তৃণমূল হটাও বাংলা বাঁচাও, বিজেপি হটাও দেশ বাঁচাও শ্লোগান এখন আরও বেশী প্রাসঙ্গিক - সূর্যকান্ত মিশ্র

তৃণমূল হটাও বাংলা বাঁচাও, বিজেপি হটাও দেশ বাঁচাও শ্লোগান এখন আরও বেশী প্রাসঙ্গিক - সূর্যকান্ত মিশ্র
সূর্যকান্ত মিশ্রনিজস্ব চিত্র

বুধবারই গঙ্গাসাগরের কপিলমুনির আশ্রমের প্রধান জ্ঞানদাস মোহান্ত জানিয়েছিলেন – “দিদি প্রধানমন্ত্রী হলে দেশের মঙ্গল হবে। রামমন্দির নির্মাণও হবে।” বৃহস্পতিবার জ্ঞানদাস মোহান্তের সেই কথার রেশ ধরে আরও একবার বিজেপি – তৃণমূলের গোপন আঁতাতের প্রসঙ্গ টেনে আনলেন সিপিআই(এম) রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র।

এদিন নিজের ফেসবুক পেজের এক পোষ্টে সূর্যকান্ত মিশ্র লেখেন - মোদি ও তাঁর দিদির সঙ্ঘসূত্রে পারিবারিক সম্পর্কের ইতিহাস অনুসন্ধান করেছেন গৌতম রায়- "গঙ্গাসাগরে কপিলমুনির আশ্রমের নিয়ন্ত্রক হলো 'হনুমান গাড়ি আখড়া' ।এই আখড়াই অযোধ্যায় ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদের তালা ভেঙে রেখে আসা পুতুল, যাকে পরে ' রামলালা' বলে দাবি করা হয়, তার নিয়ন্ত্রক। এই হনুমান গাড়ি আখড়াই ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদের ধ্বংসস্তুপের উপর তথাকথিত 'রামমন্দির' তৈরি করতে চায়।

মোদি ও তাঁর দিদির সঙ্ঘসূত্রে পারিবারিক সম্পর্কের ইতিহাস অনুসন্ধান করেছেন গৌতম রায়- "গঙ্গাসাগরে কপিলমুনির আশ্রমের...

Posted by Surjya Kanta Mishra on Thursday, 27 December 2018

নিজের পোষ্টে মিশ্র আরও বলেছেন - সেই হনুমান গাড়ি আখড়া নিয়ন্ত্রিত সাগরের কপিলমুনি আশ্রমের প্রধান জ্ঞানদাস মোহান্ত বলেছেন-"দিদি প্রধানমন্ত্রী হলে দেশের মঙ্গল হবে।রামমন্দির নির্মাণ ও হবে। দেশের সাধুসন্তরা রামমন্দির চান। বিজেপি ভোটের আগে রামমন্দিরের প্রতিশ্রুতি দেয়, তারপর ভুলে যায়।"

বিজেপি তৃণমূলের গোপন আঁতাতের অভিযোগ এনে সূর্যকান্ত মিশ্র লিখেছেন - এরপরেও যাঁরা এঁদের একজনকে দিয়ে অপরজনকে মোকাবিলার কথা বলেন তাঁদের নির্বোধ বা 'জ্ঞানপাপী' প্রতারক বলা কী অন‍্যায় হবে? প্রায় ৫ বছর আগে বামপন্থীদের আহ্বান যে কত সঠিক ছিল সে কথা বিবেচনার মধ‍্যে রেখেই এই 'এক এবং অভিন্ন' শত্রুর বিরুদ্ধে লড়াইতে ব‍্যাপকতম শক্তিকে ঐক‍্যবদ্ধ করতে হবে। "তৃণমূল হটাও বাংলা বাঁচাও, বিজেপি হটাও দেশ বাঁচাও" শ্লোগানটি এখন আরও বেশী প্রাসঙ্গিক।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in