Karnataka: দলিত-মুসলিম লেখকরা বাদ, কর্ণাটকের পাঠ্যপুস্তকে 'ঠাঁই' RSS মতাদর্শীদের

Karnataka: দলিত-মুসলিম লেখকরা বাদ, কর্ণাটকের পাঠ্যপুস্তকে 'ঠাঁই' RSS মতাদর্শীদের
কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী বাসবরাজ বোম্মাই ফাইল ছবি সংগৃহীত

সামাজিক বিজ্ঞান বিভাগে সমাজ সংস্কারক সাবিত্রীবাই ফুলে, তারাবাই শিন্ডে, পন্ডিত রমাবাই উপর লেখা সিলেবাস থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে।বিজেপি শাসিত রাজ্য কর্ণাটকে শিক্ষায় গৈরিকীকরণের অভিযোগ তুলে বরাবরই সরব হয়েছে বিরোধীরা। স্কুল পাঠ্যপুস্তকে পরিবর্তন নিয়ে নয়া সিলেবাস কমিটির চেয়ারম্যান রোহিত চক্রতীর্থকে (Rohith Chakrathirtha) কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন অনেকে। এ নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়েছে। তবে এবার চক্রতীর্থ কমিটির কিছু কাজের খতিয়ান সামনে এসেছে।

শিক্ষাবিদ ও লেখক হর্ষ কুমার কুগভে (Harsha Kumar Kugve) একটি তালিকা প্রস্তুত করেছেন। যেখানে দেখা যাচ্ছে, দলিত লেখকদের পাশাপাশি প্রগতিশীল লেখকদের লেখা বাদ দেওয়া হয়েছে স্কুল পাঠ্যক্রম থেকে। সাম্প্রদায়িকতা, বর্ণ বৈষম্য, অস্পৃশ্যতা নির্মূল, লিঙ্গ বৈষম্য এবং শিশু পাচারের মতো সামাজিক সংস্কারের অধ্যায়গুলি সম্পূর্ণরূপে বাদ দেওয়া হয়েছে নতুন সিলেবাসে।

শুধু তাই নয়, মহাত্মা গান্ধী, ডক্টর বি আর আম্বেদকর, জওহরলাল নেহেরুর উপর লেখা বাদ দিয়ে, সিলেবাসে ঠাঁই পেয়েছে আরএসএস-এর বিনায়ক সাভারকার এবং কে বি হেডগেওয়ারের পাঠ।

শিক্ষাবিদ কুগভে জানিয়েছেন, নয়া সিলেবাসে মোট ২৭ জন দলিত লেখকের লেখা বাদ দিয়ে, সে জায়গায় ৯৫ শতাংশ ব্রাহ্মণ লেখকদের লেখা ভরিয়ে দেওয়া হয়েছে।

পঞ্চম থেকে দশম শ্রেণীর সিলেবাসে যে পরিবর্তনগুলি এসেছে, এখানে তার একটি তালিকা তুলে ধরা হল।

ক্লাস ৫ কন্নড়

১) বিখ্যাত কবি মুদনাকুডু চিন্নাস্বামীর (Mudnakudu Chinnaswamy) লেখা ‘নান্না কবিতা’ (আমার কবিতা) বাদ দেওয়া হয়েছে। কর্ণাটকের বান্দায়া সাহিত্য আন্দোলনের একজন প্রতিবাদী মুখ ছিলেন মুদনাকুডু চিন্নাস্বামী। যিনি বর্ণ প্রথার বিরুদ্ধে কথা বলার জন্য কবিতাকে ব্যবহার করেছিলেন।

২) লেখক বলওয়ার মহম্মদ কুন্হির (Bolwar Mahammad Kunhi) 'সুল্লু হেলাবরাদু' (মিথ্যা বলা উচিত নয়) সিলেবাস থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে। কুনহিই প্রথম লেখক, যিনি কন্নড় কথাসাহিত্য মুসলিম সংস্কৃতি নিয়ে গদ্য রচনা করেছেন। ইসলাম সম্পর্কে ভুল ধারণা নিয়েও তিনি অনেক লেখালেখি করেছেন।

