Agnipath: কেন্দ্রের নতুন পরিকল্পনা ‘সেনাবাহিনীকে শেষ করবে’ - অগ্নিপথ বিরোধী বিক্ষোভে প্রিয়াঙ্কা

কেন্দ্রের নতুন পরিকল্পনা ‘সেনাবাহিনীকে শেষ করবে’। রবিবার দিল্লিতে অগ্নিপথ-এর বিরুদ্ধে এক বিক্ষোভ সমাবেশে একথা জানিয়েছেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা।
Agnipath: কেন্দ্রের নতুন পরিকল্পনা ‘সেনাবাহিনীকে শেষ করবে’ - অগ্নিপথ বিরোধী বিক্ষোভে প্রিয়াঙ্কা
দিল্লিতে অগ্নিপথ বিরোধী বিক্ষোভে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরাছবি প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরার ট্যুইটার হ্যান্ডেলের সৌজন্যে

কেন্দ্রের নতুন পরিকল্পনা ‘সেনাবাহিনীকে শেষ করবে’। রবিবার দিল্লিতে অগ্নিপথ-এর বিরুদ্ধে এক বিক্ষোভ সমাবেশে একথা জানিয়েছেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা। গত কয়েকদিন ধরেই দেশজুড়ে চলছে অগ্নিপথ বিরোধী বিক্ষোভ। এদিন কংগ্রেসের ডাকে দিল্লিতে অগ্নিপথ বিরোধী অবস্থান বিক্ষোভে উপস্থিত ছিলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা।

এদিন বিক্ষোভ সমাবেশে উপস্থিত হয়ে প্রিয়াঙ্কা বলেন, শান্তিপূর্ণভাবে আন্দোলন চালান কিন্তু কোনো অবস্থাতেই আন্দোলন বন্ধ করা চলবে না। কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের পতন নিশ্চিত করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, "এই পরিকল্পনা দেশের যুবকদের হত্যা করবে, সেনাবাহিনীকে শেষ করবে। দয়া করে এই সরকারের উদ্দেশ্য বুঝুন। গণতান্ত্রিক, শান্তিপূর্ণ এবং অহিংস উপায়ে এই সরকারের পতন ঘটান। আপনার উদ্দেশ্য এমন হওয়া উচিত যা জাতির উপকারের জন্য এবং যা দেশের সম্পদ রক্ষা করে। আমি আপনাদের শান্তিপূর্ণভাবে প্রতিবাদ করার আহ্বান জানাচ্ছি, কিন্তু থামবেন না। আন্দোলন আপনার অধিকার। দেশ এবং জাতিকে রক্ষা করার জন্য আন্দোলন করা আপনার কর্তব্য। কংগ্রেসের প্রতিটি নেতা ও কর্মীরা আপনাদের সাথে আছে।

কংগ্রেসের সাংসদ এবং নেতারা আজ দিল্লির যন্তর মন্তরে সকাল থেকে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছেন এবং কেন্দ্রের অগ্নিপথ প্রকল্পের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছেন। এই বিক্ষোভে উপস্থিত ছিলেন, জয়রাম রমেশ, রাজীব শুক্লা, শচীন পাইলট, সালমান খুরশিদ এবং অলকা লাম্বা। বিক্ষোভস্থলে পুলিশ ও আধাসামরিক বাহিনীর ব্যাপক মোতায়েন দেখা গেছে। যন্তর মন্তরে প্রবেশ ও প্রস্থান পথ বন্ধ করে দেওয়া হয়।

প্রসঙ্গত, অগ্নিপথ প্রকল্পে ১৭ থেকে ২১ বছর বয়সী যুবকদের মাত্র চার বছরের জন্য নিয়োগের ব্যবস্থা করা হয় এবং এদের মধ্যে ২৫ শতাংশকে আরও ১৫ বছর চাকরিতে রাখার পরিকল্পনা করা হয়েছে। এই প্রকল্পের বিরুদ্ধে দেশজুড়ে প্রবল বিক্ষোভের পর বয়সসীমা বাড়িয়ে ২৩ বছর করা হয়।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in