Fake News: ২০০০-র নোটে জিপিএস! কিছু সংবাদমাধ্যমের দেওয়া ভুয়ো তথ্যের জালে আজও বহু ভারতবাসী

আত্মবিশ্বাসের সাথে তিনি বলেন ২০০০ টাকার নোটে জিপিএস থাকে। অমিতাভ বচ্চন তাঁকে নিশ্চিত হওয়ার জন্যও বলেন। কিন্তু ঐ প্রতিযোগী জানান, ‘শুধু আমি নই, গোটা ভারত জানে এই উত্তর’।
Fake News: ২০০০-র নোটে জিপিএস! কিছু সংবাদমাধ্যমের দেওয়া ভুয়ো তথ্যের জালে আজও বহু ভারতবাসী
ছবি প্রতীকী ফাইল ছবি সংগৃহীত

প্রশ্ন ছিল জিপিএস কোথায় থাকে? যে প্রশ্নের উত্তরে প্রতিযোগী নিশ্চিত ভাবে জানিয়ে দিলেন, ২০০০ টাকার নোটে। রিয়্যালিটি শো-তে ঠিক এই উত্তর দিয়েছেন এক প্রতিযোগী। সোনি টিভির জনপ্রিয় অনুষ্ঠান কৌন বনেগা ক্রোড়পতির এই প্রোমো ঘিরে এখন উন্মাদনা তুঙ্গে।

অমিতাভ বচ্চনের জনপ্রিয় শো 'কৌন বনেগা ক্রোড়পতি'। সেই শো-এর টিজারে দেখা যায় প্রতিযোগীকে প্রশ্ন করা হয় ‘জিপিএস কোথায় থাকে?’ উত্তরের জন্য নিয়ম মত চারটি অপশনও দেওয়া হয়। অপশন ছিল টাইপরাইটার, টেলিভিশন, স্যাটেলাইট এবং ২০০০ টাকার নোট। ভিডিওতে দেখা যায় মহিলাটি প্রশ্ন শেষ হওয়ার সাথে সাথে উত্তর দেন। আত্মবিশ্বাসের সাথে তিনি বলেন, ২০০০ টাকার নোটে জিপিএস থাকে। অনুষ্ঠান সঞ্চালক অমিতাভ বচ্চন তাঁকে নিশ্চিত হওয়ার জন্যও বলেন। কিন্তু ঐ প্রতিযোগী জানান, ‘শুধু আমি নই গোটা ভারত জানে এই উত্তর’।

‘বিগ-বি’ পরিষ্কার জানিয়ে দেন মহিলার উত্তর ভুল। সঠিক উত্তর স্যাটেলাইট। পাশাপাশি ঐ মহিলা দাবি করেন অমিতাভ বচ্চন তাঁর সঙ্গে মজা করছেন। কারণ নোটবাতিলের সময় সব সংবাদমাধ্যমে দেখানো হয়েছিল ২০০০ টাকার নোটে জিপিএস আছে। তখনই বচ্চনকে বলতে শোনা যায়, মজা তো করেছিল সংবাদমাধ্যমগুলি। কিন্তু এতে তো আপনার নিজের ক্ষতি হল। তাই শ্রোতাদের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘জ্ঞান যাহাঁসে মিলে বাটোর লো, লেকিন পেহলে টাটোল লো’ (জ্ঞান যেখান থেকে পাওয়া যায় নিয়ে নিন, কিন্তু আগে যাচাই করে নিন)।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদী সরকার নোট বাতিল করায় বিপাকে পড়েছিল বহু মানুষ। পুরোনো ৫০০, ১০০০ টাকার নোটের বদলে বাজারে নিয়ে আসা হয় নতুন ৫০০ ও ২০০০ টাকার নোট। পাশাপাশি বহু সংবাদমাধ্যমে একাধিক প্রতিষ্ঠিত সাংবাদিক প্রচার করেন ২০০০ টাকার নোটে জিপিএস চিপ আছে। যার ফলে কেউ নাকি আর কালো টাকা রাখতে পারবে না। সাংবাদিকরা টিভি শোতে বলেছিলেন, ২০০০ টাকার নোটে জিপিএস থাকার দরুণ কেউ যদি মাটির নীচে এই টাকা পুঁতে রাখে তাহলেও ধরা পড়ে যাবে। যে শো-এর ভিডিও এখনও ইউটিউবে একটু খুঁজলেই পাওয়া যায়। আর এই ভুয়ো তথ্যই বিশ্বাস করে নেয় জনসাধারণ এবং যে প্রভাব থেকে আজও তাঁরা মুক্ত নয়।

২০০০ টাকার নোটে জিপিএস থাকার দাবি
২০০০ টাকার নোটে জিপিএস থাকার দাবি অনুষ্ঠানের ইউটিউব ভিডিও থেকে স্ক্রIনশট

সাম্প্রতিক সময়ে তথ্য বিকৃতি বা ভুয়ো তথ্য সাধারণ মানুষকে কীভাবে প্রভাবিত করে তা আরও একবার বুঝিয়ে দিলো অমিতাভ বচ্চনের এই শো। কেউ কেউ দাবি করছেন বিজেপি সরকারের নোট বাতিল কর্মসূচি সফল করতেই মানুষের মধ্যে গুজব রটানো হয়েছিল। যদিও আরবিআই-র তরফ থেকে কখনোই জিপিএসের কোনো উল্লেখ করা হয়নি।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in