৩) কোনও কারণ ছাড়াই 'হোসা ধর্মগালা উদয়া' (নতুন ধর্মের উত্থান) শীর্ষক পাঠ বাদ দেওয়া হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ধর্মীয় সম্প্রীতি সম্পর্কে একটি গুরুত্বপূর্ণ দৃষ্টিভঙ্গি ছিল এই পাঠ্যে।

ক্লাস ৬ কন্নড়

১) ডক্টর বি আর আম্বেদকরকে নিয়ে লেখা কবি চেন্নান্না ওয়ালিকার (Chennanna Walikar)-এর ‘নি হোদা মারুদিনা’ (তুমি চলে যাওয়ার পরের দিন) শীর্ষক কবিতা বাদ দেওয়া হয়েছে। কোনও ব্যখ্যা ছাড়াই এটি করা হয়েছে। বান্দায়া আন্দোলনের (Bandaya movement) অন্যতম কবি ছিলেন ওয়ালিকার, যিনি প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নতির জন্য কলম চালিয়ে গেছেন।

২) বিখ্যাত কন্নড় লেখিকা মালতী পাত্তানশেট্টি (Malathi Pattanshetty)-র 'কুডি নান্না বালাব্য' (আমার জীবন সমগ্র) নামে কবিতা কবিতা বাদ দেওয়া হয়েছে সিলেবাস থেকে। পট্টানশেট্টি একজন পুরস্কার বিজয়ী লেখকা। কর্ণাটক সাহিত্য একাডেমির চেয়ারপার্সন ছিলেন তিনি। সামাজিক অবিচারের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলে তিনি লেখা চালিয়ে গেছেন।

৩) কন্নড় সাহিত্য পরিষদের (KSP) প্রাক্তন সভাপতি মনু বালিগারের (Manu Baligar) 'বা বেগা সূর্য' (Come Soon, Sun) শীর্ষক কবিতা বাদ দেওয়া হয়েছে। ব্যাঙ্কিং সেক্টরে প্রবেশিকা পরীক্ষা কন্নড় ভাষায় করার দাবীতে সোচ্চার হয়েছিলেন তিনি।

৪) দিল্লির জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও লেখক এইচ এস শিবপ্রকাশ (HS Shivaprakash) এর লেখা প্রবন্ধ 'মাগু মাথু হান্নুগালু' (শিশু এবং ফল) সিলেবাস থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে।

ক্লাস ৭ কন্নড়

১) সাবিত্রীবাই ফুলে (Savitribai Phule)-কে নিয়ে ডাঃ এইচএস অনুপমা (Dr HS Anupama)র লেখা প্রবন্ধ বাদ দেওয়া হয়েছে। এর পরিবর্তে রামানদা আচার্যের (Ramanada Acharya) লেখা 'সামাজিক দায়বদ্ধতার প্রথম পাঠ' সিলেবাসে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। রামানদা আরএসএস পরিচালিত কন্নড় সাপ্তাহিক পত্রিকা বিক্রম (Vikrama)-এর সাথে যুক্ত।

২) সামাজিক বিজ্ঞান বিভাগে সমাজ সংস্কারক সাবিত্রীবাই ফুলে (Savitribai Phule), তারাবাই শিন্ডে (Tarabai Shinde), পন্ডিত রমাবাই (Pandit Ramabai) উপর লেখা সিলেবাস থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে।

৩) মহাত্মা গান্ধীর (Mahatma Gandhi) স্বাধীনতা আন্দোলন, চম্পারণ এবং কৃষক আন্দোলন নিয়ে 'গান্ধী যুগ' শীর্ষক প্রবন্ধ সিলেবাস থেকে বাদ পড়েছে।

৪) সমাজ বিজ্ঞান বিভাগে 'আম্বেদকর মাথু আভারা সুধারানেগালু' (আম্বেদকর ও তার সংস্কার) শিরোনামে একটি বিষয় ছিল। যেখানে আম্বেদকরের জন্মস্থান, তার পিতামাতা, মহাদ সত্যাগ্রহ, কালারাম মন্দিরে দলিত প্রবেশে তার আন্দোলনের কথা তুলে দেওয়া হয়েছে পাঠ্যক্রম থেকে।

