RSS-র ষড়যন্ত্রেই ইয়েদুরাপ্পাকে মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে সরানোর পরিকল্পনা চলছে, মত লিঙ্গায়েত ধর্মগুরুর

বাসভা স্বামী বলেন, 'আরএসএস (RSS) হচ্ছে একটি জাতিবাদী সংগঠন। দলে কোনও উদার মনোভাবাপন্ন নেতা নেই। বিজেপি যদি ইয়েদুরাপ্পাকে সরিয়ে দেয়, তাহলে রাজ্যকে থেকে হাত ধুয়ে ফেলতে হবে বিজেপিকে।
RSS-র ষড়যন্ত্রেই ইয়েদুরাপ্পাকে মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে সরানোর পরিকল্পনা চলছে, মত লিঙ্গায়েত ধর্মগুরুর
লিঙ্গায়েত প্রতিনিধি দলের সাথে মুখ্যমন্ত্রী ইয়েদুরাপ্পাছবি- সংগৃহীত

মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে ইয়েদুরাপ্পাকে সরানোর পরিকল্পনা আসলে আরএসএস (RSS) এর ষড়যন্ত্র। লিঙ্গায়েত সম্প্রদায়ের কোত্তুর ভীরাশিভা শিবাযোগা মন্দিরের শ্রী সঙ্গনা বাসভা স্বামী এমনটাই দাবি করেছেন। উল্লেখ্য, মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে ইয়েদুরাপ্পার অপসারণ নিয়ে সরগরম কর্নাটক রাজনীতি। এরইমধ্যে বাসভা স্বামীর মন্তব্যকে ঘিরে চাপানউতোর শুরু হয়েছে।

হসপেট-এ সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে বাসভা স্বামী বলেন, 'আরএসএস (RSS) হচ্ছে একটি জাতিবাদী সংগঠন। দলে কোনও উদার মনোভাবাপন্ন নেতা নেই। আমরা জানি মহারাষ্ট্রে কি হয়েছে। লাখো মরাঠা যুবক পরিশ্রম করে বিজেপিকে ক্ষমতায় এনেছেন। কিন্তু এরপরই আরএসএস নেতারা দেবেন্দ্র ফডনবিশের মতো ব্রাহ্মণকে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পদে বসিয়ে দিয়েছেন। এরপরই মরাঠা সম্প্রদায়ই রাজ্যে বিজেপিকে পরাজিত করতে সাহায্য করেছে। খবর রয়েছে, আরএসএস চায় ইয়েদুরাপ্পার পরিবর্তে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী পদে আসুক প্রহ্লাদ যোশী। কিন্তু, এমনটা হবে না। বিজেপি যদি ইয়েদুরাপ্পাকে সরিয়ে দেয়, তাহলে রাজ্যকে থেকে হাত ধুয়ে ফেলতে হবে বিজেপিকে। আর এর ফল ভোগ করবে কংগ্রেস বা জেডি(এস)।'

এরইমধ্যে লিঙ্গায়েত শিরের প্রতিনিধি দল ও বিভিন্ন ধর্মীয় নেতারা ইয়েদুরাপ্পার সঙ্গে দেখা করে, তার মুখ্যমন্ত্রীত্বের সময়কাল পূর্ণ করার আবেদন করেন। বৈঠকের সঙ্গে বৈঠকের পর সিদ্দালিঙ্গা স্বামী বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে আবেদন করেন, মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে যেন ইয়েদুরাপ্পাকে সরানো না হয়।

সিদ্দালিঙ্গা স্বামী বলেন, কোভিডের মতো কঠিন পরিস্থিতিতে ইয়েদুরাপ্পা ভালো কাজ করেছেন রাজ্যবাসীর জন্য। এই সময়ে নতুন নেতৃত্বের প্রয়োজন নেই। আগামী ২০২৩ সালের বিধানসভা নির্বাচন পর্যন্ত ইয়েদুরাপ্পাকে পদে বহাল রাখা হোক।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in