প্রেমিকের সাহায্যে তরুণীকে গণধর্ষণ তৃণমূল কাউন্সিলরের, দাঁইহাট কাণ্ডের মাঝেই ফের অস্বস্তিতে শাসক দল

সূত্রের খবর, নির্যাতিতা দুই সন্তানকে নিয়ে বাপের বাড়িতে থাকতেন তিনি। যদিও কাউন্সিলরের তরফে এ বিষয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। তিনি বিজেপির হয়ে ভোটে জিতেছিলেন। চলতি বছর জুনে তিনি তৃণমূলে যোগ দেন।
প্রেমিকের সাহায্যে তরুণীকে গণধর্ষণ খড়গপুরের তৃণমূল কাউন্সিলরের
প্রেমিকের সাহায্যে তরুণীকে গণধর্ষণ খড়গপুরের তৃণমূল কাউন্সিলরেরফাইল ছবি

বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে তরুণীকে লাগাতার ধর্ষণের অভিযোগ উঠল খড়গপুরের এক যুবকের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, সেই যুবকের বিরুদ্ধে স্থানীয় তৃণমূল কাউন্সিলরের কাছে অভিযোগ জানাতে গেলে সদলবলে ওই কাউন্সিলর এবং যুবকটি ফের ধর্ষণ করে তরুণীকে। এমনকি, পুলিশে খবর দিতে গেলে তরুণীকে প্রাণে মারার হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

সূত্রের খবর, নির্যাতিতা খড়গপুরের বড়আয়মা এলাকার বাসিন্দা। দুই সন্তানকে নিয়ে বাপের বাড়িতে থাকতেন তিনি। নির্যাতিতার অভিযোগ, বেশ কিছুদিন আগে শৈলেশ কুমার নামের এক ব্যক্তির সাথে পরিচয় হয় তাঁর। যুবকটি তাঁকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়। এমনকি, বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে একাধিকবার তাঁর সাথে সহবাস করে বলে অভিযোগ।

নির্যাতিতা আরও জানান, বিয়ের প্রসঙ্গ তুললেই তা এড়িয়ে যায় শৈলেশ। এরপরই আইন-আদালতের দ্বারস্থ হওয়ার সিদ্ধান্ত নেন ওই তরুণী। প্রাথমিকভাবে, খড়গপুরের ৩২ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর মুকেশ হুমনের কাছে নিজের প্রেমিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানান। এরপর একদিন সেই কাউন্সিলর তাঁকে ডেকে পাঠায়।

নির্যাতিতার অভিযোগ, সেখানে কাউন্সিলর মুকেশ, শৈলেশ এবং সহ আরও ২ জন উপস্থিত ছিলেন। পালা করে নির্যাতিতাকে ধর্ষণ করে তারা। এরপর তাঁকে মাথায় বন্দুক ঠেকিয়ে হুমকি দেওয়া হয়, পুলিশকে কিছু জানালেই প্রাণে মেরে ফেলা হবে। যদিও এই আতঙ্ক কাটিয়ে পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন ওই তরুণী।

পুলিশ সূত্রের খবর, নির্যাতিতার অভিযোগের ভিত্তিতে শৈলেশকে গ্রেফতার করা হয়। কিন্তু একমাসের মধ্যেই তাঁকে জামিনে মুক্ত করেন তৃণমূল কাউন্সিলর। যার ফলে, পুনরায় সকল অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে পুলিশ সুপারের কাছে অভিযোগ জানান নির্যাতিতা।

গোটা ঘটনায় ইতিমধ্যেই ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে খড়গপুর এলাকায়। অভিযুক্তদের শাস্তির দাবি জানিয়েছে স্থানীয়রা। যদিও কাউন্সিলরের তরফে এ বিষয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। তিনি বিজেপির হয়ে ভোটে জিতেছিলেন। চলতি বছর জুনে তিনি তৃণমূলে যোগ দেন।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, সম্প্রতি পূর্ব বর্ধমানের দাঁইহাট পুরসভার তৃণমূল পুরপ্রধান শিশির কুমার মণ্ডলের বিরুদ্ধে এক তরুণীকে ফোন এবং ভিডিও কলে অশ্লীল প্রস্তাব দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। চাপে পড়ে শিশির কুমার মণ্ডলকে পুরপ্রধানের পদ থেকে অপসারণের নির্দেশ দিয়েছে দলের শীর্ষ নেতৃত্ব। এর মাঝেই ফের নতুন করে অস্বস্তি বাড়ালো খড়গপুরের ঘটনা।

প্রেমিকের সাহায্যে তরুণীকে গণধর্ষণ খড়গপুরের তৃণমূল কাউন্সিলরের
চাকরি দেওয়ার নামে তরুণীকে অশালীন প্রস্তাব! তৃণমূল পুরপ্রধানকে পদ থেকে অপসারণের নির্দেশ দলের
প্রেমিকের সাহায্যে তরুণীকে গণধর্ষণ খড়গপুরের তৃণমূল কাউন্সিলরের
চাকরি দেওয়ার নামে তরুণীকে অশালীন প্রস্তাব! তৃণমূল পুরপ্রধানকে পদ থেকে অপসারণের নির্দেশ দলের

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in