সমকামী প্রেম নিয়ে তৈরি ছবি দেখাতে আপত্তি হল মালিকদের, মুক্তি থমকে গেল রামগোপালের 'ডেঞ্জারাস'-এর

সমকামিতায় মাখামাখি ছবি দর্শকদের কাছে পৌঁছে দিতে নারাজ হল মালিকরা। তাই নিজেদের প্রেক্ষাগৃহে সেই ছবির মুক্তি হতে দিতে চান না তাঁরা। এমনটাই দাবি করলেন পরিচালক রামগোপাল।
সমকামী প্রেম নিয়ে তৈরি ছবি দেখাতে আপত্তি হল মালিকদের, মুক্তি থমকে গেল রামগোপালের 'ডেঞ্জারাস'-এর
ডেঞ্জারাস-এর পোস্টারছবি সংগৃহীত

কলকাতা-সহ গোটা দেশে প্রচার চালালেও শেষরক্ষা হল না 'ডেঞ্জারাস'-এর। মুক্তি থমকে গেল রামগোপাল ভার্মা পরিচালিত এই ছবির। আপত্তি জানিয়েছেন হল মালিকরা। আপত্তির কারণ ছবির কনসেপ্ট। ক্রাইম থ্রিলার পর্যন্ত সম্ভবত সবই ঠিক ছিল। কিন্তু সেই বিষয়ের সঙ্গে জুড়ে গিয়েছে সমকামী প্রেম।

সমকামিতায় মাখামাখি ছবি দর্শকদের কাছে পৌঁছে দিতে নারাজ হল মালিকরা। তাই নিজেদের প্রেক্ষাগৃহে সেই ছবির মুক্তি হতে দিতে চান না তাঁরা। এমনটাই দাবি করলেন পরিচালক রামগোপাল। একটি টুইট করে সেকথাই জানালেন তিনি। আজ অর্থাৎ ৮ এপ্রিল ছবিটির মুক্তি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু শেষপর্যন্ত কবে তা মুক্তি পাবে, তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি। ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় রয়েছেন নয়না গঙ্গোপাধ্যায়, অপ্সরা রানি।

রামগোপাল টুইটারে লেখেন, সবাইকে দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, হল মালিকদের অসহযোগিতায় সিনেমাটির মুক্তি স্থগিত রাখতে হচ্ছে। এই অবিচারের বিরুদ্ধে আমরা লড়ব। পরে একটি তারিখে ছবিটি মুক্তির ব্যবস্থা করব।

দিন কয়েক আগে একটি অনলাইন সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে রামগোপাল বলেছিলেন, 'সেন্সর বোর্ডের দু’টো বিষয়ে সমস্যা হয়। এক, থিম। দুই, অডিও ভিজুয়াল কাট। থিমের ক্ষেত্রে বলি, ৩৭৭ ধারা অনুযায়ী সমকামিতা অপরাধ নয়। ফলে আমার ছবির ক্ষেত্রে থিম সমস্যা হয়নি। দ্বিতীয় ক্ষেত্রে আমি ভেবেছিলাম সেন্সর বোর্ড দেরি করবে, ঝামেলা হবে। কিন্তু আমায় ভুল প্রমাণ করেছে তারা।'

কিন্তু সংবিধান অনুযায়ী সমকামিতা অপরাধ না হলেও, সমাজ যে এখনও তা মেনে নেয়নি তা এই ছবির প্রদর্শন বন্ধের ঘটনায় প্রমাণিত। তবে নেটিজেনদের একটা বড় অংশ মনে করছেন, টপিক নয়, সিনেমা জুড়ে যেভাবে যৌন দৃশ্য দেখানো হয়েছে, তাতেই আপত্তি মালিকদের। পরিচালকের দাবি, চিত্রনাট্যের প্রয়োজনেই ছবিতে সাহসী দৃশ্য এসেছে।

ডেঞ্জারাস-এর পোস্টার
বিজেপির হুমকির জের, ডাবর, ফ্যাবইন্ডিয়ার পর বন্ধ সব্যসাচী মুখার্জির মঙ্গলসূত্রের বিজ্ঞাপন

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.