Farmers' Protest: তিন কৃষি আইন বাতিলের দাবীতে আন্দোলনের সাত মাস পূর্তি - দিল্লি সীমান্তে বিক্ষোভ

আন্দোলনের সাত মাস পূর্তি উপলক্ষ্যে আজ কৃষকদের ডাকে দেশজুড়ে পালিত হচ্ছে ‘কৃষি বাঁচাও, গণতন্ত্র বাঁচাও দিবস’। দেশের প্রতিটি রাজ্যের রাজ্যপালের কাছে এদিন কৃষকদের পক্ষ থেকে স্মারকলিপি তুলে দেওয়া হবে।
Farmers' Protest: তিন কৃষি আইন বাতিলের দাবীতে আন্দোলনের সাত মাস পূর্তি - দিল্লি সীমান্তে বিক্ষোভ
ছবি সৌজন্য - সুখদীপ কাউর ঢালিওয়াল

তিন কৃষি আইন বাতিলের দাবীতে বিভিন্ন কৃষক সংগঠনের ডাকা কৃষক আন্দোলন সাত মাসে পূর্ণ করলো। আন্দোলনের সাত মাস পূর্তি উপলক্ষ্যে আজ কৃষকদের ডাকে দেশজুড়ে পালিত হচ্ছে ‘কৃষি বাঁচাও, গণতন্ত্র বাঁচাও দিবস’। দেশের প্রতিটি রাজ্যের রাজ্যপালের কাছে এদিন কৃষকদের পক্ষ থেকে স্মারকলিপি তুলে দেওয়া হবে।

এদিন দিল্লি প্রবেশের গাজীপুর সীমান্তে বড়ো সংখ্যায় কৃষকদের জমায়েত লক্ষ্য করা গেছে। ট্র্যাক্টর সহ কৃষকরা দলে দলে গাজীপুর সীমান্তে জড়ো হয়ে কৃষি আইন বাতিলের দাবীতে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন। তবে সীমান্তে বিক্ষোভ দেখালেও তাঁরা ট্র্যাক্টর নিয়ে দিল্লিতে ঢুকবেন না তা আগেই জানিয়ে দিয়েছেন। এখান থেকে কৃষক নেতা যুধবীর সিং-এর নেতৃত্বে চার-পাঁচ জন কৃষকের প্রতিনিধিদল লেফট্যানেন্ট গভর্নরের সঙ্গে দেখা করে স্মারকলিপি জমা দেবেন।

এদিনই দেশে জরুরি অবস্থার বর্ষপূর্তি এবং কৃষকদের আন্দোলনের সাত মাস পূর্তি উপলক্ষ্যে দেশের সব রাজ্যের রাজ্যপালের হাতে স্মারকলিপি তুলে দেওয়া হবে। এই প্রসঙ্গে ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়নের মুখপাত্র রাকেশ টিকায়েত জানিয়েছেন, এদিন যেসব কৃষকরা বিভিন্ন সীমান্ত অঞ্চলে জমায়েত হবেন তাঁরা কেউ দিল্লিতে ঢুকবেন না। এখানেই বিক্ষোভ দেখিয়ে ফিরে যাবেন। যতক্ষণ পর্যন্ত না কৃষি আইন বাতিল করা হবে ততক্ষণ কৃষকদের এই আন্দোলন চলবে। তিনি আরও বলেন, আমরা দিল্লির সীমান্ত অঞ্চলে বসে থাকলেও কেন্দ্রীয় সরকার আমাদের সঙ্গে দেখা করতে চাইছে না।

এদিন কৃষক বিক্ষোভকে কেন্দ্র করে দিল্লি মেট্রো রেল কর্পোরেশন সকাল দশটা থেকে দুপুর দুটো পর্যন্ত ইউনিভার্সিটি, সিভিল লাইন এবং বিধানসভা স্টেশন বন্ধ রাখার কথা ঘোষণা করেছে।

GOOGLE NEWS-এ আমাদের ফলো করুন

No stories found.
People's Reporter
www.peoplesreporter.in