তীর্থ সিং রাওয়াতের ইস্তফা, এক বছরের মধ্যে তৃতীয় মুখ্যমন্ত্রী পেতে চলেছে উত্তরাখণ্ড
তীর্থ সিং রাওয়াতফাইল ছবি দ্য ওয়ারের সৌজন্যে

তীর্থ সিং রাওয়াতের ইস্তফা, এক বছরের মধ্যে তৃতীয় মুখ্যমন্ত্রী পেতে চলেছে উত্তরাখণ্ড

দায়িত্ব নেবার মাত্র চার মাসের মধ্যে ইস্তফা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী তীর্থ সিং রাওয়াত। আগামীকাল বিকেল ৩ টেয় বিজেপি বিধায়কদলের বৈঠক ডাকা হয়েছে। সেখানেই ঠিক হবে পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রীর নাম।

এক বছরের মধ্যে তৃতীয় মুখ্যমন্ত্রী পেতে চলেছে উত্তরাখণ্ড। দায়িত্ব নেবার মাত্র চার মাসের মধ্যে ইস্তফা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী তীর্থ সিং রাওয়াত। আগামীকাল বিকেল ৩ টেয় বিজেপি বিধায়কদলের বৈঠক ডাকা হয়েছে। সেখানেই ঠিক হবে পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রীর নাম। সূত্র অনুসারে মুখ্যমন্ত্রী হতে পারেন সতপাল মহারাজ অথবা ধন সিং রাওয়াত। এই দুই বিধায়ককে শুক্রবার জরুরি ভিত্তিতে দিল্লিতে ডেকে পাঠানো হয়েছে।

জানা গেছে, আগামীকাল উত্তরাখণ্ডে বিজেপি বিধায়কদলের বৈঠকে পর্যবেক্ষক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর। বর্তমান পরিস্থিতিতে কোনো অবস্থাতেই বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী তীর্থ সিং রাওয়াতের পক্ষে আগামী ১০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে বিধানসভায় নির্বাচিত হয়ে আসা সম্ভব নয়। তাই বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব বর্তমান বিধায়কদের মধ্যে থেকেই পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী বেছে নেবেন। আগামী ২৩ মার্চ ২০২২ উত্তরাখণ্ড বিধানসভার মেয়াদ শেষ হচ্ছে।

গত ৯ মার্চ ত্রিভেন্দ্র সিং রাওয়াতের ইস্তফা দেবার পর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব নিয়েছিলেন তীর্থ সিং রাওয়াত। চার বছর ক্ষমতায় থাকার পর গত ৯ মার্চ ইস্তফা দিয়েছিলেন রাওয়াত। তার আগে বিজেপির অভ্যন্তরীণ সমীক্ষায় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ত্রিভেন্দ্র সিং রাওয়াতের বিরুদ্ধে মত দিয়েছিলেন অধিকাংশ বিধায়ক। এমনকি তাঁরা একথাও জানিয়েছিলেন রাওয়াত মুখ্যমন্ত্রী থাকলে আগামী নির্বাচনে বিজেপির জয়ী হবার কোনো সম্ভাবনা নেই। তাঁর পরিবর্তে রাওয়াতের মন্ত্রিসভার এক সদস্য, ধনসিং রাওয়াতকে অনেকেই আগামী মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দেখতে চেয়েছিলেন তাঁরা। যদিও বিজেপি কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে তীর্থ সিং রাওয়াতকে বেছে নেন।

ত্রিভেন্দ্র সিং রাওয়াত এবং তীর্থ সিং রাওয়াত – উত্তরাখণ্ডের দুই প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীই একাধিকবার বিতর্কিত মন্তব্য করে দলকে অস্বস্তিতে ফেলেছেন। গত ১৩ মে একটি বেসরকারি সংবাদমাধ্যমে ত্রিভেন্দ্র সিং রাওয়াত বলেন, "দার্শনিক দৃষ্টিকোণ থেকে দেখলে করোনা ভাইরাসও একটি জীবিত প্রাণী। আমাদের প্রত‍্যেকের মতো এরও বেঁচে থাকার অধিকার রয়েছে।

এই ঘটনার পর গত জুন মাসে কুম্ভ মেলায় করোনার ভুয়ো টেস্ট করানোর বিষয়ে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ত্রিবেন্দ্র সিং রাওয়াত বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী তিরথ সিং রাওয়াতকে বিদ্ধ করেন। তিনি বলেন, ভুয়ো কোভিড টেস্ট গুরুতর অপরাধের সমান। এই মর্মে নিরপেক্ষ তদন্ত ও প্রকৃত দোষীদের কড়া শাস্তি দেওয়ার দাবিও করেন তিনি।

একইভাবে বিগত চার মাস মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালীন একাধিক বিষয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে দলকে অস্বস্তিতে ফেলেছেন তীর্থ সিং রাওয়াত। তিনি দাবি করেছিলেন ইংল্যান্ড নয়, আমেরিকা ২০০ বছর ধরে ভারত শাসন করেছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in