ছবি প্রতীকী
ছবি প্রতীকীগ্রাফিক্স আকাশ

Congress: ভোটের মুখে ১৭০০ কোটি টাকা জরিমানার নোটিশ আয়কর দপ্তরের - 'ট্যাক্স সন্ত্রাস' দাবি কংগ্রেসের

People's Reporter: সাংবাদিক সম্মেলনে রমেশ জানান, “আমাদের আর্থিকভাবে পঙ্গু করার জন্য নোটিশ পাঠানো হচ্ছে। এটা কর সন্ত্রাস, কংগ্রেসকে আক্রমণ করার জন্য এই কাজ করা হচ্ছে, অবিলম্বে এগুলো বন্ধ করা দরকার।”

লোকসভা নির্বাচনের মুখে আয়কর দপ্তরের নোটিশ পেল ভারতের জাতীয় কংগ্রেস। যে নোটিশে কংগ্রেসকে ১৭০০ কোটি টাকা জমা দিতে বলা হয়েছে। মূলত ট্যাক্স রিটার্ন-এর ক্ষেত্রে অস্বচ্ছতার অভিযোগ এনে আয়কর দপ্তরে এই টাকা জমা দিতে বলা হয়েছে। যে ঘটনার কড়া সমালোচনা করা হয়েছে কংগ্রেসের পক্ষে।

এদিনের নোটিশ পাবার পর এক সাংবাদিক সম্মেলনে কংগ্রেস নেতা জয়রাম রমেশ এক সাংবাদিক সম্মেলনে জানান, “আমাদের আর্থিকভাবে পঙ্গু করার জন্য নোটিশ পাঠানো হচ্ছে। এটা কর সন্ত্রাস, এবং কংগ্রেসকে আক্রমণ করার জন্য এই কাজ করা হচ্ছে, অবিলম্বে এগুলো বন্ধ করা দরকার।”

এদিন রমেশ আরও বলেন, আমরা এই নোটিশে ভীত নই। এই নোটিশের ফলে আমরা আরও আগ্রাসী ভূমিকা নিয়ে নির্বাচনে লড়াই করব।

জানা গেছে, এই টাকার মধ্যে আছে জরিমানা এবং তার সুদ। সূত্র অনুসারে, কংগ্রেসের ২০১৭-১৮ থেকে ২০২০-২১ আর্থিক বছরের আয়কর রিটার্নের ক্ষেত্রে বেশ কিছু অসঙ্গতির পর এই নোটিশ পাঠিয়েছে আয়কর দপ্তর।

লোকসভা নির্বাচনের মুখে এই বিশাল অঙ্কের টাকা জমা দেবার চিঠি কংগ্রেসের জন্য নিঃসন্দেহে এক বড়ো ধাক্কা। এর আগে আয়কর দপ্তরের পক্ষ থেকে কংগ্রেসকে ২১০ কোটি টাকা জরিমানা করা হয়েছিল এবং দলের অ্যাকাউন্ট ফ্রিজ করে দেওয়া হয়েছিল। যে নির্দেশের বিরুদ্ধে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হলেও সেখানে কোনও সুরাহা মেলেনি। গত বৃহস্পতিবার হাইকোর্টে কংগ্রেসের আবেদন খারিজ হয়ে যায়।

এর আগে ১৪ লক্ষ টাকা হিসেব গরমিলের অভিযোগে কংগ্রেসের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট ফ্রিজ করে দেওয়া হয় এবং জরিমানা ও সুদ হিসেবে ১৩৫ কোটি টাকা কেটে নেওয়া হয়। যে ঘটনা সম্পর্কে কংগ্রেসের অভিযোগ, মাত্র ০.০৭ শতাংশ নগদ লেনদেনের জেরে ১০৬ শতাংশ জরিমানা করা হয়েছে। যা সঠিক নয়।

এদিনের নোটিশের পর কংগ্রেসের পক্ষ থেকে বিজেপির বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার অভিযোগ আনা হয়েছে। কংগ্রেসের বক্তব্য অনুসারে, ১৯ এপ্রিল লোকসভা নির্বাচন শুরু হবার মুখে বিজেপি বিভিন্ন কর সংস্থাকে দিয়ে কংগ্রেসকে আর্থিকভাবে আটকাতে চাইছে।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে কংগ্রেস কোষাধ্যক্ষ অজয় মাকেন এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, "যখন লোকসভা নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে, আইটি বিভাগ ভুলভাবে কংগ্রেসকে জরিমানা করছে এবং অর্থ দাবি করছে। এই বিষয়গুলি স্পষ্টভাবে নির্দেশ করে যে আইটি বিভাগ বিজেপির কোনও ভুল দেখছে না। অতএব, আমাদের দাবি আয়কর দপ্তরের বিজেপিকে ৪,৬০০ কোটি টাকার নোটিশ দেওয়া উচিত।

ছবি প্রতীকী
NDA যোগের আট মাসের মধ্যেই প্রফুল প্যাটেলের বিরুদ্ধে থাকা দুর্নীতি মামলায় ক্লোজার রিপোর্ট জমা CBI-র
ছবি প্রতীকী
মুখতারের মৃত্যুর পর জারি হাই অ্যালার্ট, ‘বিষ দিয়ে মারা হয়েছে’, দাবি গ্যাংস্টার-রাজনীতিকের ছেলের

GOOGLE NEWS-এ Telegram-এ আমাদের ফলো করুন। YouTube -এ আমাদের চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন।

Related Stories

No stories found.
logo
People's Reporter
www.peoplesreporter.in