Visva-bharati University: সাসপেন্ডেড ৩ প্রতিবাদী পড়ুয়াকে বরখাস্ত করলো কর্তৃপক্ষ
সাসপেন্ডেড ৩ SFI সদস্যের সাসপেনশন প্রত্যাহারের দাবিতে অবস্থান বিক্ষোভফাইল ছবি, সৌজন্যে SFI বিশ্বভারতীর ফেসবুক পেজ

Visva-bharati University: সাসপেন্ডেড ৩ প্রতিবাদী পড়ুয়াকে বরখাস্ত করলো কর্তৃপক্ষ

তিন বছরের জন্য বরখাস্ত করা হলো ৩ SFI সদস্যকে। এই ঘটনাকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে মনে করছেন তাঁরা।

বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাসপেন্ড হওয়া তিন পড়ুয়াকে এবার বরখাস্ত করলো বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। তিন বছরের জন্য বরখাস্ত করা হলো বাম ছাত্র সংগঠনের সাথে যুক্ত এই পড়ুয়াদের। এই ঘটনাকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে মনে করছেন তাঁরা।

বিশ্ববিদ‍্যালয়ের উপাচার্যের বিরুদ্ধে আন্দোলন করায় চলতি বছরের ১৪ জানুয়ারি তিনমাসের জন‍্য সাময়িক ভাবে অর্থনীতি বিভাগের পড়ুয়া ফাল্গুনী পান, সোমনাথ সৌ এবং সঙ্গীত বিভাগের রূপা চক্রবর্তীকে সাসপেন্ড করেছিল কর্তৃপক্ষ। পরে ধীরে ধীরে সেই সাসপেনশনের মেয়াদ বাড়ানো হয় যা এখনও শেষ হয়নি। এরই মাঝে তিন বছরের জন্য বরখাস্ত করা হলো এই তিন পড়ুয়াকে। সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের তরফ থেকে বরখাস্তের নোটিশ পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে তাঁদের।

সিপিআইএমের ছাত্র সংগঠন এসএফআইয়ের সদস্য এঁরা। বিশ্ববিদ্যালয়ের যে কোনো আন্দোলনে এই তিনজনকে প্রথম সারিতে দেখা যায়। এঁদের বরখাস্তের সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ পড়ুয়াদের একাংশ। বৃহত্তর আন্দোলনে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তাঁরা।

বরখাস্তের নোটিশ
বরখাস্তের নোটিশছবি সৌজন্যে SFI বিশ্বভারতীর ফেসবুক পেজ

সোমনাথ সৌ‌-য়ের অভিযোগ, উপাচার্য RSS-BJP ঘনিষ্ঠ এবং তাঁরা এসএফআইয়ের সদস্য। তাই রাজনৈতিকভাবে শায়েস্তা করতে এই কাজ করা হয়েছে। আইনি পথে এর মোকাবিলা হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

এর‌ আগে সাসপেনশন পর্ব চলাকালীন এই তিন পড়ুয়াকে 'মাওবাদী' বলে উল্লেখ করেছিলেন উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী। অধ‍্যাপক-অধ‍্যাপিকাদের নিয়ে একটি বৈঠকে এই মন্তব্য করেছিলেন তিনি। সেই বৈঠকের অডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছিল।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in