Bharat Jodo Yatra-কে সমর্থন করে দিল্লিতে রাহুলের সঙ্গে পা মেলালেন অভিনেতা কমল হাসান

রাহুল গান্ধী বলেন, তাঁর এই যাত্রার উদ্দেশ্য হল ঘৃণা ও বিদ্বেষ দূর করে দেশকে এক সূত্রে গাঁথা। রাহুলের কথায়, 'নফরত কা বাজার মে ম্যায় মোহাব্বত কি দুকান খুলনা চাতা হুঁ।'
রাহুল গান্ধী ও মল্লিকার্জুন খাড়গের সাথে কমল হাসান
রাহুল গান্ধী ও মল্লিকার্জুন খাড়গের সাথে কমল হাসানছবি সৌজন্যে মল্লিকার্জুন খাড়গের টুইটার হ্যান্ডেল

এবার ভারত জোড়ো যাত্রায় অংশ নিলেন দক্ষিণী সুপারস্টার কমল হাসান (Kamal Haasan)। শনিবার, দিল্লিতে ভারত জোড়ো যাত্রায় রাহুল গান্ধীর সঙ্গে পা মিলিয়েছেন অভিনেতা-রাজনীতিবিদ কমল হাসান।

তবে, শুধু কমল হাসান একা নন। এ দিনের যাত্রায় যোগ দেন জয়রাম রমেশ, পবন খেরা, ভূপিন্দর সিং হুডা, কুমারী সেলজা, রণদীপ সুরজেওয়ালা ও অধীর চৌধুরী সহ দলের একাধিক শীর্ষ নেতা।

পরে রাহুলের সঙ্গে যোগ দেন কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি সোনিয়া গান্ধী ও দলের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধীও। এই যাত্রায় দ্বিতীয়বার যোগ দিলেন সোনিয়া গান্ধী। গত অক্টোবরে, কর্ণাটকে কংগ্রেসের পদযাত্রায় অংশ নিয়েছিলেন তিনি।

আজ কংগ্রেসের ভারত জোড়ো যাত্রা দিল্লির মধ্য দিয়ে গিয়েছে। কোভিড প্রোটোকল অনুসরণ করার জন্য স্বাস্থ্যমন্ত্রীর বার্তার মাঝেই রাহুল গান্ধীর সাথে আজ মিছিলে হাজার হাজার মানুষ যোগ দিয়েছেন। অভিনেতা-রাজনীতিবিদ কমল হাসানও আজ দিল্লিতে গান্ধীর যাত্রায় যোগ দিয়েছেন।

এদিনও দলের নেতা-কর্মীদের সম্বোধন করার সময় রাহুল গান্ধী বলেন, তাঁর এই যাত্রার উদ্দেশ্য হল ঘৃণা ও বিদ্বেষ দূর করে দেশকে এক সূত্রে গাঁথা। রাহুলের কথায়, 'নফরত কা বাজার মে ম্যায় মোহাব্বত কি দুকান খুলনা চাতা হুঁ।' অর্থাৎ ঘৃণার সাম্রাজ্যে আমি প্রেম বিলিয়ে দিতে চাই।

তিনি বলেন, তাঁর এই যাত্রার উদ্দেশ্য হল 'প্রকৃত হিন্দুস্তান'কে তুলে ধরা, যেখানে লোকেরা একে অপরকে সাহায্য করে থাকে। রাহুল বলেন, 'তাঁরা (বিজেপি, আরএসএস) ঘৃণা ছড়াতে চায়, আর আমরা (কংগ্রেস) ভালোবাসা বিলিয়ে দিতে চাই।'

প্রসঙ্গত, দু’দিন আগেই করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মান্ডব্য (Mansukh Mandaviya)। রাহুল গান্ধীকে চিঠি লিখে তিনি জানান, ‘যদি করোনা বিধি মেনে চলা না হয়, তাহলে নাগরিকদের স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখে এবং দেশকে মহামারী করোনা থেকে বাঁচাতে জাতির স্বার্থে এই ভারত জোড়ো যাত্রা বন্ধ করার অনুরোধ করছি।’

যদিও রাজস্থানে বিজেপির ‘জন আক্রোশ যাত্রা’ (Jan Aakrosh Yatra) চলছে। সেখানে করোনা বিধি মানার আর্জি জানিয়ে কাউকে কোনও চিঠি লেখেননি স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মান্ডব্য। যা নিয়ে রাজনীতির অভিযোগ তুলেছেন রাহুল গান্ধী। তিনি এদিন বলেন, 'বিজেপি বিভিন্ন রাজ্যে যাত্রা করছে। কিন্তু স্বাস্থ্যমন্ত্রী শুধু আমাদের কাছেই চিঠি পাঠাচ্ছেন।'

কংগ্রেস অভিযোগ করেছে, ভারত জোড়ো যাত্রায় মানুষের মনে ভালোবাসা সঞ্চার হচ্ছে দেখে ভয় পাচ্ছে বিজেপি। তাই তাঁরা রাহুল গান্ধীর যাত্রা বন্ধ করতে চাইছে।

প্রসঙ্গত, শুরু থেকে ভারত জোড়ো যাত্রায় রাহুল গান্ধীর সঙ্গে বিভিন্ন ক্ষেত্রের প্রখ্যাতদের দেখা গিয়েছে। রাজস্থানের সোয়াই মাধোপুরে রাহুলের সঙ্গে হাঁটেন রিজার্ভ ব্যাংকের প্রাক্তন গভর্নর রঘুরাম রাজন (Raghuram Rajan)।

এছাড়া, সমাজকর্মী মেধা পাটেকর (Medha Patkar), স্বঘোষিত ধর্মগুরু নামদেভ দাস ত্যাগী ওরফে কম্পিউটার বাবা (Computer Baba), মহাত্মা গান্ধীর প্রপৌত্র তথা বিশিষ্ট লেখক এবং সমাজকর্মী তুষার গান্ধী (Tushar Gandhi)ও ভারত জোড়ো যাত্রায় হেঁটেছেন।

শুধু তাই নয়, বলিউড অভিনেত্রী পূজা ভাট (Pooja Bhatt), স্বরা ভাস্কর (Swara Bhasker), অভিনেতা অমল পালেকর (Amal Palekar), দক্ষিণী অভিনেত্রী পুনম কৌর (Poonam Kaur), অভিনেত্রী রিয়া সেন (Riya Sen), বক্সার বিজেন্দ্র সিং (Vijenra Singh), রোহিত ভেমুলার মা রাধিকা ভেমুলা (Radhika Vemula)কেও রাহুল গান্ধীর সঙ্গে পদযাত্রায় অংশ নিতে দেখা গিয়েছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in