SSC Corruption: জামিন হল না পার্থ অর্পিতার, আরও দু'দিনের ইডি হেফাজত

ইডির পক্ষ থেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতের কাছ থেকে আরও দু'দিন সময় চাওয়া হলে বিচারপতি তাঁদের দু'দিনের ইডি হেফাজতের নির্দেশ দেন। আগামী ৫ আগস্ট পর্যন্ত দুজনকেই ইডি হেফাজতে থাকতে হবে।
পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও অর্পিতা মুখোপাধ্যায়
পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও অর্পিতা মুখোপাধ্যায়গ্রাফিক্স সুমিত্রা নন্দন

জামিন হল না পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের। বুধবার ইডি-র তরফ থেকে নির্ধারিত সূচি মেনে এঁদের ব্যাঙ্কশাল আদালতে হাজির করা হয়। ইডির পক্ষ থেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতের কাছ থেকে আরও দু'দিন সময় চাওয়া হলে বিচারপতি তাঁদের আগামী দু'দিনের ইডি হেফাজতের নির্দেশ দেন। আগামী শুক্রবার পর্যন্ত এঁদের ইডি হেফাজতেই থাকতে হবে।

সূত্র অনুসারে, ইডির পক্ষ থেকে আদালতে জানানো হয়েছে, অর্পিতা তদন্তে সহযোগিতা করলেও পার্থ তদন্তে সহযোগিতা করছেন না। তাছাড়া গ্রেপ্তারির পর দু'দিন পার্থ চট্টোপাধ্যায় হাসপাতালেই ছিলেন। ফলে জেরা করার যথেষ্ট সময় পাওয়া যায়নি।

এদিন আদালতে পেশ করার আগে তৃণমূলের অপসারিত মহাসচিব এবং রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং তাঁর ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে জোকা ইএসআই হাসপাতালে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়। প্রায় দু'ঘণ্টা ধরে তাঁদের স্বাস্থ্য পরীক্ষার পর ব্যাঙ্কশাল আদালতে তাঁদের পেশ করে ইডি। গতকালের জুতো ছোঁড়ার ঘটনা মাথায় রেখে এদিন হাসপাতাল চত্বরে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়। উল্লেখ্য, গতকাল পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে লক্ষ্য করে হাসপাতালে জুতো ছুঁড়েছিলেন শুভ্রা ঘোড়ুই নামের এক মহিলা।

শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগে গত ২৩ জুলাই ইডি-র হাতে গ্রেপ্তার হন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। সেদিন থেকেই তিনি ইডি হেফাজতে রয়েছেন। টানা ২৭ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদের শেষে ইডি তাঁকে গ্রেপ্তার করে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্ত্রিসভায় তিনি শিল্পমন্ত্রী সহ তিনটি দপ্তরের দায়িত্বে ছিলেন। এছাড়াও তৃণমূলের মুখপত্র জাগো বাংলার সম্পাদক পদ সহ পাঁচটি দলীয় পদেও তিনি ছিলেন।

পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের গ্রেফতারির সন্ধ্যায় তৃণমূলের তরফ থেকে সাংবাদিক সম্মেলন করে বলা হয়, আদালতে দোষী প্রমাণিত হলে তবেই তাঁর বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেবে দল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও এরপর একাধিক অনুষ্ঠানে এই একই বার্তা দিয়ে তাঁর পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন।

যদিও গত সপ্তাহের বুধবার রাতে পার্থ ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখার্জির আরও একটি ফ্ল্যাট থেকে নগদ প্রায় ২৮ কোটি টাকা উদ্ধারের পরই পরিস্থিতি পাল্টে যায়। দলের অভ্যন্তরেই পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের মন্ত্রিত্ব কেড়ে নেওয়ার জোরালো দাবি ওঠে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in