেও দুই দলের পয়েন্ট পার্থক্য এক'ই থাকলো।

এদিন ম্যাটি ক্যাশ এবং ফিলিপ কৌটিনহোর গোলে ২-০ ব্যবধানে পিছিয়ে পড়েছিলো সিটি। অন্য ম্যাচে লিভারপুল তখন ১-১ গোলে খেলছে। ক্লপের দল একটা গোল করে যখন এগিয়ে যাওয়ার জন্য ব্যস্ত ঠিক তখনই ৭৬ থেকে ৮১ মিনিটের এক ঝড়ে ক্লপদের হতাশা এনে দেয় স্কাই ব্লুজরা।

৭৬ এবং ৮১ মিনিটে ইলকে গুন্দোগান এবং মাঝে ৭৮ মিনিটে রদ্রির গোলে ৩-২ ব্যবধানে এগিয়ে যায় সিটি। অপর প্রান্তে লিভারপুল এরপর সালহা এবং অ্যান্ড্রু রবার্টসনের গোলে ৩-১ ব্যবধানে এগিয়ে যায়। তবে অ্যাস্টন ভিলা আর গোল করে লিভারপুলকে শিরোপা তুলে দিতে পারেনি। গত পাঁচ বছরে চার বার ইপিএল খেতাব জিতে নিলো ম্যানচেস্টার সিটি।

অন্য আর এক ম্যাচে, জাহার একমাত্র গোলে ক্রিস্টাল প্যালেসের বিপক্ষে হেরেও ষষ্ঠ হিসেবে পরের মরশুমে ইউরোপা লীগ নিশ্চিত করল ম্যান ইউনাইটেড। আর ব্রাইটনের কাছে হেরে সপ্তম স্থানে থেকে কনফারেন্স লীগ কোয়ালিফিকেশন খেলার ছাড়পত্র পেলো ওয়েস্ট হ্যাম।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in