Tokyo Olympics বন্ধের দাবী জোরালো হচ্ছে, অনলাইন পিটিশনে সাড়ে ৩ লক্ষ সই

অলিম্পিক বন্ধের দাবিতে সরব হয়েছেন জাপানের একাংশ। অলিম্পিক বন্ধের দাবিতে একটি অনলাইন পিটিশন জমা দিয়েছেন শহরের আইনজীবী কেনজি উতসুনোমিয়া। যেই পিটিশনে স্বাক্ষর করেছে প্রায় সাড়ে তিন লক্ষ মানুষ।
Tokyo Olympics বন্ধের দাবী জোরালো হচ্ছে, অনলাইন পিটিশনে সাড়ে ৩ লক্ষ সই
ফাইল ছবি সংগৃহীত

করোনার দাপটে জর্জরিত গোটা বিশ্ব। জাপানও তার ব্যাতিক্রম নয়। এই পরিস্থিতিতে 'টোকিও অলিম্পিক' আয়োজন কতটা সঙ্গত তা নিয়ে জল্পনা লেগেই রয়েছে। ইতিমধ্যেই অলিম্পিক বন্ধের দাবিতে সরব হয়েছেন জাপানের একাংশ। অলিম্পিক বন্ধের দাবিতে একটি অনলাইন পিটিশন জমা দিয়েছেন শহরের আইনজীবী কেনজি উতসুনোমিয়া। যেই পিটিশনে স্বাক্ষর করেছে প্রায় সাড়ে তিন লক্ষ মানুষ।

'স্টপ টোকিও অলিম্পিক' নামের ওই ক্যাম্পেন শুরু করেন টোকিও মেট্রোপলিটন সরকারের মেয়র পদে একাধিকবার নির্বাচিত আইনজীবী কেনজি উৎসুনোমিয়া। তিনি জানান, বিশ্ব সমাবেশের এই ইভেন্টটি ২০২০ সালে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও করোনা ভাইরাস মহামারীর জন্য স্থগিত রাখা হয়। এটা তখনই আয়োজন করা হবে যখন জাপান ক্রীড়াবিদ ও দর্শকদের আন্তরিকভাবে স্বাগত জানাতে পারবে।

আইনজীবী উতসুনোমিয়া ৫ ই মে থেকে অলিম্পিক বাতিলের দাবিতে অনলাইন গণ স্বাক্ষর চালাচ্ছেন। যেখানে ন'দিনে অভাবনীয় ভাবে প্রায় সাড়ে তিন লক্ষ মানুষ তাঁর সাথে সহমত পোষণ করেন। অলিম্পিক এবং প্যারা অলিম্পিক কমিটির প্রধানদের পাশাপাশি টোকিওর গভর্নর ইউরিকো কোইকের কাছেও আবেদন পত্র জমা দেওয়া হয়। উতসুনোমিয়া একটি সাংবাদিক সম্মেলনে বলেন, "আমরা সেই (অলিম্পিক আয়োজন করার মতো) পরিস্থিতিতে নেই তাই গেমসটি বাতিল করতে হবে।"

অলিম্পিক-বিরোধী প্রচারের বিষয়ে জানতে চাইলে, টোকিওর গভর্নর কোইকি বলেছেন যে তিনি 'নিরাপদ ও সুরক্ষিত ভাবে' অলিম্পিকের জন্য কাজ চালিয়ে যাবেন। আগামী ২৩ শে জুলাই থেকে ৮ ই আগস্ট পর্যন্ত আসর বসবে অলিম্পিকের। হাতে আর তিন মাসও সময় নেই। এর মধ্যেই টোকিও, ওসাকা সহ আরও চারটি শহরে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে।

অলিম্পিকের বিরোধিতা করে এগিয়ে এসেছেন কিছু শীর্ষস্থানীয় জাপানী অ্যাথেলিটরাও। টেনিস তারকা নাওমি ওসাকা, কেই নিশেকোরি থেকে শুরু করে মাস্টার্স গল্ফ চ্যাম্পিয়ন হিড়েকি মাতসুয়ামাও শঙ্কা প্রকাশ করেছেন। ইতিমধ্যেই অলিম্পিকে অংশগ্রহণ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন সেরেনা উইলিয়ামস, রাফায়েল নাদালের মতো বিশ্বমানের অ্যাথলিটরা।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in