Farmers' Protest: বাদল অধিবেশন চলাকালীন সংসদ ভবনের বাইরে কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ কর্মসূচি

বাদল অধিবেশন চলাকালীন প্রতিদিন সংসদ ভবনের বাইরে কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ দেখাবেন কৃষকরা। রবিবার সংযুক্ত কিষাণ মোর্চার তরফ থেকে সাংবাদিক বৈঠক করে একথা জানানো হয়েছে।
Farmers' Protest: বাদল অধিবেশন চলাকালীন সংসদ ভবনের বাইরে কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ কর্মসূচি
ফাইল ছবি সংগৃহীত

বাদল অধিবেশন চলাকালীন প্রতিদিন সংসদ ভবনের বাইরে কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ দেখাবেন কৃষকরা। রবিবার সংযুক্ত কিষাণ মোর্চার তরফ থেকে সাংবাদিক বৈঠক করে একথা জানানো হয়েছে। এছাড়াও আরও একাধিক প্রতিবাদ কর্মসূচির ঘোষণা করেছে মোর্চা।

আগামী ১৯ জুলাই থেকে সংসদের বাদল অধিবেশন শুরু হওয়ার কথা রয়েছে এবং ১৩ আগস্ট পর্যন্ত তা চলবে।

কৃষক সংগঠনগুলির যৌথ মঞ্চ জানিয়েছে, বিরোধী দলের সদস্যরা যাতে সংসদে কৃষি আইনের বিরুদ্ধে সরব হন তার জন্য ১৭ জুলাই একটি বিশেষ কর্মসূচি নিয়েছেন আন্দোলনরত কৃষকরা। সাংসদের উদ্দেশ্যে তাঁরা বার্তা দেবেন - "সংসদে নিজেদের নীরবতা ভাঙুন অথবা পদত্যাগ করুন।"

কৃষক নেতা বলবীর সিং রাজেওয়াল জানিয়েছেন, "বিরোধী দলগুলোর উচিত আমাদের দাবিগুলোর প্রতি সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করা। আমরা তিন কৃষি আইন বাতিল এবং ফসলের ন‍্যূনতম সহায়ক মূল্য নিয়ে আইন তৈরির দাবি করছি।"

অপর এক নেতা গুরনাম সিং জানিয়েছেন, ওয়াক আউট করে সরকারের সুবিধা না করে দিয়ে সংসদের ভিতরেই আমাদের দাবিগুলো নিয়ে সরব হলে তা আরও জোরদার হবে। বিরোধীদেরই সরকারকে এই বিষয়ে কথা বলতে বাধ্য করতে হবে।

রাজেওয়াল জানিয়েছেন, ২২ জুলাই দিল্লি সীমান্তের প্রতিটি আন্দোলনস্থল থেকে কমপক্ষে পাঁচজন কৃষক সংসদের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করবেন এবং কৃষি আইনের বিরুদ্ধে স্লোগান দিয়ে সংসদের সামনে বিক্ষোভ দেখাবেন। এনডিএ সরকারের প্রতিটি জোটসঙ্গীর প্রতিনিধিত্বকারী সংসদদের বাড়ির সামনেও প্রতিবাদ দেখানো হবে। বাদল অধিবেশন শেষ না হওয়া পর্যন্ত এই প্রতিবাদ চলবে।

এছাড়াও পেট্রোল-ডিজেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে আগামী ৮ জুলাই বিক্ষোভ কর্মসূচির ডাক দিয়েছে সংযুক্ত কিষাণ মোর্চা। গুরনাম সিং জানিয়েছেন, ওইদিন সকাল ১০টা থেকে দুপুর পর্যন্ত সমস্ত জাতীয় ও রাজ‍্য সড়কে যানবাহন পার্ক করে রাখবেন ভারতীয় কৃষক ইউনিয়নের সদস্যরা। বারোটার সময় বিক্ষোভকারীরা একসাথে গাড়ির হর্ন বাজাবেন। তবে ট্র‍্যাফিক জ‍্যাম যাতে না হয় সে বিষয়ে খেয়াল রাখা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। গ‍্যাসের দাম বৃদ্ধিতে মহিলারাও ওইদিন পথে নামবেন বলে জানিয়েছে মোর্চা।

গুরনাম আরো জানিয়েছেন, হরিয়ানার ফরিদাবাদের খোরি গাঁও থেকে উচ্ছেদ হওয়া গ্রামবাসীদের পুনর্বাসনের দাবিতে ৬ জুলাই প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনের কাছে একটি বিক্ষোভ কর্মসূচির আয়োজন করেছে সংযুক্ত কিষাণ মোর্চা।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in