Maharashtra: বিধানসভা নির্বাচনে জোট বেঁধে লড়বে মহা বিকাশ আঘাদি - শারদ পাওয়ার

People's Reporter: পাওয়ার বলেন, তিন দল ছাড়াও, বাম দলগুলি, পিডব্লুপি-ও আমাদের জোটে আছে। আমরা তাদের লোকসভা ভোটে আসন দিতে পারিনি। কিন্তু বিধানসভা নির্বাচনে তাদের স্বার্থ রক্ষা করা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব।
শরদ পাওয়ার, রাহুল গান্ধী ও উদ্ধব ঠাকরে
শরদ পাওয়ার, রাহুল গান্ধী ও উদ্ধব ঠাকরে গ্রাফিক্স - সুমিত্রা নন্দন

মহারাষ্ট্রের আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে কংগ্রেস, শিবসেনা (ইউবিটি) এবং এনসিপি (এসপি) ঐক্যবদ্ধভাবে লড়াই করবে। রবিবার একথা জানিয়েছেন এনসিপি (এসপি) প্রধান শারদ পাওয়ার। চলতি বছরের অক্টোবর মাসে ২৮৮ আসন বিশিষ্ট মহারাষ্ট্র বিধানসভার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

রবিবার এক সাংবাদিক সম্মেলনে শারদ পাওয়ার বলেন, লোকসভা নির্বাচনে যেভাবে জোট বেঁধে লড়াই করা হয়েছে একইভাবে বিধানসভা নির্বাচনেও এই জোট ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়াই করবে। এটা জোট শরিকদের নৈতিক দায়িত্ব। মহা বিকাশ আঘাদি সেই শর্ত মেনেই লড়াইয়ের ময়দানে নামবে।

এর আগে ২০১৯ বিধানসভা নির্বাচনের পর উদ্ধব ঠাকরের শিবসেনা, শারদ পাওয়ারের এনসিপি এবং কংগ্রেস একত্রিত হয়ে মহা বিকাশ আঘাদি জোট তৈরি করে সরকার গঠন করে। যদিও ২০২২-এর জুন মাসে শিবসেনা ভেঙে একনাথ শিন্ধে বেরিয়ে যাওয়ায় মহা বিকাশ আঘাদি সরকারের পতন ঘটে। মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা দিতে বাধ্য হন উদ্ধব ঠাকরে। এরপর এনডিএ শিবিরে যোগ দিয়ে বিজেপির সহায়তায় শিবসেনার একনাথ শিন্ধে গোষ্ঠী ক্ষমতায় বসে এবং মুখ্যমন্ত্রী হন শিন্ধে। এর কিছুদিন পরেই এনসিপি-তে ভেঙে বেশ কিছু বিধায়ককে সঙ্গে নিয়ে বেরিয়ে যান অজিত পাওয়ার এবং এনডিএ শিবিরে যোগ দেন। বর্তমানে তিনি মহারাষ্ট্র সরকারের উপ মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন শারদ পাওয়ার বলেন, এবারের লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল প্রমাণ করে দিয়েছে যে, মহারাষ্ট্রের মানুষের আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে মহা বিকাশ আঘাদি জোট। এরপর রাজ্যে সরকারের পরিবর্তন ঘটাতে হবে এবং বিরোধী জোট মহা বিকাশ আঘাদিই সেই বদল নিশ্চিত করবে।

এদিন মহাভারতের উদাহরণ টেনে তিনি আরও বলেন, এখন অর্জুনের মত আমাদেরও একমাত্র লক্ষ্য মাছের চোখ। আমরা সবাই মহারাষ্ট্রের নির্বাচনের দিকে তাকিয়ে আছি। শিবসেনা (ইউটিবি), কংগ্রেস এবং আমরা একজোট হয়ে নির্বাচনে লড়বো। যদিও এখনও পর্যন্ত আমাদের মধ্যে আসন ভাগাভাগি নিয়ে কোনও আলোচনা শুরু হয়নি।

এদিন পাওয়ার বলেন, এই তিন দল ছাড়াও, বাম দলগুলি, পেজেন্টস অ্যান্ড ওয়ার্কার্স পার্টি (পিডব্লুপি)-ও আমাদের এই জোটে আছে। আমরা তাদের লোকসভা ভোটে কোনও আসন দিতে পারিনি। কিন্তু বিধানসভা নির্বাচনে তাদের স্বার্থ রক্ষা করা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব। আমরা তাদের সঙ্গে নিয়েই নির্বাচনে লড়াই করবো।

শরদ পাওয়ার, রাহুল গান্ধী ও উদ্ধব ঠাকরে
Deputy Speaker: ডেপুটি স্পিকার পদে 'অযোধ্যা'-র সাংসদ অবধেশ প্রসাদ? জল্পনা তুঙ্গে
শরদ পাওয়ার, রাহুল গান্ধী ও উদ্ধব ঠাকরে
Maharashtra: বিধানসভা ভোট ঘিরে তৎপরতা, মহারাষ্ট্রে দীর্ঘ বৈঠকে বিজেপি নেতৃত্ব

GOOGLE NEWS-এ Telegram-এ আমাদের ফলো করুন। YouTube -এ আমাদের চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন।

Related Stories

No stories found.
logo
People's Reporter
www.peoplesreporter.in