১ বছর জেল, ১০ হাজার টাকা জরিমানা - প্রতিরক্ষা কর্মীদের ধর্মঘট রুখতে কেন্দ্রের অর্ডিন্যান্স জারি

ধর্মঘট সংগঠকদের দু'বছরের জেল, বা জেল ও জরিমানা উভয়ই হতে পারে।
১ বছর জেল, ১০ হাজার টাকা জরিমানা - প্রতিরক্ষা কর্মীদের ধর্মঘট রুখতে কেন্দ্রের অর্ডিন্যান্স জারি
ফাইল চিত্র

অর্ডিন্যান্স জারি করে প্রতিরক্ষা শিল্পে ধর্মঘট অবৈধ বলে ঘোষণা করল কেন্দ্রীয় সরকার। প্রতিরক্ষা শিল্পের বেসরকারিকরণ রুখতে এই পদক্ষেপ করল কেন্দ্র। আগামী ২৬ জুলাই থেকে শিল্পে বেসরকারিকরণ রুখতে লাগাতার ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে প্রতিরক্ষা কর্মী ফেডারেশনের যৌথ মঞ্চ। ধর্মঘটের সমর্থনে প্রচার-আন্দোলন, বিক্ষোভ কর্মসূচি পালিত হয়েছে। সব কেন্দ্রীয় শ্রমিক সংগঠন এই আন্দোলনকে সমর্থন করেছে। এই পরিস্থিতিতে অর্ডিন্যান্স জারি করে কেন্দ্রের ঘোষণা, যারা এই ধর্মঘটে অংশ নেবে, তাদের কঠোর সাজা দেওয়া হবে। শাস্তিস্বরূপ এক বছরের জেল বা ১০ হাজার টাকা জরিমানা অথবা জেল ও জরিমানা উভয়ই হতে পারে। ধর্মঘট সংগঠকদের দু'বছরের জেল, বা জেল ও জরিমানা উভয়ই হতে পারে।

এই অর্ডিন্যান্সের তীব্র বিরোধিতা করে সিটু নেতা তপন সেন জানিয়েছেন, প্রতিরক্ষা শিল্পে বেসরকারিকরণ রুখতে শ্রমিকদের এই ঐক্যবদ্ধ সংগঠনকে ঠেকাতে অর্ডিন্যান্স জারি করেছে মোদি সরকার। ধর্মঘট রুখতে এই অর্ডিন্যান্স আসলে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনে বিভেদ সৃষ্টির ষড়যন্ত্র। এই অর্ডিন্যান্স প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন তিনি।

প্রতিরক্ষা শিল্পের ৪৪টি অর্ডিন্যান্স ফ্যাক্টরিকে কর্পোরেট সংস্থায় রূপান্তরিত করে বেসরকারিকরণের উদ্যোগ নিয়েছে কেন্দ্র। 'প্রয়োজনীয় প্রতিরক্ষা পরিষেবা অর্ডিন্যান্স ২০২১' নামে বুধবারই গেজেট নোটিফিকেশন করেছে কেন্দ্র। তাতে বলা হয়েছে, যাঁরা প্রতিরক্ষা শিল্পের পণ্য ও সরঞ্জাম উৎপাদন ও পরিষেবা কাজে যুক্ত রয়েছেন, যাঁরা সরঞ্জাম রক্ষণাবেক্ষণ ও মেরামত কাজের সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন, তাঁরা প্রত্যেকেই অর্ডিন্যান্সের আওতাভুক্ত হবেন।

প্রসঙ্গত, এই ২৬ জুলাই থেকে ডাক দেওয়া ধর্মঘটে সমর্থন জানিয়েছে সিটু, আইএনটিটিইউসি, এআইটিইউসি, এইচএমএস, টিইউসিসি, এআইসিসিটিইউ-সহ অন্যান্য সংগঠন।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in