৫) ‘মহিলা স্বাধীন হোরাতাগারু’ (মহিলা স্বাধীনতা সংগ্রামী) অধ্যায়ে রানী আব্বাক্কা দেবী (Rani Abbakka Devi), বল্লারি সিদ্দামা (Ballari Siddamma), কমলাদেবী চট্টোপাধ্যায় (Kamaladevi Chattopadhyay), যশোধরা দাসপ্পা (Yashodhara Dasappa), উমাবাই কুন্দপুর (Umabai Kundapur)-এর কাহিনী সম্পূর্ণরূপে বাদ দেওয়া হয়েছে।

ক্লাস ৮ কন্নড়

১) সামাজিক সমতা নিয়ে বিজয়মালা রঙ্গনাথের (Vijayamala Ranganath) 'ব্লাড গ্রুপ' নামে একটি লেখা বাদ দেওয়া হয়েছে। এর পরিবর্তে পাঠ্যক্রমে জায়গা পেয়েছে লেখক কে টি গাট্টি (KT Gatti) লেখা 'কালাভান্নু গেদ্দারু' (the one who wins the season) শীর্ষক প্রবন্ধ। এটি আরএসএস নেতা সাভারকার-কে নিয়ে লেখা।

২) জওহরলাল নেহেরুর লেখা 'Letters from a Father to His Daughter' কন্নড় ভাষায় অনুবাদ করেছিলেন থি থা শর্মা (Thi Tha Sharma)। শিরোনাম দেওয়া হয়েছিল 'মাগালিগে বারেদা পাথরগালু' (পিতার কাছ থেকে কন্যাকে চিঠি)। সেটিও তুলে দেওয়া হয়েছে পাঠ্যক্রম থেকে।

৩) সমাজ বিজ্ঞানে প্রাচীন বিশ্ব সভ্যতা, প্রাচীন ভারতীয় সভ্যতা, জৈন ও বৌদ্ধ ধর্মের উত্থান, সিন্ধু সরস্বতী সভ্যতা নিয়ে অধ্যায়ও পরিবর্তন করা হয়েছে।

৪) ভারতের রাজনৈতিক মানচিত্রের জায়গায় আরএসএস কল্পনাপ্রসূত 'অখন্ড ভারত'-এর মানচিত্র আনা হয়েছে।

৫) সমাজ বিজ্ঞানে মানবাধিকার অধ্যায় বাদ দেওয়া হয়েছে।

৬) সমাজ বিজ্ঞানে সম্রাট অশোকের উপর তিন পৃষ্ঠার তথ্য ছিল। তা কমিয়ে আনা হয়েছে। বাদ দেওয়া হয়েছে ‘বৌদ্ধধর্ম ও অশোক’, ‘অশোকের শিলালিপি’ সম্পর্কিত লেখা।

ক্লাস ৯ কন্নড়

১) গৌতম বুদ্ধের নিয়ে দলিত লেখক অরবিন্দ মালাগাট্টির কবিতা 'মারালি মানেগে' (বাড়িতে ফিরে) বাদ দেওয়া হয়েছে।

২) সমাজবিজ্ঞানে 'নম্মা সম্বিধান' (আমাদের সংবিধান) অধ্যায়ে ‘আম্বেদকরকে সংবিধানের স্থপতি ও তাঁর অবদান’ নামে একটি লেখা ছিল। তা সরিয়ে দিয়ে সংবিধানের খসড়া তৈরিতে বিএন রাউ (BN Rau)-এর ভূমিকা তুলে ধরা হয়েছে।

৩) খ্রিস্টান এবং ইসলাম নিয়ে একটি অধ্যায় ছিল। সেটিও তুলে দেয়া হয়েছে।

ক্লাস ১০ কন্নড়

১) আরএসএস প্রতিষ্ঠাতা কে বি হেডগেওয়ারের বক্তৃতা 'নিজভাদা আদর্শ পুরুষ ইয়ারাগবেকু' (কে একজন আদর্শ আদর্শ?) যোগ করা হয়েছে পাঠ্যক্রমে।

২) 'স্বামী বিবেকানন্দের শিক্ষা' বাদ দেওয়া হয়েছে পাঠ্যক্রম থেকে। এর পরিবর্তে দার্শনিক ও সংস্কৃত পণ্ডিত ব্যানাঞ্জে গোবিন্দচার্যের লেখা অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে সিলেবাসে।

৩) সামাজ বিজ্ঞানে- 'মহাত্মা গান্ধীর সময়কালে স্বাধীনতা সংগ্রাম' তুলে দেয়া হয়ে সিলেবাস থেকে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in