ফের উত্তাল শ্রীলঙ্কা, রাষ্ট্রপতি ভবন আক্রমণ জনতার, 'পলাতক' রাজাপক্ষে

পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে রাষ্ট্রপতির বাসভবনে হামলা চালিয়েছেন কয়েক হাজার বিক্ষোভকারী। ভয়াবহ পরিস্থিতি দেখে রাষ্ট্রপতি ভবন ছেড়েছেন রাজাপক্ষে। জানা যাচ্ছে, রাজাপক্ষেকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নিয়ে গেছে পুলিশ।
চলছে বিক্ষোভ
চলছে বিক্ষোভছবি সংগৃহীত

ফের উত্তাল শ্রীলঙ্কা (Sri Lanka)। রাষ্ট্রপতি গোটাবায়া রাজাপক্ষের (Gotabaya Rajapaksa) পদত্যাগের দাবিতে আবার রাস্তায় নেমেছে বিক্ষুদ্ধ জনগণ। শনিবার, রাজধানী কলম্বোতে রাষ্ট্রপতির সরকারি বাসভবন ঘেরাও করে হামলা চালিয়েছে তাঁরা।

সূত্রের খবর, পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে রাষ্ট্রপতির বাসভবনে হামলা চালিয়েছেন কয়েক হাজার বিক্ষোভকারী। ভয়াবহ পরিস্থিতি দেখে রাষ্ট্রপতি ভবন ছেড়েছেন রাজাপক্ষে। জানা যাচ্ছে, রাষ্ট্রপতি ভবন থেকে রাজাপক্ষেকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নিয়ে গেছে পুলিশ।

শ্রীলঙ্কার পুলিশ ও বিক্ষোভকারীদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ হয়েছে। এই সংঘর্ষে ১০০ জনের বেশি বিক্ষোভকারী জখম হয়েছেন। আহতদের কলম্বোর ন্যাশনাল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

পরিস্থতি নিয়ন্ত্রণে আনতে নামানো হয়েছে সেনাবাহিনী। শুন্যে কয়েক রাউন্ড গুলি চালিয়েছে তাঁরা। কিন্তু, তারপরেও জমায়েত হটানো যায়নি। পরিস্থিতি আরও বুমেরাং হয়ে উঠছে। বিক্ষোভকারীদের উপর গুলি চালানো হয়েছে, এমন গুজব ছড়িয়ে পড়তে আরও ভিড় বাড়ছে কলম্বো শহরের প্রাণকেন্দ্রে।

এরই মাঝে, এক চিঠিতে শ্রীলঙ্কার পোডুজানা পেরামুনা (SLPP) দলের ১৬ জন সাংসদ সদস্য অবিলম্বে রাষ্ট্রপতি গোটাবায়া রাজাপক্ষেকে পদত্যাগের আহ্বান জানিয়েছেন।

এ দিকে, অর্থনৈতিক সংকটে জেরবার শ্রীলঙ্কার মানুষের ক্ষোভের মাঝে সর্বদলীয় জরুরি বৈঠক ডেকেছেন প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমাসিংহে (Ranil Wickremesinghe)। চলমান পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার জন্য সংসদ অধিবেশন ডাকার জন্য স্পিকারের কাছে আবেদনও করেছেন তিনি।

জানা যাচ্ছে, এর আগে গত ১১ মে পুরো পরিবার নিয়ে পালিয়ে গিয়েছিলেন তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে। সে সময়, কলম্বোতে তাঁর সরকারি বাসভবন ঘেরাও করেছিল উত্তেজিত জনতা। পরে বাধ্য হয়ে পদত্যাগ করেন মাহিন্দা রাজাপক্ষে।

প্রসঙ্গত, দ্বীপ রাষ্ট্র শ্রীলঙ্কা এখন চরম অর্থনৈতিক সঙ্কটে। জ্বালানির সংকট, এলপিজির সংকট, মুদ্রাস্ফীতির কারণে দুধের গুঁড়া জাতীয় খাদ্যের ঘাটতি, ডলার সংকট সহ একাধিক কারণে রাষ্ট্রপতি গোটাবায়া রাজাপক্ষের পদত্যাগের দাবিতে দেশজুড়ে বিক্ষোভ শুরু হয়েছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in