Dhanbad Landslide: রাতের অন্ধকারে মাটি চাপা পড়ে ৪ শ্রমিকের মৃত্যু, বিঘ্ন ধানবাদ রুটের ট্রেন চলাচল

মঙ্গলবার (১২ জুলাই), গভীর রাতে ধানবাদে সদ্য তৈরি রেলওয়ে আন্ডারপাসের বেশ খানিকটা অংশ ধ্বসে যায়। এই দুর্ঘটনায় কর্মরত ৪জন শ্রমিক মাটি চাপা পড়ে নিহত হন।
Dhanbad Landslide: রাতের অন্ধকারে মাটি চাপা পড়ে ৪ শ্রমিকের মৃত্যু, বিঘ্ন ধানবাদ রুটের ট্রেন চলাচল
ছবি সংগৃহীত

ঝাড়খণ্ডের ধানবাদ জেলায় নির্মীয়মাণ রেলওয়ে আন্ডারপাসে, মাটির তলে চাপা পড়ে ৪ জন শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার (১২ জুলাই), গভীর রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ধানবাদ জেলা সদর থেকে প্রায় ১৩ কিলোমিটার দূরে বালিয়াপুর থানার অন্তর্গত ছাতাকুলি গ্রামের কাছে।

প্রধানখুন্টা জংশন (Pradhankhunta Junction) ও সিন্দ্রি টাউন (Sindri Town) রেল সেকশনের মধ্যবর্তী অংশে বালিয়া এলাকায় তৈরি হচ্ছিল একটি রেলওয়ে আন্ডারপাস। সেখানে একটি বেসরকারি ঠিকাদার মারফত নিযুক্ত করা হয়েছিল ৬জন শ্রমিককে। তাঁরা সেখানে সারারাত জেগে সেই আন্ডারপাস নির্মাণের কাজ করছিলেন। সেই সময় নিকটবর্তী একটি রেললাইন দিয়ে একটি পণ্যবাহী ট্রেন অতিক্রম করার পরে সদ্য তৈরি আন্ডারপাসের বেশ খানিকটা অংশ ধসে যায়। এই দুর্ঘটনায় কর্মরত ৪ জন শ্রমিক মাটি চাপা পড়ে নিহত হয়েছেন।

খবর পাওয়া মাত্রই গ্রামের স্থানীয়রা দুর্ঘটনাস্থলে পৌঁছে যান। উপস্থিত হন রেলের আধিকারিকরাও। মাটির নীচে থেকে চারজন শ্রমিকের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ঘটনার জেরে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। বিক্ষুব্ধ গ্রামবাসীরা নিহতদের পরিবারকে চাকরি এবং আর্থিক সাহায্যের দাবি জানিয়ে রেললাইন অবরোধ করে। পরে সকাল ৫টা ৩০ নাগাদ পুলিশ পরিস্থিতি আয়ত্তে আনে ও গ্রামবাসীদের তরফে সেই অবরোধ তুলে নেওয়া হয়। সিন্দ্রির উপ-পুলিশ সুপার অভিষেক কুমার জানিয়েছেন, দুর্ঘটনায় মৃত সমস্ত শ্রমিকরা বালিয়াপুর থানার অন্তর্গত কুলহি গ্রামের বাসিন্দা ছিলেন।

উল্লেখ্য, দুর্ঘটনার পর ধানবাদ রুট দিয়ে ট্রেন চলাচল বন্ধ করা হয়েছে। ওই রুটের সমস্ত যাত্রী ও পন্যবাহী ট্রেন ঝাঁঝা-পটনা-দীনদয়াল উপাধ্যায় (Jhajha-Patna-Dindayal Upadhyay) রুটে ঘুরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

Dhanbad Landslide: রাতের অন্ধকারে মাটি চাপা পড়ে ৪ শ্রমিকের মৃত্যু, বিঘ্ন ধানবাদ রুটের ট্রেন চলাচল
PMCARES Fund: 'এমন গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে এক পাতার জবাব!' - কেন্দ্রকে তীব্র ভর্ৎসনা দিল্লী হাইকোর্টের

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in