কম্পিউটার হ্যাক করে ভুয়ো নথি ঢোকানো হয়েছিলো, স্ট‍্যান স্বামীর মৃত্যুর পর দাবি নতুন রিপোর্টে

স্ট‍্যান স্বামীর মৃত্যুর একদিন পরেই এক আমেরিকান ফরেন্সিক এজেন্সির রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে এই মামলায় গ্রেফতার হওয়া আর এক সমাজকর্মী সুরেন্দ্র গাডেলিংয়ের কম্পিউটার থেকে পাওয়া প্রমাণ নকল ছিল।
কম্পিউটার হ্যাক করে ভুয়ো নথি ঢোকানো হয়েছিলো, স্ট‍্যান স্বামীর মৃত্যুর পর দাবি নতুন রিপোর্টে
ভীমা কোরেগাঁও হিংসাফাইল ছবি, সবরঙ ইন্ডিয়ার সৌজন্যে

স্ট‍্যান স্বামীর মৃত্যুর একদিন পরেই এক আমেরিকান ফরেন্সিক এজেন্সির রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে এই মামলায় গ্রেফতার হওয়া আর এক সমাজকর্মী সুরেন্দ্র গাডেলিংয়ের কম্পিউটার থেকে পাওয়া প্রমাণ নকল ছিল। মাওবাদীদের সাথে যোগাযোগ থাকার অভিযোগে UAPA আইনে এনআইএ'র হাতে ধৃত ৮৪ বছরের স্ট‍্যান স্বামী সোমবার জেলবন্দী অবস্থাতেই মারা গেছেন।

রিপোর্টে বলা হয়েছে, যে ইমেইলের ওপর ভিত্তি করে সুরেন্দ্র গাডেলিংকে গ্রেফতার করা হয়েছিল তা ম‍্যালওয়ারের সাহায‍্যে তাঁর কম্পিউটারে পাঠানো হয়েছিল। তাঁর গ্রেফতারির দু'বছর আগেই তাঁর কম্পিউটারকে টার্গেট কথা হয়েছিল। এই একই ইমেইল ভীমা কোরেগাঁও মামলার কয়েকজন অভিযুক্তদের কম্পিউটারেও পাওয়া গেছে। এর মধ্যে স্ট‍্যান স্বামীও রয়েছেন। এর ফলে স্ট‍্যান স্বামীর কম্পিউটার টার্গেট করা হয়েছিল বলে মনে করা হচ্ছে।

চলতি বছরের জুন মাসে বস্টনের আর্সেনাল কনসাল্টিং নামের এক সংস্থা এই রিপোর্ট প্রকাশ করে। বস্টন ম‍্যারাথন বম্বিং সহ একাধিক হাই-প্রোফাইল কেস নিয়ে কাজ করেছে এই সংস্থা। রিপোর্ট অনুযায়ী, NetWire নামের একটি ম‍্যালওয়ার ব‍্যবহার করা হয়েছিল গাডলিংয়ের কম্পিউটার টার্গেট করার জন্য। অপরাধী হিসেবে প্রমাণ করার জন্য কম্পিউটারে ভুয়ো তথ‍্য ঢোকানোর প্রমাণ পেতে গাডলিংয়ের হার্ডডিস্ক একাধিকবার পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেছেন বিশেষজ্ঞরা। তাঁদের মতে, ২০১৬ সালের ফেব্রুয়ারি থেকে ২০১৭ সালের নভেম্বর মাস পর্যন্ত গাডলিংয়ের সিস্টেমকে দখলে রেখেছিল ম‍্যালওয়ারটি।

দ্য ওয়াশিংটন পোস্টে প্রকাশিত এক প্রতিবেদন অনুসারে, এই ঘটনায় এটি আর্সেনালের তৃতীয় রিপোর্ট। এর আগের রিপোর্টে বলা হয়েছিলো উইলসনের ল্যাপটপ হ্যাক করা হয়েছে এবং ওই কম্পিউটারে ৩০টির বেশি ফাইল পাঠানো হয়েছিলো। যার মধ্যে ছিলো প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে হত্যার ছক সংক্রান্ত এক বিস্ফোরক চিঠি। এই বিষয়ে ওয়াশিংটন পোষ্টের দাবি পরিকল্পিতভাবে চক্রান্ত করে ওই তথ্য কম্পিউটারে ঢোকানো হয়েছিলো।

জানা‌ গেছে, ২০১৮তে গ্রেপ্তারির দু'বছর আগে ২০১৬ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ই-মেইল মারফত একই ম‍্যালওয়ারের ভিন্ন প‍্যাকেজ পাঠিয়ে গাডলিংয়ের কম্পিউটার সিস্টেম কব্জা করার একাধিকবার প্রচেষ্টা করেছে হামলাকারীরা। অবশেষে ২৯ ফেব্রুয়ারি গাডলিং-এর কম্পিউটারে এই ম‍্যালওয়ার ‌কার্যকর করতে সক্ষম হয়। রিপোর্টে বলা হয়েছে, অপরাধী প্রমাণ করার জন্য কমপক্ষে ১৪টি ভুয়ো চিঠি কম্পিউটারে ঢুকিয়েছিল হামলাকারীরা।

রিপোর্ট অনুযায়ী, কয়েকমাস আগে ভীমা কোরেগাঁও মামলার অপর এক অভিযুক্ত সমাজকর্মী রোনা উইলসনের কম্পিউটারে ৩০টি ভুয়ো প্রমাণ ঢোকানোর যে খবর সামনে এসেছিল, সেই হামলাকারীই গাডেলিংয়ের কম্পিউটারে হামলা চালিয়েছে। আর্সেলানই সেই তথ‍্য প্রকাশ‍্যে এনেছিল।

তিন বছর আগে দলিত অধিকার রক্ষা কর্মী ৫৩ বছর বয়সী সুরেন্দ্র গাডেলিংকে মাওবাদীদের সাথে যুক্ত থাকার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়। তখন থেকে জেলেই রয়েছেন তিনি।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in