Lok Sabha Polls 24: রাম জন্মভূমিতে বিজেপিকে হারিয়েছেন সমাজবাদীর দলিত নেতা! কে এই অবধেশ প্রসাদ?

People's Reporter: ৭৭ বছর বয়সী অবধেশ প্রসাদ সমাজবাদী পার্টির দলিত নেতা হিসাবে পরিচিত। তিনি পাসি সম্প্রদায়ভুক্ত। অবধেশ প্রসাদ ছিলেন ন’বারের বিধায়ক।
রাম জন্মভূমিতে বিজেপিকে হারিয়েছেন সমাজবাদীর দলিত নেতা অবধেশ প্রসাদ (বামদিকে)
রাম জন্মভূমিতে বিজেপিকে হারিয়েছেন সমাজবাদীর দলিত নেতা অবধেশ প্রসাদ (বামদিকে)ফাইল ছবি

লোকসভা নির্বাচনের আগে চলতি বছর জানুয়ারিতে অযোধ্যায় রামমন্দির উদ্বোধন করেন মোদী। মনে করা হচ্ছিল, এবারে রামমন্দিরের ধুয়ো তুলেই উত্তরপ্রদেশের সিংহভাগ আসনে জয়ী হবে বিজেপি। কিন্তু সে আশায় জল ঢেলে দিল অখিলেশ-রাহুল জুটি। সিংহভাগ তো দূরের কথা, অর্ধেক আসনই জিততে পারলো না বিজেপি। রাজ্যে ৮০টি আসনের ৩৩ টি আসন পেয়েছে গেরুয়া শিবির। এমনকি রামমন্দির যেখানে অবস্থিত, সেই লোকসভা কেন্দ্র ফৈজাবাদেও জয়ী হতে পারলো না বিজেপি। ফৈজাবাদে বিজেপির দুবারের সাংসদ লাল্লু সিংকে হারিয়ে ৫৪ হাজার ৫৬৭ ভোটে জয়ী হয়েছেন সমাজবাদী পার্টির অবধেশ প্রসাদ।

৭৭ বছর বয়সী অবধেশ প্রসাদ সমাজবাদী পার্টির দলিত নেতা হিসাবে পরিচিত। তিনি পাসি সম্প্রদায়ভুক্ত। অবধেশ প্রসাদ ছিলেন ন’বারের বিধায়ক। ১৯৭৪ সাল থেকে মুলায়েম সিং যাদবের পাশে রয়েছেন তিনি।

লখনউ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইন বিষয়ে স্নাতক পাশ অবধেশ ২১ বছর বয়সে রাজনীতিতে প্রবেশ করেন। তিনি প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী চৌধুরী চরণ সিংয়ের নেতৃত্বাধীন ভারতীয় ক্রান্তি দলে যোগ দেন। চৌধুরী চরণ সিংকে তিনি তাঁর ‘রাজনৈতিক গুরু’ বলে মনে করেন। ১৯৭৪ সালে অযোধ্যার সোহাওয়াল থেকে প্রথম বিধানসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন তিনি।

জরুরী অবস্থার সময়, অবধেশ জরুরী বিরোধী সংগ্রাম সমিতির হয়ে ফৈজাবাদ জেলার সহ-আহ্বায়ক হিসাবে কাজ করেন। তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। জেলে থাকাকালীন তাঁর মা মারা যান কিন্তু তিনি তাঁর শেষকৃত্যে যোগদান করতে পারেননি।

এরপর ১৯৮১ সালে অবধেশ তৎকালীন লোকদল এবং জনতা পার্টি উভয়েরই সাধারণ সম্পাদক হন। বাবার শেষকৃত্যেও যোগ দিতে পারেননি তিনি। কারণ তিনি তখন আমেঠি লোকসভার উপনির্বাচনের ভোট গণনার সময় গণনাকেন্দ্রে ছিলেন। চরণ সিংয়ের কড়া নির্দেশ ছিল গণনা কক্ষ থেকে তিনি যেন বের না হন।

এরপর ১৯৯২ সালে মুলায়েম সিং যাদব গঠন করেন সমাজ বাদী পার্টি। সেই সময় অবধেশ প্রসাদ জনতা পার্টি ছেড়ে মুলায়েম সিংয়ের সমাজবাদী পার্টিতে যোগ দেন। তাঁকে দলের জাতীয় সম্পাদক এবং কেন্দ্রীয় সংসদীয় বোর্ডের সদস্য নিযুক্ত করা হয়েছিল। পরে তিনি এসপি জাতীয় সাধারণ সম্পাদক পদে উন্নীত হন।

যদিও সংসদীয় নির্বাচনে তিনি এই প্রথমবার জয়লাভ করেছেন। এর আগে ১৯৯৬ সালে আকবরপুর লোকসভা কেন্দ্র থেকে প্রার্থী হলেও হেরে গিয়েছিলেন তিনি। অবধেশ ন’বারের বিধায়ক ছিলেন। বর্তমানে তিনি সমাজবাদী পার্টির একজন দলিত মুখ। এবং ফৈজাবাদের বর্তমান সাংসদ।

রাম জন্মভূমিতে বিজেপিকে হারিয়েছেন সমাজবাদীর দলিত নেতা অবধেশ প্রসাদ (বামদিকে)
Adhir Ranjan Chowdhury: নিজেকে বিভাজনের রাজনীতি থেকে দূরে রেখেছি বলেই আমাকে হারতে হয়েছে - অধীর
রাম জন্মভূমিতে বিজেপিকে হারিয়েছেন সমাজবাদীর দলিত নেতা অবধেশ প্রসাদ (বামদিকে)
Narendra Modi: ৮ জুন তৃতীয়বারের জন্য প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ নিচ্ছেন মোদী! জমা দিলেন পদত্যাগপত্র

Related Stories

No stories found.
logo
People's Reporter
www.peoplesreporter.in