জঙ্গীদের আশ্রয় দেবার লজ্জাজনক রেকর্ড পাকিস্তানের দখলে - জাতিসঙ্ঘের অধিবেশনে কড়া সমালোচনায় ভারত

স্নেহা দুবে বলেন, জাতিসংঘের সদস‍্য দেশগুলি জানে সন্ত্রাসীদের আশ্রয়, সাহায্য ও সক্রিয়ভাবে সমর্থন করার পাকিস্তানের একটি প্রতিষ্ঠিত ইতিহাস ও নীতি রয়েছে। ওসামা বিন লাদেনকে আশ্রয় দিয়েছিল পাকিস্তান।
জঙ্গীদের আশ্রয় দেবার লজ্জাজনক রেকর্ড পাকিস্তানের দখলে - জাতিসঙ্ঘের অধিবেশনে কড়া সমালোচনায় ভারত
পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান ও ভারতের প্রতিনিধি স্নেহা দুবেছবি সংগৃহীত

জাতিসংঘ কর্তৃক নিষিদ্ধ ঘোষণা করা সবথেকে বেশি সংখ্যক জঙ্গিদের আশ্রয় দেওয়ার লজ্জাজনক রেকর্ড রয়েছে পাকিস্তানের। জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে সন্ত্রাসবাদ নিয়ে পাকিস্তানের কড়া সমালোচনা করে একথা বললেন ভারতের প্রতিনিধি স্নেহা দুবে।

অধিবেশনে পাকিস্তানের তরফ থেকে সেদেশের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বক্তব্যের পরেই রাইট টু রিপ্লাইয়ের ব‍্যবহার করে ভারতের তরফ থেকে ফার্স্ট সেক্রেটারি স্নেহা দুবে বলেন, জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ কর্তৃক নিষিদ্ধ সবথেকে বেশি সংখ্যক জঙ্গিদের আশ্রয় দেওয়ার লজ্জাজনক রেকর্ড পাকিস্তানের দখলে। ওসামা বিন লাদেনকে আশ্রয় দিয়েছিল পাকিস্তান। এমনকি আজও পাকিস্তানের নেতারা তাঁকে "শহীদের" সম্মান দেন।

তিনি আরো বলেন, দুঃখের বিষয়, আমার দেশের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও বিদ্বেষমূলক প্রচারণা চালানোর জন্য পাকিস্তানের নেতার জাতিসংঘের প্ল‍্যাটফর্ম ব‍্যবহার করার ঘটনা এই প্রথম নয়। এই প্ল‍্যাটফর্ম ব‍্যবহার করে তাঁর দেশের করুণ অবস্থা থেকে বিশ্বের মনোযোগ অন্যত্র সরানোর চেষ্টা করেন তিনি। তাঁর দেশ, যেখানে জঙ্গীরা স্বাধীনভাবে ঘোরাঘুরি করে এবং সাধারণ মানুষ বিশেষ করে সংখ‍্যালঘু সম্প্রদায়ের লোকদের জীবন পাল্টে যায়। তাদের ভয়ে ভয়ে বাঁচতে হয়।

ভারতের পক্ষ থেকে বলা হয়, জাতিসংঘের সদস‍্য দেশগুলি জানে সন্ত্রাসীদের আশ্রয়, সাহায্য ও সক্রিয়ভাবে সমর্থন করার পাকিস্তানের একটি প্রতিষ্ঠিত ইতিহাস ও নীতি রয়েছে। এটি এমন একটি দেশ যেখানে রাষ্ট্রীয় নীতির বিষয় হিসেবে সন্ত্রাসীদের খোলাখুলিভাবে সমর্থন, প্রশিক্ষণ, অর্থায়নকে বৈশ্বিকভাবে স্বীকৃত দেওয়া হয়েছে। এর ফল ভারত সহ গোটা বিশ্ব ভোগ করে।

কাশ্মীর প্রসঙ্গে পাকিস্তানকে হুঁশিয়ারি দিয়ে স্নেহা দুবে বলেন, আমরা আরও একবার বলছি, জম্মু কাশ্মীর ও লাদাখ ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ ছিল, আছে থাকবে। পাকিস্তান অনেক বছর ধরে ভারতের কিছু অংশ বেআইনিভাবে দখল করে রেখেছে। সেই অংশ ছেড়ে দিক পাকিস্তান। পাকিস্তান সহ সমস্ত প্রতিবেশীর সাথে সুসম্পর্ক বজায় রাখতে চায় ভারত।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.