Jahangirpuri: নোটিশ না দিয়েই উচ্ছেদ অভিযান - ফের সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ বৃন্দা কারাত

আজ শুনানি শুরুর আগেই দিল্লি মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশনের দ্বারা শুরু করা এই উচ্ছেদ অভিযানকে চ্যালেঞ্জ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছেন সিপিআইএম পলিটব্যুরোর সদস্য বৃন্দা কারাট।
Jahangirpuri: নোটিশ না দিয়েই উচ্ছেদ অভিযান - ফের সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ বৃন্দা কারাত
গতকাল ঘটনাস্থলে বৃন্দা কারাতছবি সৌজন্য - বাপ্পা সিনহা

দিল্লির জাহাঙ্গীরপুরীতে উচ্ছেদ অভিযানের উপর গতকাল তড়িঘড়ি স্থগিতাদেশ জারি করেন প্রধান বিচারপতি এন ভি রমনা। আজ এই মামলার জরুরী শুনানির নির্দেশ দিয়েছিলেন তিনি। আজ সেই শুনানি শুরুর আগেই দিল্লি মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশনের দ্বারা শুরু করা এই উচ্ছেদ অভিযানকে চ্যালেঞ্জ করে ফের সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছেন সিপিআইএম পলিটব্যুরোর সদস্য বৃন্দা কারাট।

সিপিআইএম নেত্রী জানিয়েছেন, যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরণ না করে এবং ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের নোটিশ না দিয়েই উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়েছে। এই পদক্ষেপ দিল্লি মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশন অ্যাক্ট, ১৯৫৭ এবং সংবিধানের পরিপন্থী। পাশাপাশি ন্যায়বিচার ও ন্যায্যতার সমস্ত নীতিও লংঘন করে এই দিল্লি মিউনিসিপ্যাল কর্পোরেশনের এই পদক্ষেপ।

তাঁর আরও অভিযোগ, "উচ্ছেদ অভিযানের আড়ালে সাম্প্রদায়িক রাজনৈতিক খেলা চলছে। বৈষম্যমূলক এবং নির্বিচারে ধ্বংসের অভিযান চালানো হচ্ছে।"

আবেদনে বলা হয়েছে, গতকাল আদালত ১০.৪৫-এ এই উচ্ছেদ অভিযানের উপর স্থগিতাদেশ জারি করেছিল। কিন্তু কর্তৃপক্ষকে সুপ্রিম কোর্টের আদেশের কথা বললেও উচ্ছেদ অভিযান দুপুর ১২.২৫ পর্যন্ত অব্যাহত ছিল। জাহাঙ্গীরপুরি এলাকায় বসবাসকারী এবং কর্মরত লোকেরা খুব দরিদ্র এবং প্রান্তিক শ্রেণির। তাঁরা শাসকের এই বেআইনি অমানবিক পদক্ষেপকে প্রতিহত করতে অক্ষম।

পিটিশনে এই বেআইনি উচ্ছেদ বন্ধ রাখার আবেদন করা হয়েছে। বৃন্দা কারাতের হয়ে সুপ্রিম কোর্টে এই পিটিশন দাখিল করেছেন অ্যাডভোকেট বিজু পি রমন।

গতকাল ঘটনাস্থলে বৃন্দা কারাত
শীর্ষ আদালতের স্থগিতাদেশের কপি সহ জাহাঙ্গীরপুরিতে গিয়ে বুলডোজার থামালেন বৃন্দা কারাত

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.