চলতি অর্থবর্ষের প্রথম চার মাসে পেট্রোপণ্যের আবগারি শুল্ক থেকে সরকারের আয় বেড়েছে ৪৮%
ছবি সংগৃহীত

চলতি অর্থবর্ষের প্রথম চার মাসে পেট্রোপণ্যের আবগারি শুল্ক থেকে সরকারের আয় বেড়েছে ৪৮%

গত অর্থবর্ষের প্রথম চার মাসে পেট্রোপণ‍্যের ওপর লাগানো আবগারি শুল্কের লেভি থেকে সরকারের আয় হয়েছিল ৬৭ হাজার ৮৯৫ কোটি টাকা। চলতি অর্থবর্ষে এই চার মাসে সরকারের আয় হয়েছে ১ লাখ কোটি টাকারও বেশি।

পেট্রোপণ‍্যের আকাশ ছোঁয়া দাম থেকে সরকরের উপার্জন বেড়েছে কয়েক হাজার ‌কোটি টাকা। চলতি অর্থবর্ষের (২০২১ সালের এপ্রিল থেকে ২০২২ সালের মার্চ) প্রথম চার মাসে (এপ্রিল থেকে জুলাই) পেট্রোপণ‍্যের উপর লাগানো আবগারি শুল্কের লেভি থেকে সরকারের আয় বেড়েছে ৪৮ শতাংশ।

কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের আয়-ব‍্যয়ের হিসেব‌ রাখা কন্ট্রোলার জেনারেল অব অ‍্যাকাউন্টসের তথ‍্য অনুযায়ী, গত অর্থবর্ষের (২০২০ সালের এপ্রিল থেকে ২০২১ সালের মার্চ) প্রথম চার মাসে (এপ্রিল-জুলাই) পেট্রোপণ‍্যের ওপর লাগানো আবগারি শুল্কের লেভি থেকে সরকারের আয় হয়েছিল ৬৭ হাজার ৮৯৫ কোটি টাকা। চলতি অর্থবর্ষে এই চার মাসে সরকারের আয় হয়েছে ১ লাখ কোটি টাকারও বেশি।

অর্থাৎ গত বছরের তুলনায় এই বছর সরকারের পেট্রোপণ‍্য থেকে সরকারের আয় বেড়েছে ৩২ হাজার ৪৯২ কোটি টাকা, যা পুরো অর্থবর্ষের আইনি অয়েল বন্ডের পরাশোধিত দায়ের (১০ হাজার কোটি) তিন গুণেরও বেশি। কংগ্রেসের নেতৃত্বাধীন ইউপিএ সরকার পেট্রোপণ‍্যের ভর্তুকিতে অয়েল‌ বন্ড জারি করেছিল।

প্রসঙ্গত, পেট্রোল এবং ডিজেল জিএসটি (Goods and Services Tax)-এর আওতায় আসে না। এগুলোর ওপর আবগারি শুল্ক আরোপ করা হয়। এছাড়াও এভিয়েশন টারবাইন ফুয়েল (এটিএফ) এবং প্রাকৃতিক গ্যাসের ওপরেও জিএসপি আরোপ করা হয় না।

শেষ কয়েক মাসে পেট্রোল-ডিজেলের দাম অপ্রত‍্যাশিতহারে বেড়েছে। লিটার প্রতি পেট্রোলের দাম অধিকাংশ রাজ‍্যেই ১০০ টাকা ছাড়িয়েছে। ডিজেলের দামও সেঞ্চুরির দোরগোড়ায়। এর ওপর গত বছর এই সময় দেশব‍্যাপী লকডাউন জারি ছিল। কিন্তু বর্তমানে দেশের বেশিরভাগ রাজ‍্যই লকডাউনের বিধিনিষেধ শিথিল করে দিয়েছে। যানবাহন চলাচল ‌শুরু হয়েছে। ফলে গতবছরের তুলনায় পেট্রোল-ডিজেলের বিক্রি বেড়েছে। সব মিলিয়ে আবগারি শুল্কের আদায় বহুগুণ বেড়েছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in