জুভেন্তাসকে হারিয়ে কোপা ইতালিয়ার শিরোপা ঘরে তুললো নাপোলি। ২০১৩-১৪ মরশুমে এই শিরোপা জেতার ৬ বছর পর আবার কোনো বড় ট্রফি জিতলো দলটি। রোমের স্তাদিও অলিম্পিক স্টেডিয়ামে এদিন নির্ধারিত সময়ে কোনো দলই গোল করতে পারেনি। তাই টাইব্রেকারের মাধ্যমে খেলার ফলাফল নির্ণয় করতে হয়। যেখানে বাজিমাৎ করে নাপোলি গোলরক্ষক আলেক্স মেরেত। জুভেন্তাসকে ২-৪ ব্যবধানে টাইব্রেকারে হারালো সিরোতে গাত্তুসোর দল।

গোটা ম্যাচ জুড়েই ছিলো উত্তেজনা। দুটি দল প্রায় সমান ভাবেই একে অপরের উপর আক্রমণ শানালেও গোল করতে পারেনি কোনো দলই। যদিও দুই দলের কাছেই এসেছিলো গোল করার একাধিক সুযোগ।

প্রথমার্ধে জুভেন্তাস সুপারস্টার ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর কাছে ছিলো জোড়া সুযোগ। লক্ষ্যে শট মেরেও গোল করতে ব্যর্থ হন তিনি। একবারের জন্যেও নাপোলি গোলরক্ষককে বোকা বানাতে পারেননি। অতিরিক্ত তিন মিনিটে নাপোলির সার্ব ডিফেন্ডার নিকোলা মাকসিমোভিচের হেড দারুণ সেভ করেন। এর ফলে টাইব্রেকার ছাড়া অন্য কোনো রাস্তা ছিলোনা।

জুভেন্তাসের হয়ে প্রথম টাইব্রেকার নিতে আসেন আর্জেন্টাইন তারকা পাওলো দিবালা। কিন্তু তাঁর শট আটকে দেন নাপোলি গোলরক্ষক আলেক্স মেরেত। জুভেন্তাসের হয়ে দ্বিতীয় শট নিতে আসে দানিলো। তিনি মারলেন উড়িয়ে। এতে শুরুতেই কোণঠাসা হয় জুভেন্তাস। এরপর লিওনার্দো বোনুচ্চি ও অ্যারন র‌্যামজি গোল করলেও কোনো লাভ হয়নি।

অন্যদিকে নাপোলির হয়ে টাইব্রেকার নিতে আসা ইনসিনিয়ে, পলিতানো, মাকসিমোভিচ ও মিলিক চারজনই গোল করেন। রেকর্ড ১৩ বারের চ্যাম্পিয়ন জুভেন্তাসকে হারিয়ে কোপা ইতালিয়ার শিরোপা ঘরে তুলেন সিরোতে গাত্তুসোর ছাত্ররা।

জনপ্রিয় খবর

  • এই সপ্তাহের এর

  • এই মাস এর

  • সর্বকালীন