ভোটার লিস্ট থেকে ২৭ লাখ নাম বাদ! BJP-র বিরুদ্ধে চক্রান্তের অভিযোগ তুলে কমিশনের দ্বারস্থ কংগ্রেস

মুখ্যমন্ত্রী বাসভরাজ বোম্মাই বলেন, 'আমরা অভিযোগ নিয়ে মাথা ঘামাই না। যদি কোনো সংস্থা ভুল করে থাকে, তার তদন্ত করা হবে।'
প্রতীকী ছবি
প্রতীকী ছবি

কর্ণাটকে ভোটার আইডি কেলেঙ্কারি নিয়ে বিজেপির বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশনে (EC) অভিযোগ দায়ের করেছে কংগ্রেস (Congress)। 

কর্ণাটক কংগ্রেসের সভাপতি ডি কে শিবকুমার ও বিরোধী নেতা সিদ্দারামাইয়া দাবি জানিয়েছেন, কী কারণে ভোটার লিস্ট থেকে ২৭ লক্ষ নাম বাদ দেওয়া হয়েছে, তার ব্যাখ্যা দিতে হবে।

তাঁরা দাবি করেছে যে, ক্ষমতাসীন বিজেপি নিজেদের সুবিধার জন্য ভোটারদের তথ্য চুরি করেছে। যেখানেই জয় পাওয়া কঠিন মনে হচ্ছে, সেখানে ভোটারদের তথ্য চুরি করতে বেসরকারি সংস্থাগুলিকে ব্যবহার করছে বিজেপি।

শিবকুমারের অভিযোগ, এই সংস্থাগুলি মন্ত্রীকে নির্বাচন কমিশনের ডেটা (তথ্য) এবং পাসওয়ার্ড দিয়েছে। ভোটার তালিকা সংশোধনের অজুহাতে যারা ভোটারদের তথ্য চুরির সঙ্গে অবৈধভাবে জড়িত, তাদের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা ও এফআইআর দায়ের করার দাবি জানিয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে, কংগ্রেসের অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে বিজেপি নেতারা কটাক্ষের সুরে বলেছেন, আসলে জাল (ভুয়ো) ভোটারদের হারানোর ভয় পাচ্ছে একটি দল। তাই, তাঁরা মিথ্যা অভিযোগ করছে।

মুখ্যমন্ত্রী বাসভরাজ বোম্মাই অভিযোগ করেছেন, কংগ্রেস ডুপ্লিকেট (ভুয়ো) ভোট হারানোর ভয়ে এই সব করছে। কংগ্রেসের অভিযোগের কোনো প্রমাণ নেই।

তিনি বলেন, 'আমরা অভিযোগ নিয়ে মাথা ঘামাই না। যদি কোনো সংস্থা ভুল করে থাকে, তার তদন্ত করা হবে।'

এর আগে শিবকুমার অভিযোগ করেছিলেন, রাজ্যের হাজার হাজার বিজেপি কর্মীকে ভোটার তালিকায় কারচুপি করার জন্য নিযুক্ত করা হয়েছে। তিনি বলেছিলেন, 'বিজেপি কর্মীদের একটি বেসরকারী সংস্থার মাধ্যমে চুক্তির ভিত্তিতে নিয়োগ করা হয়েছে। ভোটার আইডি পুনর্নবীকরণের প্রক্রিয়া চালানোর জন্য কর্তৃপক্ষ তাদের পরিচয়পত্র দিয়েছে।'

শুধুমাত্র বেঙ্গালুরুতেই প্রায় ১৭ থেকে ১৮ হাজার এই ধরনের পরিচয়পত্র দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ কংগ্রেসের। বিজেপি কর্মীরা ঘরে ঘরে গিয়ে ভোটারদের সমস্ত তথ্য সংগ্রহ করেছে।

ভারতীয় সংবিধানের ৩২৪, ৩২৫, ৩২৬ অনুচ্ছেদ এবং জনপ্রতিনিধিত্ব আইনের ২৮ অনুচ্ছেদে উল্লেখ করা আছে যে শুধুমাত্র সরকারী কর্মচারীরা ভোটার তালিকা সংক্রান্ত কাজগুলি পরিচালনা করতে পারেন। শিবকুমার বলেন, ক্ষমতাসীন বিজেপি এবং আমলাতন্ত্র এই নিয়মগুলি লঙ্ঘন করেছে।

শিবকুমার আরও অভিযোগ করেছেন যে, জালিয়াতি করে সংখ্যালঘু, এসসি/এসটি এবং অন্যান্য অনগ্রসর শ্রেণির ভোট ভোটার তালিকা থেকে বাদ দেওয়া হচ্ছে।

প্রতীকী ছবি
Gujarat Assembly Polls 22: দলীয় নির্দেশ অমান্য করে নির্দল প্রার্থী, সাসপেন্ড ৭ বিদ্রোহী বিজেপি নেতা

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in