Lakhimpur Kheri: আশিস মিশ্রের জামিন বাতিলের সুপারিশ পর্যবেক্ষক বিচারকের - রাজ্য সরকারের মত চাইলো SC

সুপ্রিম কোর্ট উত্তরপ্রদেশ সরকারকে জানিয়েছে লখিমপুর হিংসা মামলার তদন্তের পর্যবেক্ষণকারী বিচারক আশীষ মিশ্রকে দেওয়া জামিন বাতিল করার সুপারিশ করেছেন ও এই বিষয়ে উত্তরপ্রদেশ সরকারের প্রতিক্রিয়া চেয়েছেন।
Lakhimpur Kheri: আশিস মিশ্রের জামিন বাতিলের সুপারিশ পর্যবেক্ষক বিচারকের - রাজ্য সরকারের মত চাইলো SC
লখিমপুর খেরি হিংসার ঘটনায় মূল অভিযুক্ত আশিস মিশ্রফাইল ছবি

সুপ্রিম কোর্ট বুধবার উত্তরপ্রদেশ সরকারকে জানিয়েছে লখিমপুর হিংসা মামলার তদন্তের পর্যবেক্ষণকারী বিচারক আশীষ মিশ্রকে দেওয়া জামিন বাতিল করার সুপারিশ করেছেন এবং এই বিষয়ে উত্তরপ্রদেশ সরকারের প্রতিক্রিয়া চেয়েছেন।

প্রধান বিচারপতি এনভি রমনার নেতৃত্বে এবং বিচারপতি সূর্যকান্ত এবং হিমা কোহলির সমন্বয়ে গঠিত একটি বেঞ্চ উত্তরপ্রদেশ সরকারের আইনজীবীকে জিজ্ঞাসা করে, "পর্যবেক্ষক বিচারকের রিপোর্ট থেকে মনে হচ্ছে যে তিনি জামিন বাতিলের সুপারিশ করেছেন৷ আপনার অবস্থান কী?"

বেঞ্চ আরও জানিয়েছে, এসআইটি উত্তরপ্রদেশের স্বরাষ্ট্রের অতিরিক্ত মুখ্যসচিবকে দুটি চিঠি দিয়েছে। উত্তরপ্রদেশ সরকারের প্রতিনিধিত্বকারী সিনিয়র আইনজীবী মহেশ জেঠমালানি এই প্রসঙ্গে জানিয়েছেন, চিঠিগুলি সম্পর্কে তাঁর কোন ধারণা নেই এবং এই বিষয়ে নির্দেশ নেওয়ার জন্য তিনি কিছুটা সময় চেয়েছেন। প্রধান বিচারপতি বলেন, পর্যবেক্ষক বিচারক সুপারিশ করেছেন, মিশ্রকে দেওয়া জামিনকে চ্যালেঞ্জ করতে হবে। জেঠমালানি এই বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানাতে পাঁচ মিনিট সময় চেয়েছিলেন।

লখিমপুর খেরির ঘটনায় আক্রান্তদের পরিবারের প্রতিনিধিত্বকারী সিনিয়র আইনজীবী দুষ্যন্ত দাভে দাবী করেছেন, শীর্ষ আদালতের হয় হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করা উচিত বা মিশ্রকে দেওয়া জামিন বাতিল করা উচিত। দাভে বলেন, "হাইকোর্টের আদেশ সম্পূর্ণ অ-প্রয়োগের কারণে ভুগছে"।

জেঠমালানি বলেন, তিনি অতিরিক্ত স্বরাষ্ট্রসচিবের সাথে কথা বলেছেন এবং তদন্ত পর্যবেক্ষণকারী বিচারকের কাছ থেকে তিনি কোনও চিঠি পাননি। বেঞ্চ জানিয়েছে, বিচারকের চিঠির কপি রাজ্য সরকারকে দিতে হবে। সোমবার এই বিষয়ে পরবর্তী শুনানির জন্য বেঞ্চকে অনুরোধ করেন জেঠমালানি। বেঞ্চ উত্তর দেয় এটি এক মাসেরও বেশি সময় ধরে হয়েছে এবং বিষয়টিকে মেনে নেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। এই মামলার শুনানির পরবর্তী তারিখ ৪ এপ্রিল।

গত বছরের নভেম্বরে, সুপ্রিম কোর্ট পাঞ্জাব ও হরিয়ানা হাইকোর্টের প্রাক্তন বিচারক বিচারপতি রাকেশ কুমার জৈনকে লখিমপুর খেরি হিংসার তদন্ত পর্যবেক্ষণের জন্য নিযুক্ত করে। শীর্ষ আদালত ঘটনার তদন্তকারী এসআইটি পুনর্গঠন করেছে এবং আইপিএস অফিসার এস বি শিরদকারকে তার প্রধান হিসাবে নিযুক্ত করেছে।

এই মামলায় গত বছরের ৯ অক্টোবর গ্রেফতার হন আশিস মিশ্র। ৩ অক্টোবর, ২০২১-এ, কৃষকদের বিক্ষোভ চলাকালীন সংঘর্ষে লখিমপুর খেরিতে চার কৃষক সহ আটজন নিহত হন।

উত্তরপ্রদেশ সরকার সুপ্রিম কোর্টকে জানিয়েছে, লখিমপুর খেরি হিংসা মামলায় আশীষ মিশ্রকে দেওয়া জামিনকে চ্যালেঞ্জ করে একটি আপিল দায়ের করার সিদ্ধান্ত "প্রাসঙ্গিক কর্তৃপক্ষের সামনে বিবেচনাধীন"।

এই বছরের ফেব্রুয়ারিতে এলাহাবাদ হাইকোর্ট মিশ্রকে জামিন দেয়। যে জামিনের বিরোধিতা করা হয়নি এই অভিযোগ অস্বীকার করে উত্তরপ্রদেশ সরকার এবং পাল্টা একটি হলফনামায় জানায়, মিশ্রের জামিনের আবেদনের তীব্র বিরোধিতা করা হয়েছিল। ঘটনায় আক্রান্তদের পরিবারের সদস্যদের দ্বারা দায়ের করা স্পেশাল লিভ পিটিশন (SLP) সম্পূর্ণ মিথ্যা।

লখিমপুর খেরিতে আশীষ মিশ্রের একটি ড়ির ধাক্কায় নিহত কৃষকদের পরিবারের সদস্যরা তাঁকে দেওয়া জামিনের নির্দেশ চ্যালেঞ্জ করে শীর্ষ আদালতে গিয়েছিলেন। তিনি কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও বিজেপি সাংসদ অজয় ​​কুমার মিশ্রের ছেলে। নিহতদের পরিবারের দাবি, মিশ্রকে দেওয়া জামিনের বিরোধিতা করে রাজ্য সরকার কোনো আপিল করেনি।

- with inputs from IANS

লখিমপুর খেরি হিংসার ঘটনায় মূল অভিযুক্ত আশিস মিশ্র
Lakhimpur Kheri Violence: এলাহাবাদ হাইকোর্টে জামিন মঞ্জুর মূল অভিযুক্ত কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর ছেলের

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

Related Stories

No stories found.