১৯৭১ থেকে উত্তরমেরু অঞ্চলে উষ্ণতা বৃদ্ধির হার পৃথিবীর অনুপাতে তিনগুণ বেশি - রিপোর্ট
উত্তরমেরু অঞ্চলফাইল ছবি জিওস্প্যাটিয়াল-এর সৌজন্যে

১৯৭১ থেকে উত্তরমেরু অঞ্চলে উষ্ণতা বৃদ্ধির হার পৃথিবীর অনুপাতে তিনগুণ বেশি - রিপোর্ট

রিপোর্ট অনুসারে ১৯৭১ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত উত্তর মেরু অঞ্চলে প্রতি বছর গড়ে ৩.১ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড করে উষ্ণতা বেড়েছে, যেখানে পৃথিবীর গড় উষ্ণতা বেড়েছে গড়ে ১ ডিগ্রি করে।

১৯৭১ থেকে ২০১৯-এর মধ্যে উত্তর মেরুর বরফাবৃত অঞ্চল দ্রুত গতিতে গলেছে। বিজ্ঞানীদের পূর্ব অনুমানের থেকে অনেক বেশি গতিতে এই গলে যাওয়াকে বিপজ্জনক বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা। বৃহস্পতিবার প্রকাশিত এক রিপোর্টে একথা জানা গেছে।

আর্টিক মনিটরিং অ্যান্ড অ্যাসেসমেন্ট প্রোগ্রাম (AMAP)-র সাম্প্রতিক রিপোর্টে এই কথা উল্লেখ করা হয়েছে। যে রিপোর্ট অনুসারে – পৃথিবীর উষ্ণতা যদি আরও ২ ডিগ্রি বৃদ্ধি পায় তাহলে এই গ্রীষ্মেই ওই বরফ সম্পূর্ণ গলে যেতে পারে। ১৯৭১ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত বরফ গলেছে প্রায় তিনগুণ বেশি গতিতে।

ওই রিপোর্ট অনুসারে ১৯৭১ সাল থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত উত্তর মেরু অঞ্চলে প্রতি বছর গড়ে ৩.১ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড করে উষ্ণতা বেড়েছে, যেখানে পৃথিবীর গড় উষ্ণতা বেড়েছে গড়ে ১ ডিগ্রি করে। গবেষকদের মতে এই শতাব্দীর শেষে মেরু অঞ্চলের তাপমাত্রা ৩.৩ ডিগ্রি থেকে ১০ ডিগ্রির মধ্যে থাকবে।

এর আগে গবেষকরা জানিয়েছিলেন, যে হারে মেরু অঞ্চলের উষ্ণতা বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে আগামী ২০৪০ সালের মধ্যে মেরু অঞ্চলের পুরো বরফ গলে যেতে পারে। সেইসময় বলা হয়েছিলো উত্তর মেরু অঞ্চলের বরফ প্রতি দশকে ১৩ শতাংশ করে গলে যাচ্ছে।

ন্যাশনাল স্নো অ্যান্ড আইস ডাটা সেন্টারের তথ্য অনুসারে গত এপ্রিল মাসে সবথেকে বেশি বরফ গলেছে ল্যাব্রাডর সাগর এবং সী অফ অখটস্ক-এ। এছাড়াও নোভায়া জেমলিয়ার বেরিং সাগর এবং পূর্ব বেরেন্টস সমুদ্রেও প্রচুর পরিমাণে বরফ গলেছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in