শহুরে ভারতীয়দের উন্নয়নের মাপকাঠি এখন দারিদ্র, ক্ষুধা দূরীকরণ ও লিঙ্গ সমতা: সমীক্ষা

২০১৯ সালে এসডিজি-র লক্ষ্যমাত্রা অর্থনৈতিক উন্নতি, প্রাকৃতিক সম্পদের ব্যবহার এইসবের মধ্যে সীমাবদ্ধ ছিল। কিন্তু মহামারীকালে মানুষের মনে স্বাস্থ্য ও ক্ষুন্নিবৃত্তির মতো বিষয়গুলোও উঠে এসেছে।
শহুরে ভারতীয়দের উন্নয়নের মাপকাঠি এখন দারিদ্র, ক্ষুধা দূরীকরণ ও লিঙ্গ সমতা: সমীক্ষা
ছবি- প্রতীকী সংগৃহীত

শহুরে ভারতীয়দের 'সাসটেনেবল ডেভেলপমেন্ট গোলস' (এসডিজি) ছুঁতে গেলে তিনটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে নজর দিতে হবে। আর তা হল, দারিদ্র দূরীকরণ, ক্ষুধা দূরীকরণ ও লিঙ্গ সমতা। ওয়াল্ড ইকনমি ফোরাম-ইপসোস -এর সমীক্ষায় এমনটাই দাবি করা হয়েছে।

ইপসোস-এর সমীক্ষা প্রকাশ করে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, এই তিনটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় ছাড়াও ভালো স্বাস্থ্য ও সুস্থ থাকার বিয়য়টিকেও সমানভাবে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। ইপসোস ইন্ডিয়ার সিইও অমিত আদারকর জানিয়েছেন, মহামারী ও লকডাউনের প্রভাব বৃহত্তর আকারে পড়েছে সাধারণের উপর। এই অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে হলে এই তিনটি এসডিজি-র উপর জোর দিতে হবে। খাদ্য, অর্থ ও স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ঠিক হলেই তা সম্ভব হবে। যার মধ্যে চিকিৎসা ও টিকাকরণও রয়েছে। করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার আগে অবশ্য সরকার এই তিনটি বিষয়ের দিকেই নজর দিয়ে আসছিল বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

ভারতের মতো দেশে যেখানে দরিদ্র মানুষের সংখ্যাই বেশি, সেখানে এই তিনটি বিষয়কে পূর্ণ করা দীর্ঘমেয়াদী পরিকল্পনার মধ্যেই পড়ে। লিঙ্গ সমতাও দেশের উন্নয়নের জন্য সমানভাবে গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করেন নেটিজেনরা। মহামারী পরবর্তী সময়ে বাড়ি থেকে কাজ, চাকরি চলে যাওয়া, বাচ্চাদের দেখা, স্বাস্থ্য প্রভৃতি বিষয়গুলো নিয়ে মহিলাদের উপর আরও চাপ সৃষ্টি হবে। সুতরাং, এই পরিস্থিতিতে লিঙ্গ সমতা যথেষ্টই তাৎপর্যপূর্ণ বলেও উল্লেখ করেন আদরকর। ২০১৯ সালে এসডিজি-র লক্ষ্যমাত্রা অর্থনৈতিক উন্নতি, প্রাকৃতিক সম্পদের ব্যবহার এইসবের মধ্যে সীমাবদ্ধ ছিল। কিন্তু মহামারীকালে মানুষের মনে স্বাস্থ্য ও ক্ষুন্নিবৃত্তির মতো বিষয়গুলোও উঠে এসেছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in