Covid-19: WHO রিপোর্টের জের - কোভিড কমিশন গঠন, মৃতদের পরিবারকে ৪ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দাবি কংগ্রেসের

কংগ্রেসের মুখপাত্র আরও জানিয়েছেন, মোদি সরকার ভারতকে আবারও বিশ্ব মঞ্চে নামিয়ে দিয়েছে, কারণ বিজেপি সরকারের কোভিড মহামারীর অব্যবস্থাপনা কারও কাছে গোপন নেই।
Covid-19: WHO রিপোর্টের জের - কোভিড কমিশন গঠন, মৃতদের পরিবারকে ৪ লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ দাবি কংগ্রেসের
উত্তরাখন্ডে কোভিড আক্রান্তের দেহ দাহ করার প্রস্তুতি চলছেফাইল ছবি, সংগৃহীত

কোভিডে মৃত্যুসংখ্যার বিষয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিবেদন প্রকাশিত হবার পর কংগ্রেস শুক্রবার একটি কোভিড কমিশন গঠন এবং মৃত পরিবারগুলির সদস্যদের ৪ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দাবি করেছে। কংগ্রেসের মুখপাত্র গৌরব বল্লভ এদিন এক সাংবাদিক সম্মেলনে এই দাবি করেন।

সাংবাদিক সম্মেলনে বল্লভ বলেন, "গত দুই বছরে আমাদের দাবির প্রতি মনোযোগ দিয়ে, সরকারকে অবিলম্বে অক্সিজেনের অনুপলব্ধতা, ভাঙ্গা সাপ্লাই চেইন এর কারণে ঘটে যাওয়া মৃত্যুর বিশ্লেষণের জন্য সব দলের সদস্যদের নিয়ে একটি কোভিড কমিশন গঠন করতে হবে। ভ্যাকসিন এবং ওষুধের ক্ষেত্রে এবং এই জাতীয় মহামারী চলাকালীন আরও ভাল ব্যবস্থাপনার জন্য পরিকল্পনা করুন এবং কোভিডের কারণে মৃতদের পরিবারকে ৪ লক্ষ টাকা প্রদান করুন। যদি মোদী সরকার সাধারণ মানুষকে চিকিত্সা, যত্ন এবং সুযোগ-সুবিধা দিতে না পারে তবে মোদী সরকার এভাবে তাঁদের সম্মান জানাতে পারে।"

কংগ্রেসের মুখপাত্র আরও জানিয়েছেন, মোদি সরকার ভারতকে আবারও বিশ্ব মঞ্চে নামিয়ে দিয়েছে, কারণ বিজেপি সরকারের কোভিড মহামারীর অব্যবস্থাপনা কারও কাছে গোপন নেই।

তিনি বলেন, সরকারের উদাসীন মনোভাব সব সময়ই স্পষ্ট হয়েছে। "দেশের মানুষ দ্বিতীয় ঢেউ-এর সময় আক্রান্তদের অক্সিজেনের জন্য হাঁপাতে দেখেছে... আন্তর্জাতিক মিডিয়ায় ভাসমান মৃতদেহের ছবি প্রচারিত হওয়ায় বিশ্বের দরবারে ভারতকে লজ্জিত হতে হয়েছে।"

ডাব্লুএইচও রিপোর্টের উল্লেখ করে তিনি বলেন, ১ জানুয়ারী, ২০২০ থেকে ৩১ ডিসেম্বর, ২০২১-এর মধ্যে ভারতে কোভিডের কারণে মৃত্যুর সংখ্যা প্রকাশিত হয়েছে৷

তিনি আরও বলেন, সরকারী তথ্য অনুসারে, ভারতে কোভিডের কারণে এখনও পর্যন্ত মাত্র ৫.২৪ লক্ষ মৃত্যু হয়েছে৷ কিন্তু WHO রিপোর্টের কয়েকটি মূল বিষয় হল, বিশ্ব ২০২০ এবং ২০২১ সালে মহামারীতে ১.৪৯ কোটি অতিরিক্ত মৃত্যু দেখেছে। কোভিডের কারণে বিশ্বে প্রতি তিনজনের মধ্যে একজনের মৃত্যু ঘটেছে ভারতে। ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে ২০২১ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে ভারতে কোভিড-১৯-এর কারণে ৪৭ লাখ মৃত্যু হয়েছে বলে ওই রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে।

তিনি জানান, দেশগুলির মধ্যে ২০২০ এবং ২০২১ সালে অতিরিক্ত মৃত্যুর অনুপাতের তুলনায় সরকারীভাবে রিপোর্ট করা কোভিড-১৯ মৃত্যুর তুলনায়, ভারত ৯.৯এক্স অনুপাতের সাথে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে। ভারতের আগে আছে মিশর, ১১.৬ এক্স অনুপাত এবং নিয়ে এবং পরে পাকিস্তান ৮এক্স অনুপাত নিয়ে। ওই রিপোর্ট অনুসারে এখনও পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী গণনা করা হয়নি এমন মৃত্যুর প্রায় অর্ধেকই ভারতে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.