মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের বিরুদ্ধে উত্তরপত্র বিকৃত করার অভিযোগ! মামলা দায়ের কলকাতা হাইকোর্টে

মামলাকারী বলেন, তাঁর উত্তরপত্র বিকৃত করা হয়েছে। বিচারপতি গাঙ্গুলি অভিযোগকারীর পেন ও ওএমআর শিট কেন্দ্রীয় ল্যাবে পরীক্ষার জন্য পাঠানোর নির্দেশ দেন। সিএফএসএল পেনের কালি ও উত্তরপত্রের কালি মিলিয়ে দেখবে।
মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের বিরুদ্ধে মামলা হাইকোর্টে
মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের বিরুদ্ধে মামলা হাইকোর্টেগ্রাফিক্স সুমিত্রা নন্দন

এবার মাদ্রাসায় শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ এনে মামলা দায়ের হল কলকাতা হাইকোর্টে। ওএমআর শিট বিকৃত করার অভিযোগ জানান ঐ আবেদনকারী। সেই উত্তরপত্র ফরেন্সিক ল্যাবে পাঠানোরও নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

এসএসসি, টেটের পর মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের শিক্ষকের নিয়োগেও দুর্নীতির অভিযোগ। শুক্রবার যা নিয়ে মামলা হয় আদালতে। মামলাকারী আব্দুল হামিদের বক্তব্য, তাঁর উত্তরপত্র বিকৃত করা হয়েছে। তিনি আরটিআই-র মাধ্যমে নিজের ওএমআর শিট সংগ্রহ করেন। তাতে তিনি দেখেন একটি প্রশ্নের উত্তরে তিনটি বিকল্প উত্তর গোল করে দাগ দেওয়া রয়েছে। কিন্তু পরীক্ষা চলাকালীন তিনি দুটি বিকল্প উত্তর চিহ্নিত করেছিলেন। যদিও মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের দাবি উত্তরপত্রে ভুল থাকায় তা বাতিল করা হয়।

মামলাকারীর আইনজীবী ফিরদৌস শামিম বলেন, আব্দুল হামিদকে বঞ্চিত করা হয়েছে। শুধু মাত্র হামিদের সঙ্গে ঘটেছে তা নয়, আরও অনেকের সঙ্গে এই বঞ্চনা করা হয়েছে।

বিচারপতি অভিজিৎ গাঙ্গুলি অভিযোগকারীর পেন ও ওএমআর শিট কেন্দ্রীয় ল্যাবে পরীক্ষার জন্য পাঠানোর নির্দেশ দেন। সিএফএসএল পেনের কালি ও উত্তরপত্রের কালি মিলিয়ে দেখবে। ৩১ আগস্টের মধ্যে পেন ও OMR শিট কেন্দ্রীয় ল্যাবে পাঠাতে হবে। সিএসএফএলকে ২৮ সেপ্টেম্বরের মধ্যে প্রাথমিক রিপোর্ট পেশ করার নির্দেশও দেন বিচারপতি।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in