৯ দফা দাবিতে হোম আইসোলেশনে গেল বিহারের হাজারো চুক্তিভিত্তিক স্বাস্থ্যকর্মী

করোনা রোগীদের রেজিস্ট্রেশন করানো থেকে স্ক্রিনিং টেস্টও করে থাকেন তাঁরা। বেতন যৎসামান্য।
৯ দফা দাবিতে হোম আইসোলেশনে গেল বিহারের হাজারো চুক্তিভিত্তিক স্বাস্থ্যকর্মী
ছবি- প্রতীকী সৌজন্যেঃ দ্য ওয়ার

৯ দফা দাবিতে বিহারের চুক্তিভিত্তিক হাজারো স্বাস্থ্যকর্মী বুধবার হোম আইসোলেশনে চলে গিয়েছেন। এর ফলে রাজ্যে কোভিড টেস্ট ও ভ্যাকসিন দেওয়ার উপর ব্যাপকভাবে প্রভাব পড়তে চলেছে বলে মনে করা হচ্ছে। রাজ্যে ওট ২৭ হাজার চুক্তিভিত্তিক স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছে। "বিহার রাজ্য স্বাস্থ্য সমবিদা কর্মী সঙ্ঘ"- এর ব্যানারের অধীনে এইসব স্বাস্থ্যকর্মীরা কাজ করে থাকেন।

স্বাস্থ্যকর্মীদের দাবি, বেতন বৃদ্ধি করার সঙ্গে সঙ্গে তাদের ৫০ লাখ টাকা করে জীবনবিমাও করে দিতে হবে। পাশাপাশি পরিবারের জন্য পেনশন অন্যান্য সুযোগসুবিধার ব্যবস্থাও করতে হবে। তাদের দাবি, সরকার দীর্ঘদিন ধরে তাদের কোনও দাবিই মানছে না। যতদিন পযর্ন্ত তাদের দাবি পূরণ না হচ্ছে, ততদিন এইসব চুক্তিভিত্তিক স্বাস্থ্যকর্মীরা হোম আইসোলেশনে থাকবেন বলেও হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়েছে।

এমনকী, এই স্বাস্থ্যকর্মীরা সমবেতভাবে পদত্যাগও করবেন বলে জানিয়েছেন সংগঠনের সচিব লালন সিং। কোভিড মহামারিতে রাজ্যের সদর হাসপাতাল, ব্লক হাসপাতাল, স্বাস্থ্যকেন্দ্রগুলোতে পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার কাজ করে থাকেন এইসব চুক্তিভিত্তিক স্বাস্থ্যকর্মীরা। করোনা রোগীদের রেজিস্ট্রেশন করানো থেকে স্ক্রিনিং টেস্টও করে থাকেন। এতকিছু করার পরও তাদের বেতন যৎসামান্য। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে করোনা রোগীদের সেবা করে যাচ্ছেন তারা। কিন্তু, সরকার প্রথম থেকেই তাদের অবহেলা করে যাচ্ছে।

এইসব স্বাস্থ্যকর্মীদের দাবি নিয়ে সরকারকে একাধিকবার চিঠি দেওয়া হয়েছে। কিন্তু এখনও পর্যন্ত তার কোনও উত্তর পাওয়া যায়নি। তাই বাধ্য হয়ে এমন পদক্ষেপ করতে হয়েছে স্বাস্থ্যকর্মীদের। তাই সমস্ত জেলার সিভিল সার্জেন ও অন্যান্য স্বাস্থ্য অধিকর্তাকে জানিয়েই ১২ মে থেকে হোম আইসোলেশনে গিয়েছে এইসব চুক্তিভিত্তিক স্বাস্থ্যকর্মীরা।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in