Bogtui Massacre: বগটুই কান্ডে জড়িত অভিযোগে সিবিআই-এর হাতে গ্রেপ্তার আরও ৮

সিবিআই জানিয়েছে এদিন যে আট জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে, তাদের মধ্যে সাতজন বগটুই ঘটনার সঙ্গে সরাসরি জড়িত। গ্রেপ্তার হওয়া অন্য এক ব্যক্তি স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রধান ভাদু শেখ হত্যাকান্ডের সঙ্গে জড়িত।
ছবি প্রতীকী
ছবি প্রতীকী গ্রাফিক্স সুমিত্রা নন্দন

বগটুই কান্ডে জড়িত অভিযোগে আরও ৮ জনকে গ্রেপ্তার করলো সিবিআই। গত ২১ মার্চ বীরভূমের বগটুইতে এক হিংসার ঘটনায় ১০ জনের মৃত্যু হয়। মঙ্গলবার সিবিআই-এর পক্ষ থেকে এই গ্রেপ্তারির খবর জানানো হয়েছে।

সিবিআই জানিয়েছে এদিন যে আট জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে, তাদের মধ্যে সাতজন বগটুই ঘটনার সঙ্গে সরাসরি জড়িত। গ্রেপ্তার হওয়া অন্য এক ব্যক্তি স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রধান ভাদু শেখ হত্যাকান্ডের সঙ্গে জড়িত। উল্লেখ্য, ভাদু শেখের হত্যা এবং বগটুই কাণ্ড পারস্পরিক সম্পর্কিত।

এদিন বগটুই হত্যাকান্ডে জড়িত যে সাতজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে তাঁরা হলেন বিকির আলি, নূর আলি, শের আলি, আসিফ শেখ, জোসিফ হোসেন, জামিরুল শেখ এবং খইরুল শেখ। ভাদু শেখ খুনে জড়িত আটক ব্যক্তির নাম লালন শেখ।

গত ২১ মার্চ প্রকাশ্য দিবালোকে খুন হন তৃণমূলের স্থানীয় প্রভাবশালী নেতা ভাদু শেখ। ভাদু শেখের হত্যাকান্ডের পরেই বগটুই হিংসার ঘটনা ঘটে। যে ঘটনায় একাধিক বাড়ি জ্বালিয়ে দেওয়া হয় এবং ঘটনাস্থলেই শিশু ও মহিলা সহ ৮ জনের মৃত্যু হয়। পরে হাসপাতালে মৃত্যু হয় আরও এক মহিলার। ভাদু শেখ সহ বগটুই কান্ডে মোট মৃতের সংখ্যা গিয়ে দাঁড়ায় দশে।

গত ২১ জুন বীরভূমের নিম্ন আদালতে চার্জশীট পেশ করে সিবিআই। যেখানে স্পষ্টভাবে জানানো হয় বগটুই গ্রামে হিংসার খবর পেয়েও পুলিশ সক্রিয় হয়নি এবং যথোপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি। আরও জানা যায়, গ্রামবাসীরা বারবার ফোন করলেও স্থানীয় পুলিশ থানা থেকে ঘটনাস্থলে পুলিশ যায়নি।

চার্জশীটে আরও বলা হয়, দুষ্কৃতীরা প্রথমে একাধিক বাড়ির দরজায় তালা দিয়ে দেয় এবং তারপর আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। কেউ যাতে না বেঁচে থাকে তা নিশ্চিত করতেই এইভাবে দরজা আটকে দেওয়া হয়েছিল বলে সিবিআই-এর অভিমত।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in