Uttar Pradesh: দীর্ঘ ৬ মাস পর খুলে গেল প্রাইমারি স্কুল, ক্লাস দু' শিফটে

উত্তরপ্রদেশের প্রশাসনিক সূত্র অনুসারে কোভিড প্রোটোকল মেনে স্কুল চালাতে হবে। এদিন স্কুলের শিশুদের টফি, চকোলেট এবং ফুল দিয়ে স্বাগত জানানো হয়। জানা গেছে আপাতত কোভিড বিধি মেনে প্রতিদিন দু’দফায় স্কুল বসবে।
Uttar Pradesh: দীর্ঘ ৬ মাস পর খুলে গেল প্রাইমারি স্কুল, ক্লাস দু' শিফটে
বেলহারা বারাবাঁকির এক প্রাথমিক স্কুলছবি গাও কানেকশন ইংলিশ ট্যুইটার ভিডিওর থেকে স্ক্রীনশট

দীর্ঘ ৬ মাস পর উত্তরপ্রদেশে খুলে গেল প্রাইমারি স্কুল। উত্তরপ্রদেশের প্রশাসনিক সূত্র অনুসারে কোভিড প্রোটোকল মেনে স্কুল চালাতে হবে। এদিন স্কুলের শিশুদের টফি, চকোলেট এবং ফুল দিয়ে স্বাগত জানানো হয়। জানা গেছে আপাতত কোভিড বিধি মেনে প্রতিদিন দু’দফায় স্কুল বসবে।

এর আগে গত ১৬ এবং ২৩ আগস্ট থেকে উত্তরপ্রদেশে যথাক্রমে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণি এবং ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত ক্লাস চালু করা হয়েছে। এদিন থেকেই শুরু হয়েছে মাদ্রাসার পঠনপাঠনও।

প্রতিটি স্কুলে শিশুরা ঢোকার আগে থার্মাল স্ক্যানিং-এর মাধ্যমে স্কুলের গেটে তাদের পরীক্ষা করা হচ্ছে। প্রত্যেককে বাধ্যতামূলক ভাবে মাস্ক পরতে হচ্ছে। প্রতিটি ক্লাসরুমে স্যানিটাইজার রাখবার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এর আগে গত মার্চ মাসে কয়েকদিনের জন্য স্কুল খুললেও সংক্রমণের কারণে কয়েকদিনের মধ্যেই স্কুল বন্ধ করে দেওয়া হয়।

উত্তরপ্রদেশের শিক্ষা দপ্তরের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে শিশুদের নিরাপত্তার কথা ভেবে প্রতিদিন দু’দফায় ভাগ করে ক্লাস নেওয়া হবে। প্রথম দফায় ক্লাস নেওয়া হবে সকাল ৮ টা থেকে ১১টা এবং দ্বিতীয় দফায় সকাল সাড়ে ১১টা থেকে। সরকারি স্কুলে ছাত্রদের নিজেদের জলের বোতল এবং বাসন আনার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

যদিও সরকারের স্কুল খোলার সিদ্ধান্তে আপত্তি জানিয়েছেন কিছু অভিভাবক। তাঁদের মতে কোভিড-১৯-এর তৃতীয় ঢেউ-এর দিকে লক্ষ্য রেখে এখনই স্কুল খোলা সমীচীন নয়।

সাধিকা তিওয়ারী নামের এক অভিভাবক তার পাঁচ বছর বয়সী সন্তানকে স্কুলে পাঠাবেন না জানিয়ে এদিন সাংবাদিকদের বলেন, শিশুরা স্কুলে এবং ক্লাসে কোভিড প্রোটোকল মেনে চলবে এটা ভেবে নেওয়া বোকামি। স্কুলে গেলে তারা পড়াশোনার পাশাপাশি খেলাধুলো করবে এবং শিক্ষকের নজরের আড়াল হলেই মাস্ক খুলে ফেলবে। এর একমাত্র বিকল্প হল শিশুদের ঘরে রেখে অনলাইনে ক্লাস করানো।

- with Agency input

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in